ওয়ানডে ক্রিকেটে ভারতসেরা হল মোদীর রাজ্য

ওয়ানডে ক্রিকেটে ভারতসেরা হল মোদীর রাজ্য

দেশের সিংহাসনে এখন একজন গুজরাটি। দেশের ওয়ানডে ক্রিকেটেও এবার সিংহাসনে উঠল গুজরাটিরা। ঘরোয়া ক্রিকেটে ওয়ানডে-র পয়লা নম্বর প্রতিযোগিতা বিজয় হাজারে ট্রফির ফাইনালে দিল্লিকে ১৩৯ রানে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হল গুজরাট। বেঙ্গালুরুতে আয়োজিত ফাইনালে গুজরাটকে চ্যাম্পিয়ন করার নায়ক ব্যাট হাতে পার্থিব প্যাটেল আর বল হাতে জসপ্রিত বুমরাহ।

ধোনিকে কর্ণ বানালেন সৌরভরা, ব্যর্থ যুবি ধোনিকে কর্ণ বানালেন সৌরভরা, ব্যর্থ যুবি

বুধবার বেঙ্গালুরুতে বিজয় হাজারে ট্রফিতে মহেন্দ্র সিং ধোনিকে ট্র্যাজিক হিরো কর্ণ হয়েই থেকে যেতে হল। দিল্লির বিরুদ্ধে কোয়ার্টার ফাইনাল ম্যাচে ২২৫ রান তাড়া করে নেমে ধোনি ৭০ রানের দারুণ একটা ইনিংস খেললেন। কিন্তু তাও তাঁকে হারতে হল। কারণ ধোনিকে সঙ্গ দেওয়ার মত কাউকে খুঁজে পাওয়া গেল না। ধোনি ছাড়া ঝাড়খণ্ডের মাত্র দুজন ব্যাটসম্যান দুই অঙ্কের রান করেন। কুশল সিং (১৬), অঙ্কিত দাবাস (১৬)। ধোনি শেষ অবধি ৭০ রানে অপরাজিত থেকে যান। ঝাড়খণ্ডের ইনিংস শেষ হয়ে যায় মাত্র ১২৬ রানে।

ওয়ানডেতে ভারতসেরা দিল্লি, ফুটবলে সার্ভিসেস

একই দিনে দেশের রাজ্যভিত্তিক দুটো বড় খেলার সেরা রাজ্যের নাম জানা গেল। ফুটবল আর ওয়ানডে ক্রিকেট খেলার রাজ্যভিত্তিক এক নম্বর প্রতিযোগিতার ফাইনাল ছিল রবিরার। সেই ফাইনালে একদিকে আশাভঙ্গ হল আয়োজকদের। আর অন্যদিকে থেমে গেল এক অঘটনের রথের। আয়োজকদের হারিয়ে ফুটবলে সন্তোষ ট্রফিতে চ্যাম্পিয়ন হল সার্ভিসেস। আর ঘরোয়া ক্রিকেটে ওয়ানডে প্রতিযোগিতার সেরা টুর্নামেন্ট বিজয় হাজারে ট্রফিতে চ্যাম্পিয়ন হল দিল্লি।

স্বপ্নভঙ্গ লক্ষ্মীদের, বিদায় বাংলা

বিজয় হাজারে ট্রফি থেকে বিদায় নিল গতবারের চ্যাম্পিয়ন বাংলা। সেমিফাইনালে দিল্লির কাছে ৬ উইকেটে পরাজিত হয় বাংলা দল। এদিন টসে জিতে দিল্লির অধিনায়ক রজত ভাটিয়া বাংলাকে প্রথম ব্যাট করতে পাঠান। কিন্তু দিল্লির বোলিং ব্রিগেডের সামনে তাসের ঘরের মত ভেঙে পড়ে বাংলার ব্যাটিং লাইন আপ। একমাত্র মনোজ তিওয়ারি ও লক্ষ্মীরতন শুক্লা ছাড়া কোনও ব্যাটসম্যানই দুঅঙ্কের ঘরে পৌঁছতে পারেননি।

জিততে মরিয়া বাংলা

শুক্রবার ইডেনে বিজয় হাজারে ট্রফির গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে ঝাড়খন্ডের বিরুদ্ধে জিততেই হবে বাংলাকে। অসম ইতিমধ্যেই দুটি ম্যাচ জিতে লিগ টেবিলের শীর্ষে চলে গিয়েছে। ফলে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হতে গেলে এই ম্যাচে জয় খুবই প্রয়োজন ঋদ্ধিদের কাছে।