ক্রিকেটের মতো রাজনীতিতেও ব্যর্থ শ্রীসন্থ?

ক্রিকেটের মতো রাজনীতিতেও ব্যর্থ শ্রীসন্থ?

ক্রিকেট মাঠে তাঁর ঝোড়ো বোলিংয়ের দাপট খুব বেশিদিন দেখতে পাওয়া যায়নি। জড়িয়ে পড়েন স্পট ফিক্সিং দুর্নীতে। তাই খেলার মাঠ ছেড়ে এবার রাজনীতির ময়দানে পা রাখলেন শ্রীসান্থ। যোগ দেন বিজেপিতে। তাকে প্রার্থীও করা হয় কেরলের তিরুবন্তপুরম থেকে। কিন্তু, এবারও ব্যার্থতার সম্মুখিন হতে হল তাঁকে। হেরে গেলেন কংগ্রেস প্রার্থী ভি এস শিবকুমারের কাছে।

এবার কেরলের হয়ে লড়বেন শ্রীসন্থ এবার কেরলের হয়ে লড়বেন শ্রীসন্থ

সপ্তাহের গোড়ার দিকেই খবরটা কানে এসেছিল। কিন্তু কোনও আনুষ্ঠানিক ঘোষণা হয়নি। শুক্রবার সেটা হয়ে গেল। দিল্লিতে বিজেপি-র হেড কোয়ার্টার থেকে জানিয়ে দিলেন যে, বিজেপিতে যোগ দিলেন প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার শ্রীসন্থ।

শ্রীসন্থকে কেরল ভোটে প্রার্থী হওয়ার প্রস্তাব বিজেপির শ্রীসন্থকে কেরল ভোটে প্রার্থী হওয়ার প্রস্তাব বিজেপির

সেই চেনা ছক। প্রথমে ক্রিকেটার, তারপর কলঙ্কের দাগ। সেই দাগ কিছুটা মিটতেই সহানুভূতির হাওয়া। তারপর সেই সহানুভূতির হাওয়ায় ভর করে নির্বাচনে জয়ের চেষ্টা। আসন্ন কেরল বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি প্রার্থী হিসেবে লড়তে দেখা যেতে পারে স্পট ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত ক্রিকেটার শ্রীসন্থ। দিল্লি বিজেপি-র এক নেতা শ্রীসন্থকে তাদের হয়ে ভোটে দাঁড়ানোর প্রস্তাব দেন। শ্রীসন্থ কিছুটা সময় চেয়েছেন। শ্রীসন্থের পরিবার জানায়, তাকে তিরুবন্তপুরম আসনে লড়ার জন্য বিজেপি প্রস্তাব দিয়েছে। যদিও কেরলের বিজেপি সভাপতি এই খবরের কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে রাজি হননি। শ্রীসন্থ যদি রাজি হননি তাহলে তাকে লড়তে হবে রাজ্যের দাপুটে মন্ত্রী কংগ্রেসের কে বাবুর বিরুদ্ধে। শ্রীসন্থ এখন ব্যস্ত অভিনয়ের কাজে।

শ্রীসন্থ চান ২০১৯ বিশ্বকাপে খেলতে, নির্বাসন তুলতে বোর্ডকে চিঠি কেরল ক্রিকেট সংস্থার শ্রীসন্থ চান ২০১৯ বিশ্বকাপে খেলতে, নির্বাসন তুলতে বোর্ডকে চিঠি কেরল ক্রিকেট সংস্থার

আদালতে যখন তাঁকে নির্দোষ হিসেবে ঘোষণা করেছে তখন বিসিসিআইয়ের উচিত শান্তাকুমারন শ্রীসন্থের উপর আরোপিত নির্বাসন তুলে নেওয়ার। বোর্ডকে চিঠি লিখে এমনটাই জানাল কেরল ক্রিকেট সংস্থা। শীর্ষ আদালত ফিক্সিং কাণ্ডে 'কলঙ্কিত' শ্রীসন্থকে নির্দোষ ঘোষণার পর থেকেই তার রাজ্য কেরলে সহানভূতির হাওযা বইছে। আদালতে মুক্ত হওয়ার পর শ্রীসন্থ কেরলে ফিরতেই তাঁকে বিশ্বজয়ের ঢঙে বরণ করে নেওয়া হয়।

দাউদের সঙ্গে যোগাযোগ থাকলে দুবাইতে থাকতাম: শ্রীসন্থ দাউদের সঙ্গে যোগাযোগ থাকলে দুবাইতে থাকতাম: শ্রীসন্থ

