পারস্পরিক শান্তি ও সহযোগিতা বজায় রাখতে সীমান্ত প্রতিরক্ষা চুক্তিতে সই ভারত-চিনের

সীমান্ত প্রতিরক্ষা চুক্তিতে সই করল ভারত ও চিন। সীমান্তে শান্তি বজায় রাখতে পারস্পরিক সহযোগিতায় রাজি হয়েছে নয়াদিল্লি ও বেইজিং। প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর নিয়মিত ফ্ল্যাগ মিটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছে দুই দেশ। মনমোহন সিং-এর চিন সফরের প্রথম দিনের সবচেয়ে বড় সাফল্য এই  প্রতিরক্ষা চুক্তি।   মনমোহন সিংয়ের তিনদিনের বেইজিং সফরের প্রথম দিনেই ভারত-চিন নটি চুক্তি সই হল।   দুদেশের প্রধানমন্ত্রীর উপস্থিতিতে ভারতের প্রতিরক্ষা সচিব আর কে মাথুর এবং চিনা প্রতিরক্ষা সচিব লেফটেন্যান্ট জেনারেল সান জিয়ানগাও নয়টি চুক্তি সই করেছেন। তারমধ্যে অন্যতম হল সীমান্ত প্রতিরক্ষা সহযোগিতা চুক্তি। সীমান্ত বরাবর পরিস্থিতি শান্ত রাখতে দুদেশের মধ্যে যোগাযোগ বাড়ানোর ওপর জোর দিয়েছেন দুই রাষ্ট্রপ্রধান। লাইন অফ অ্যাকচুয়াল কন্ট্রোল বরাবর নিয়মিত ফ্ল্যাগ মিটিং-এ সহমত হয়েছে নয়াদিল্লি ও বেইজিং। টেলি যোগাযোগ বাড়ানোর প্রয়োজনীয়তাও স্বীকার করেছে দুদেশ। চিন ও ভারতের সেনা সদর দফতরের মধ্যে হট লাইন চালুর বিষয়টি নিয়েও ভাবনাচিন্তা চলছে। সীমান্তে অস্থিরতা এড়াতে চূড়ান্ত সংযম দেখানোর কথা বলেছে নয়াদিল্লি ও বেইজিং।