আলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে ভাঙচুর, জামিন পেয়ে গেল অভিযুক্তরা, ফের কাঠগড়ায় প্রশাসন আলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে ভাঙচুর, জামিন পেয়ে গেল অভিযুক্তরা, ফের কাঠগড়ায় প্রশাসন

আলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে ভাঙচুরের  ঘটনায় ফের কাঠগড়ায় রাজ্য প্রশাসন।  সরকারি আইনজীবীর গরহাজিরায় জামিন পেয়ে গেলেন বিশ্ববিদ্যালয়ে ভাঙচুরে ধৃত সাত টিএমসিপি সদস্য। অথচ অভিযোগ দায়ের হয়েছিল জামিন অযোগ্য ধারায়। জামিনের বিরোধিতায়  সরকারি আইনজীবী কেন হাজির হলেন না, তা নিয়েই প্রশ্ন উঠছে।পক্ষপাতিত্বের অভিযোগে ফের কাঠগড়ায় শাসকদল। আলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে তাণ্ডব চালিয়ে অনায়াসেই জামিন সাত অভিযুক্তের। আদালতে হাজিরই হলেন না সরকারি আইনজীবী।  সরকারি আইনজীবীর আদালতে গরহাজিরা নিয়ে সরব হয়েছেন বিশিষ্টজনেরা

আইটিআইতে গোষ্ঠী সংঘর্ষ: জেলা সভাপতিকে বহিষ্কার করল টিএমসিপি আইটিআইতে গোষ্ঠী সংঘর্ষ: জেলা সভাপতিকে বহিষ্কার করল টিএমসিপি

হাওড়া আইটিআইয়ে টিএমসিপির গোষ্ঠী সংঘর্ষের ঘটনায় কড়া ব্যবস্থা নিল দল। টিএমসিপি থেকে অনির্দিষ্ট কালের জন্য বহিষ্কার করা হল হাওড়া সদরের জেলা সভাপতি অঞ্জন টাকিকে। শো কজ করা হয়েছে কলেজের ছাত্র সংসদের জিএস লিয়াকত আলিকে। সাত দিনের মধ্যে তাঁকে শোকজের জবাব দিতে বলা হয়েছে। কাদের নিয়ন্ত্রণে থাকবে কলেজ, এনিয়ে টিএমসিপির দুই গোষ্ঠীর সংঘর্ষের জেরে গতকালই রণক্ষেত্র হয়ে উঠে আইটিআই চত্বর। কলেজ চত্বরে নির্বিচারে  চলে গুলি, বোমা। ইটের ঘায়ে মাথা ফাটে এক ছাত্রের। ঘটনার পরই টিএমসিপি রাজ্য সভাপতি অশোক রুদ্রর নেতৃত্বে তদন্ত কমিটি গড়া হয়। আজ কলেজের ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে কথা বলেন তাঁরা। সংঘর্ষের সময় কলেজে যে বহিরাগতরা ঢুকে ছিল, তা মেনে নিয়েছেন অশোক রুদ্র। এঘটনায় অঞ্জন টাকির বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন কলেজের জিএস। তার বিরুদ্ধে গুলি-বোমা নিয়ে হামলার অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

তৃণমূল ছেড়েছেন লকেট, কিন্তু লকেটকে ছাড়েনি তৃণমূল  তৃণমূল ছেড়েছেন লকেট, কিন্তু লকেটকে ছাড়েনি তৃণমূল

দল বদল করেছেন তিনি। কিন্তু তৃণমূল ছাত্র পরিষদ ভুলতে পারেনি তাঁকে। পুরসভা ভোটের আগেই তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন অভিনেত্রী লকেট চট্টোপাধ্যায়। কিন্তু সেই লকেটের ছবি এবার জ্বলজ্বল করছে তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রচার পুস্তিকায়। গতকালই নেতাজি ইন্ডোরে মুখ্যমন্ত্রীর উপস্থিতিতে তৃণমূলের ছাত্র নেতাদের হাতে তুলে দেওয়া হয় এই বই। আর সেখানেই রয়েছে নারী ও শিশুকল্যাণ বিভাগে সরকার কী কী কাজ করেছে তার বিস্তারিত খতিয়ান। এই অংশেই দেখা যাচ্ছে মুখ্যমন্ত্রীর পাশে হাত জোড় করে দাঁড়িয়ে রয়েছেন লকেট। কি করে বিজেপি নেত্রীর ছবি তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রচার পুস্তিকায় এল তা নিয়ে তৃণমূলের অন্দরেই তৈরি হয়েছে বিতর্ক।