স্পট ফিক্সিং মামলায় বেকসুর খালাস হয়ে বাড়ি ফিরলেন শ্রীসন্থ। শনিবার দিল্লি আদালত এই মামলায় শ্রীসন্থ সহ সব অভিযুক্তকে বেকসুর খালাস ঘোষণা করেছে। রবিবার সকালে শ্রীসন্থ কেরালার বাড়িতে ফেরেন। কোচি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌছতেই অনুরাগীরা ফুলের মালা পরিয়ে বরণ করে নেন ঘরের ছেলেকে। বিমানবন্দরে শ্রীসন্থ জানান তার বিরুদ্ধে দাউদ ইব্রাহিমের সঙ্গে যোগাযোগের অভিযোগ আনা হয়েছিল। কিন্তু তিনি দাউদকে চেনেনই না। শ্রীসন্থের দাবি দাউদের সঙ্গে যোগাযোগ থাকলে তিনি আজ ভারতে থাকতেন না। দুবাইতে থাকতেন। আর তিনি ক্রিকেটারও থাকতেন না, অন্য কিছু হতেন।

কন্যা সন্তানের বাবা হলেন শ্রীসন্থ কন্যা সন্তানের বাবা হলেন শ্রীসন্থ

বাবা হলেন ভারতীয় ক্রিকেটের ব্যাড বয়। কন্যা সন্তানের জন্ম দিলেন শ্রীসন্থের স্ত্রী ভুবনেশ্বরী কুমারি। শ্রীসন্থ এই খুশির খবর নিজের টুইটারে দেন। স্পট ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিতর্কিত এই পেসার লেখেন, আমার মেয়ে হয়েছে। মেয়ের মা ভাল আছে বলেও জানান শ্রীসন্থ।

মে মাসে বাবা হচ্ছেন শ্রীসন্থ, মার্চে বিয়ে করছেন রায়না মে মাসে বাবা হচ্ছেন শ্রীসন্থ, মার্চে বিয়ে করছেন রায়না

আইপিএল স্পট ফিক্সিংকাণ্ডে অভিযুক্ত নির্বাসিত ক্রিকেটার শান্তাকুমারন শ্রীসন্থ বাবা হতে চলেছেন। ঘনিষ্ঠমহল সূত্রে খবর সব কিছু ঠিকঠাক চললে মে মাসেই শ্রীসন্থ বাবা হচ্ছেন। ২০১৩ সালের ডিসেম্বরে শ্রীসন্থ বিয়ে করেন রাজস্থানের রাজ পরিবারের মেয়ে ভূবনেশ্বরী কুমারীকে। বাবা হওয়ার খবরে বেজায় খুশি শ্রীসন্থ বলেন, "ছেলে হোক কী মেয়ে আমার সন্তান যেন সুস্থ থাকে, এখন আমার নিজেকে নিজেকে খুব সুখি বলে মনে হচ্ছে।"

ডিসেম্বরের ১২ তারিখ রাজ পরিবারের মেয়েকে বিয়ে করছেন শ্রীসন্থ

বেটিং কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত হয়ে ক্রিকেট থেকে চির নির্বাসিত হয়েছেন। বাইশ গজ তাকে মুখে ফিরিয় দিয়েছে, কিন্তু জীবন তো আর থেমে থাকতে পারে না, তাই জীবনের পিচে নতুন ইনিংস শুরু করতে চলেছেন শ্রীসন্থ। আগামী মাসের ১২ তারিখ বিয়ে করতে চলেছেন বিশ্বকাপজয়ী দলের সদস্য এই ক্রিকেটার। পাত্রী রাজস্থানের এক রাজপরিবারের সদস্যা।

জেলে থেকে ছাড়া পেয়ে শ্রীসন্থ বললেন, আমি সত্‍

জেলে থেকে ছাড়া পেয়ে শ্রীসন্থ বললেন, আমি সত্‍ জামিন গতকালই পেয়ে গিয়েছিলেন। আজ তিহার জেল থেকে ছাড়া পেলেন স্পট ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিশ্বকাপজয়ী ক্রিকেটার এস শ্রীসন্থ।

শ্রীসন্থদের বিরুদ্ধে মকোকা দাবি পুলিসের

আইপিএল কাণ্ডে গ্রেফতার তিন ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে মকোকা আইন প্রয়োগের সিদ্ধান্ত নিল দিল্লি পুলিস। এই কাণ্ডে গ্রেফতার ২৫জন বুকিদের বিরুদ্ধেও একই আইন প্রয়োগের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সংগঠিত অপরাধের বিরুদ্ধে অত্যন্ত কঠোর আইন মকোকা। স্পট ফিক্সিংয়ে আন্ডারওয়ার্ল্ডের যোগসূত্র ধরা পড়ায় মহারাষ্ট্রের এই আইনটি প্রয়োগের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

