তৃণমূলের গোষ্ঠীসংঘর্ষে উত্তপ্ত কেশিয়াড়ি

তৃণমূলের গোষ্ঠীসংঘর্ষে উত্তপ্ত কেশিয়াড়ি

তৃণমূলের গোষ্ঠীসংঘর্ষে উত্তপ্ত কেশিয়াড়ি। দুই গোষ্ঠীর সংঘর্ষে  ভাঙচুর হয়েছে দলীয় কার্যালয়। আহত দুই তৃণমূল কর্মী। উত্তেজনা থাকায় এলাকায় পুলিস মোতায়েন রয়েছে। কার ক্ষমতা বেশি। পশ্চিম মেদিনীপুরের কেশিয়াড়িতে তৃণমূলের  দুই গোষ্ঠী নেতার ক্ষমতা জাহিরের লড়াই-এ উত্তপ্ত হয়ে উঠল কেশিয়াড়ি। কেশিয়াড়ির তৃণমূল ব্লক সভাপতি জগদীশ দাস  আর তৃণমূলের খেত মজদুর ইউনিয়নের নেতা ফটিকরঞ্জন পাহাড়ি। দুজনের  লড়াইয়ে ভাঙচুর হল তৃণমূল পার্টি অফিস। আহত দুই তৃণমূল সমর্থক।  তৃণমূলের দলীয় কার্যালয় ভাঙচুরের অভিযোগ উঠেছে জগদীশ দাশ গোষ্ঠীর অনুগামীদের বিরুদ্ধে।

ক্ষতিপূরণের চেকে নাম বিভ্রাট

মাখড়ায় নিহতদের ক্ষতিপূরণ দেওয়া ঘিরে নয়া বিতর্ক। সরকারি ঘোষণামাফিক আজ ক্ষতিপূরণের চেক নিলেন নিহত সুলেমান শেখের স্ত্রী আনসারা বিবি। কিন্তু, চেকে আনসারার বদলে লেখা ছিল আমপাড়া বিবির নাম। ফলে সাময়িক বিভ্রান্তি ছড়ায়। যদিও পরে তা ঠিক করে দেওয়া হয়। কিন্তু, সুলেমান শেখের পরিবারকে সরকারি ক্ষতিপূরণ দেওয়ায় নতুন বিতর্ক তৈরি হয়েছে। মাখড়ায় মাস্কেটবাহিনীর তাণ্ডবের সময় সুলেমান শেখের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। অভিযোগ, তৃণমূল কর্মী বলে পরিচিত সুলেমান শেখ বহিরাগত। এমনকি হামলার ঘটনাতেও তিনি জড়িত বলে অভিযোগ উঠেছে। একজন অভিযুক্তের পরিবার কী করে সরকারি ক্ষতিপূরণ পেলেন তা নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন বিরোধীরা।