ধর্মঘটের প্রভাব শিল্পাঞ্চলেও

এগারোটি ট্রেড ইউনিয়নের ডাকা সাধারণ ধর্মঘটে রাজ্যের শিল্পাঞ্চলে ভাল প্রভাব পড়েছে। তারাতলা শিল্পাঞ্চলে বেশিরভাগ মানুষই কাজে যোগ দেননি। অধিকাংশ কলকারখানাই বন্ধ রয়েছে।

ধর্মঘট রুখতে পরিবহণ মালিকদের সঙ্গে বৈঠকে মন্ত্রী

ফেব্রুয়ারির ২০ এবং ২১-এর ধর্মঘট নিয়ে মঙ্গলবার বৈঠকে বসছে ট্রেড ইউনিয়নগুলি। গতকালই সাধারণ ধর্মঘট নিয়ে কেন্দ্রীয় সরকারের সঙ্গে আলোচনায় বসলেও কোনও সমাধান সূত্র মেলেনি। অন্যদিকে, ধর্মঘটের বিরোধিতায় সবরকম ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছে রাজ্য সরকার। এমনকী ধর্মঘটের দিন সরকারি কর্মীদের কাজে যোগ দেওয়ার জন্য বিজ্ঞপ্তি জারি হয়েছে।

২১ ফেব্রুয়ারির ধর্মঘট বাতিলে বাম সংগঠনগুলির রোষে সিটু

একুশে ফেব্রুয়ারি রাজ্যে সাধারণ ধর্মঘট থেকে সরে আসার ঘোষণা সিটুর একতরফা সিদ্ধান্ত। এমনটাই অভিযোগ অন্যান্য বাম শ্রমিক সংগঠনগুলির। তাঁদের বক্তব্য, এই সিদ্ধান্তে ধাক্কা খাবে শ্রমিক আন্দোলন। একধাপ এগিয়ে সিপিআইয়ের শ্রমিক সংগঠন এআইটিইউসি কড়া চিঠি পাঠিয়েছে সিটু নেতা শ্যামল চক্রবর্তীকে।

আজ বিক্ষোভে পরিবহণ শ্রমিকরা

আপাতত ধর্মঘটের পথ থেকে সরে এলেও আন্দোলনের পথ থেকে সরছে না পরিবহণ শ্রমিকরা। মঙ্গলবার সকালে রানি রাসমণি অ্যাভিনিউয়ে বিক্ষোভ সমাবেশে অংশ নেবে ডান-বাম সবকটি শ্রমিক সংগঠন।