ফের অমানবিকতার নজির সালেশি সভার, মধ্যযুগীয় বর্বরতার শিকার শ্রমিক ফের অমানবিকতার নজির সালেশি সভার, মধ্যযুগীয় বর্বরতার শিকার শ্রমিক

ফের অমানবিক শাস্তির বিধান সালিশি সভার। মধ্যযুগীয় বর্বরতার শিকার  হলেন এক শ্রমিক। চোর সন্দেহে তাঁর পুরুষাঙ্গে ইট বেঁধে  ঝুলিয়ে রাখা হয় দীর্ঘক্ষণ। গুরুতর অসুস্থ ওই শ্রমিক আপাতত হাসপাতালে চিকিত্‍সাধীন। ইংরেজবাজার থানা এলাকার এই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিস।ইংরেজবাজার থানার যদুপুর এক নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের বহেরপুর মডেল কলোনীর এক হার্ডওয়্যারের দোকানে গত বুধবার চুরি হয়। দোকানেরই এক শ্রমিক নগদ আট হাজার টাকা চুরি করেছে বলে মালিকের সন্দেহ হয়। রবিবার গ্রামে সালিশি সভা বসে। সভায় দোকান মালিকসহ সকলের সামনে চুরির কথা অস্বীকার করেন ওই শ্রমিক। তবু সালিশি সভার মাতব্বররা শাস্তি ঘোষণা করে দেন।

গণধর্ষণের অভিযোগ সালিশি সভায় মিটিয়ে নেওয়ার পরামর্শ, কাঠগড়ায় গাজোল থানা গণধর্ষণের অভিযোগ সালিশি সভায় মিটিয়ে নেওয়ার পরামর্শ, কাঠগড়ায় গাজোল থানা

গণধর্ষণের অভিযোগ না নিয়ে সালিশি সভায় বিষয়টি মিটিয়ে নেওয়ার পরামর্শ। কাঠগড়ায় মালদহের গাজোল থানা। অভিযোগ, সাড়া মেলেনি জেলার পদস্থ কর্তাদের কাছ থেকেও। শেষ পর্যন্ত জেলা  বার অ্যাসোসিয়েশনের দ্বারস্থ হন  নির্যাতিতা।  ঘটনার তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন পুলিস সুপার।স্বামী কর্মসূত্রে বাইরে থাকায় মাকে নিয়ে বাড়িতে একাই থাকতেন কৃষ্ণপুর গোয়ালপাড়ার বাসিন্দা ওই মহিলা। দশই মে ছয় দুষ্কৃতী  চড়াও হয়তাঁর বাড়িতে। অভিযোগ, এরপর মায়ের গলায় ধারাল অস্ত্র ঠেকিয়ে পাশের ধানক্ষেতে নিয়ে গিয়ে মহিলাকে ধর্ষণ করে চার দুষ্কৃতী।