চান্ডিলার বাড়ি থেকে উদ্ধার ২০ লক্ষ টাকা

আইপিএল গড়াপেটা কেলেঙ্কারির টাকার লেনদেনের তদন্তে এবার এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টোরেটের (ইডি) আধিকারিকরা। দিল্লি পুলিস , মুম্বই পুলিস, ইডির সঙ্গে বিসিসিআইও পৃথক ভাবে অভ্যন্তরীণ তদন্তের উদ্যোগ নিয়েছে। বোর্ডের দুর্নীতি বিরোধ শাখার প্রতিনিধিরা আজ দিল্লি পুলিসের সঙ্গে দেখা করবেন। 

কলকাতা-রাজস্থান রয়্যালস ম্যাচেও ফিক্সিংয়ের চুক্তি হয়েছিল: পুলিস

ফিক্সিং কাণ্ডে আরও চাঞ্চল্যকর তথ্য বেরিয়ে এল। শনিবার পরিষ্কার হয়ে গেল শুধু শ্রীসন্থ, অঙ্কিত, অজিতরা নন আইপিএল ফিক্সিং কাণ্ডের জাল আরও গভীরে। আজ বিকেলে পুলিসের সাংবাদিক সম্মেলনে উঠে এল চাঞ্চল্যকর বেশ কিছু তথ্য। কলকাতা নাইট রাইডার্স- রাজস্থান রয়্যালস ম্যাচেও স্পট ফিক্সিংয়ের চুক্তি হয়েছিল। তবে সেই ম্যাচে রাজস্থান রয়্যালসের প্রথম একাদশে ছিলেন না শ্রীসন্থ, অঙ্কিত চহ্বান, অজিত চান্ডিলারা। তাই কেকেআর-রাজস্থান রয়্যালস ম্যাচে স্পট ফিক্সিং হয়নি বলে অনুমান।

গড়াপেটার টাকার হদিশ পেতে কলকাতায় আসছে দিল্লি পুলিস

আইপিএলে স্পট ফিক্সিংয়ে বিতর্কের সঙ্গে যোগসূত্র খুঁজতে আজ ফের দেশ জুড়ে খানাতল্লাসি চালাবে দিল্লি পুলিস। পুলিস চেষ্টা করছে আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে এই গড়াপেটায় যুক্ত টাকা উদ্ধার করতে।

অন্যদিকে, জয়পুর পুলিস বিভিন্ন বুকির কল রেকর্ডের একটি তালিকা আজ প্রকাশ করবে বলে খবর। গত দু`মাস ধরে বুকিদের কাছ থেকে ৩০০টির বেশি মোবাইল ফোন উদ্ধার করে এই তালিকা তৈরি করা হয়েছে।

আইপিএল কলঙ্কের সালতামামি, দ্বিতীয় দিন

পুলিস সূত্রে খবর শ্রীসন্থ জানিয়েছেন জিজু জনার্ধন নামের এক বুকি তাঁরকে লোভ দেখিয়েছিল।

টাকায় বিকোচ্ছে ভারতীয় ক্রিকেটের আবেগ, ধর্ম

কোটি টাকা দিয়ে কোটি মানুষের আবেগ চুরি করল শ্রীসন্থরা। এই জমকালো আইপিএলে টাকাই মুখ্য। তবে বিনোদনের মাঝে যত্সামান্য খেলা যদি বেঁচে থাকে, সেই খেলাকেও উপভোগ করছেন কিংবদন্তি খেলোয়াড় সচিন ও দ্রাবিড়রা। মাঠের বাইরে কপিল, গাভাসকার, শ্রীকান্ত থেকে শুরু করে কুম্বলে, লক্ষ্মনরাও ভরপুরসে উত্সাহ দিচ্ছেন।

সঞ্জয়ের হাজতবাস, আইপিএলের নরকবাস

একই দিনের দুটো ঘটনা। একটার সঙ্গে জড়িয়ে বলিউড, অন্যটায় ক্রিকেট। এমনিতে দেশের মিডিয়া জুড়ে থাকে বলিউড আর ক্রিকেট। কিন্তু আজ এই দুটো জিনিস নিয়ে গোটা দেশ উত্তাল। সেই ঘটনা দুটো এক সঙ্গে।