ইউপিএ সরকার আত্মসমর্পণ শর্ত 'না' মানায় হাতছাড়া দাউদ, দাবি করলেন আইনজীবী রাম জেঠমালানি

ইউপিএ সরকার আত্মসমর্পণ শর্ত 'না' মানায় হাতছাড়া দাউদ, দাবি করলেন আইনজীবী রাম জেঠমালানি

তাঁর শর্ত মানলে আত্মসমর্পণ করতে চেয়েছিলেন অন্ধকার জগতের ডন দাউদ ইব্রাহিম, এমন দাবি করলেন প্রবীন আইনজীবী রাম জেঠমালানি।

রাম জেঠমালানিকে পদচ্যুত করল বিজেপি

প্রবীণ আইনজীবী রাম জেঠমালানিকে পদচ্যুত করল ভারতীয় জনতা পার্টি। বিজেপির রাজনীতি ও শীর্ষ নেতাদের বিরুদ্ধে মন্তব্য করার অপরাধেই কোপ পড়ল তাঁর সদস্য পদে। এমনকী দিনকয়েক আগে, তাঁকে পদচ্যুত করার হুঁশিয়ারিও দিয়েছিলেন রাম জেঠমালানি।

রামের সার্টিফিকেট পেয়েও `শিবের` কাঁটা ফুটল মোদীর

একদিনের দুটো ঘটনা। আর এতে কখনও ফ্রন্টফুটে আবার কখনও ব্যাকফুটে চলে গেলেন নরেন্দ্র মোদী। বিজেপি সভাপতি হিসাবে রাজনাথের প্রত্যাবর্তনের পর, অনেকে ধরেই নিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রীর দৌড়ে মোদী অনেকটা এগিয়ে যাবেন। বিজেপির বিক্ষুব্ধ নেতা রাম জেঠমালানির কথাতেও সেই সুরই প্রকাশ পায়। মোদীর সবচেয়ে বড় `ডিসঅ্যাডভান্টেজ` ধর্ম নিরপেক্ষতার ইস্যুতে একেবারে সবুজ কার্ড দেখিয়ে তিনি বলেন, "প্রধানমন্ত্রী প্রার্থীর জন্য আমি মোদীর পাশে আছি। আমার কাছে ধর্মনিরপেক্ষতার সংজ্ঞা হলেন মোদী।"

জেঠমালানির তোপের মুখে এবার জেটলি, সুষমারাও

শোকজ নোটিস পাওয়ার পর আরও আক্রমণাত্মক হয়ে উঠেলন রাম জেঠমালানি। নিতিন গড়করির পর এবার রাম জেঠমালানির রোষানলে এবার সুষমা স্বরাজ, অরুণ জেঠলি। সোমবার বিজেপি সভাপতিকে তিনি একটি চিঠি লেখেন। চিঠিটিতে এই বর্ষীয়ান রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব সিবিআই ডিরেক্টর নিয়োগ প্রক্রিয়ায় এই দুই বিজেপি নেতার ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। মঙ্গলবার চিঠিটির কথা প্রকাশ্যে এলে এই নিয়ে তৎক্ষণাৎ বিতর্ক শুরু হয়।

জেঠমালানি সাসপেন্ড, আজ বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিতে পারে দল

শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে দল থেকে সাসপেন্ড হলেন বিজেপি সাংসদ রাম জেঠমালানি। তাঁকে বহিষ্কার করা হবে কিনা সে বিষয়ে আগামীকাল বিজেপি সংসদীয় দলের বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। আজ বিজেপি সভাপতি নীতীন গড়করি, জেঠমালানিকে সাসপেন্ড করেন। দুর্নীতির অভিযোগ ওঠায় গড়করিকে দলের সভাপতির পদ থেকে সরানোর জন্য প্রকাশ্যেই সওয়াল করছিলেন রাম জেঠমালানি।

গড়করির বিরুদ্ধে ওঠা সব অভিযোগের পিছনে মোদী: এম জি বৈদ্য

বিজেপির গৃহ কোন্দল অব্যাহত। এবার ময়দানে অবতীর্ণ হলেন বিজেপি সহযোগী আরএসএসের নেতা এম জি বৈদ্য।

গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ এনে তিনি বললেন বিজপি সভাপতি নিতিন গড়করির

বিরুদ্ধে সমস্ত রকম প্রচারের পিছনে নাকি আসলে মোদীই আছেন।

গড়করি ইস্যুতে ক্রমশ স্পষ্ট হচ্ছে ভাঙন

বিজেপির কোর গ্রুপ তাঁর পাশে থাকলেও নীতিন গড়করি ইস্যুতে দলের মধ্যে বিভাজন এখন স্পষ্ট। তাঁর বিরুদ্ধে আর্থিক অসঙ্গতির অভিযোগ ওঠার পর থেকেই সভাপতির পদ থেকে নীতিন গড়করির পদত্যাগের দাবিতে সরব বিজেপির অন্যতম শীর্ষ নেতা রাম জেঠমালানি। তবে তিনি একা নন। এই ইস্যুতে যশবন্ত সিং, যশবন্ত সিনহা ও শত্রুঘ্ন সিনহার মত দলের আরও কয়েকজনেরও সমর্থন আছে বলেও দাবি করেছেন রাম জেঠমালানি।