হারতে ভুলে গেছে স্পেন, দ্রুততম গোলের রেকর্ড হার্নান্ডেজের

গ্রুপ লিগে টানা তিন ম্যাচ জিতে কনফেডারেশন কাপের সেমিফাইনালে পৌঁছে গেল বিশ্বচ্যাম্পিয়ন স্পেন। শেষ ম্যাচে নাইজেরিয়ার সঙ্গে ড্র করতে পারলেই শেষ চারের টিকিট নিশ্চিত করে ফেলত ইউরো চ্যাম্পিয়নরা। আফ্রিকান সিংহদের ৩-০ গোলে উড়িয়ে দিয়ে গ্রুপ শীর্ষে থেকে সেমিতে চলে গেল ভিনসেন্ট দেল বস্কের দল। তাহিতির বিরুদ্ধে চার গোল করলেও নাইজেরিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম একাদশে জায়গা হয়নি চেলসির তারকা স্ট্রাইকার ফার্নান্ডো টোরেসের।

আজুরি বধ করে ব্রাজিলের হ্যাটট্রিক, নেইমারও গোল করলেন

বিশ্ব ফুটবলে আবার স্বমহিমায় ফিরল ব্রাজিল। বিশ্বকাপের মহড়া হিসাবে পরিচিত কনফেডারেশন কাপে সব ম্যাচ জিতে সেমিফাইনালে উঠল লুই ফিলিপ স্কোলারির দল। শনিবার রাতে নাটকীয় ম্যাচে ইতালিকে ৪-২ গোলে হারিয়ে দিল ২০১৪ বিশ্বকাপের আয়োজকরা। এদিনের ম্যাচটা ছিল বিশ্ব ফুটবলের সবচেয়ে সফল দুই দেশের। সেই সঙ্গে নেইমারের দুরন্ত ফর্মও অব্যাহত। পরপর তিন ম্যাচে যেমন ব্রাজিলও জিতল, তেমনই পরপর তিন ম্যাচে গোলও করলেন নেইমার।

নেইমার ছন্দে সাম্বার দেশ শেষ চারে, `সুমো ম্যাচ`জিতে ইতালিও সেমিতে

ফিফা র‌্যাঙ্কিং যদি বিচার্য বিষয় হয় তাহলে মেক্সিকোর বিরুদ্ধে পিছিয়ে থেকে শুরু করেছিল ফুটবলের দেশ ব্রাজিল। কিন্তু মাঠের লড়াই শুরু হতে সব সমালোচনাকে উড়িয়ে দিয়ে মেক্সিকোকে ২-০ গোলে হারিয় দিল ব্রাজিল। এই জয়ের ফলে পরপর দুটো ম্যাট দিতে কনফেডারেশন কাপের সেমিফাইনালে উঠে গেল লুই ফিলিপ স্কোলারির দল। অন্যদিকে, এশিয়ার জায়েন্ট জাপানের বিরুদ্ধে নাটকীয়ভাবে ম্যাচ দিতে চারবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ইটালিও।

ব্রাজিলের ত্রিফলায় সূর্যোদয়ের দেশে সূর্যাস্ত

আশঙ্কা একটা ছিলই। ব্রাজিল নাকি আর ব্রাজিলে নেই। তা ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে সর্বকালীন পতনই হোক বা পরপর জয় হাতছাড়া করার রেকর্ড সবকিছুই চলছিল। সেই ব্রাজিল আবার ফিরল ব্রাজিলে। জয় দিয়েই কনফেডারেশন কাপে নিজেদের অভিযান শুরু করল ব্রাজিল। জাপানকে ৩-০ গোলে হারিয়ে দিল তারা।

বিশ্বকাপ ফাইনালে হারের প্রতিশোধ ব্রাজিলের

কনফেডারেশন কাপের ঠিক আগে ছন্দ খুঁজে পাওয়ার জয় পেল ব্রাজিল। রবিবার রাতে প্রস্তুতি ম্যাচে ফ্রান্সকে ৩-০ গোলে স্কোলারির দলের হারানোটা একদিকে যেমন ইতিহাস বদলানোর, অন্যদিকে তেমন প্রতিশোধ তোলার।