ভোট মিটলেও অশান্তি পিছু ছাড়ছে না বাংলাদেশের, আজও হিংসার বলি ৬

ভোট মিটলেও অশান্তি পিছু ছাড়ছে না বাংলাদেশের। আজও বাংলাদেশে হিংসায় ছজনের মৃত্যু হয়েছে। নির্বাচন বাতিলের দাবিতে আজ থেকে ফের ৪৮ ঘণ্টার হরতাল ডেকেছে বিএনপি সহ ১৮ দলের জোট। বিএনপির হুঁশিয়ারি, নতুন করে ভোটের দিনক্ষণ ঘোষণা হলে তবেই থামবে আন্দোলন। শেখ হাসিনার পাল্টা হুমকি, ভোটে যারা অশান্তি করেছে, তাদের কোনওভাবেই রেয়াত করা হবে না। নির্দলীয় তদারকি সরকারের নজরদারিতে ভোট। এই দাবিতেই আন্দোলনে নামে বিএনপি সহ ১৮ দলের জোট। আর সেই আন্দোলনের আগুনেই পুড়েছে বাংলাদেশ। ফের ক্ষমতায় ফিরে তাই শেখ হাসিনা সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, অশান্তির আগুন যারা জ্বালিয়েছে, তাদের কোনওভাবেই রেয়াত করা হবে না।

আরও ঘোরালো বাংলাদেশের পরিস্থিতি, চলছে দুই নেত্রীর সংঘাত

বাংলাদেশের পরিস্থিতি আরও ঘোরালো হতে চলেছে। প্রতিপক্ষ দুই নেত্রীর সংঘাত চলছেই। সাধারণ নির্বাচনের বিরোধিতা করে বিএনপির মার্চ ফর ডেমোক্রেসিতে অনুমতি দেয়নি পুলিস। তবুও ভিডিও বার্তা প্রকাশ করে দেশবাসীকে গণতন্ত্রের অভিযাত্রায় অংশ নেওয়ার আবেদন জানিয়েছেন খালেদা জিয়া। পাঁচই জানুয়ারি দেশের সাধারণ নির্বাচনের বিরোধিতা করে মার্চ ফর ডেমোক্রেসির ডাক দিয়েছিল বিএনপি সহ আঠারো দলের জোট। নয়া পল্টন থেকেই এই মার্চ ফর ডেমোক্রেসির ডাক দেওয়া হয়। কিন্তু বিএনপির কর্মসূচিতে অনুমতি দেয়নি পুলিস। নিরাপত্তার কারণেই অনুমতি নয় বলেই জানিয়ে দিয়েছে ঢাকা পুলিস। তাতে ক্ষুব্ধ বিএনপি নেতৃত্ব। অনুমতি না পেলেও কর্মসূচি বাতিল করছেন না তাঁরা। উল্টে ভিডিও বার্তায় গণতন্ত্রের অভিযাত্রায় অংশ নিতে শুক্রবার দেশের মানুষের কাছে আবেদন জানিয়েছেন খালেদা জিয়া।

বাংলাদেশে নির্বাচনের ঘোষণা করে দিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

বাংলাদেশে ভোট ঘোষণা করে দিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজই সংসদের অধিবেশেনের শেষদিন ছিল। অধিবেশনের শেষে সংসদে দাঁড়িয়ে একথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। বিশেষ কোনও কারণ ছাড়া অধিবেশন ডাকার সম্ভাবনা নেই বলেও জানিয়েছেন তিনি। একতরফাভাবে নির্বাচনে গিয়ে সরকার একদলীয় শাসন প্রতিষ্ঠার দিকে এগোচ্ছে বলে মন্তব্য করেছে  বিরোধী দল বিএনপি।দিনকয়েক আগেই বাংলাদেশে অন্তবর্তী সরকার গঠন করেছেন প্রধামন্ত্রী শেখ হাসিনা। নির্বাচনের জন্য সেটাই ছিল প্রথম ধাপ। বৃহস্পতিবার সাধারণ নির্বাচনের পথে আরও একধাপ এগোল সরকার। সংসদে দাঁড়িয়ে নির্বাচনে যাওয়ার কথা ঘোষণা করলেন আওয়ামি লিগ নেত্রী তথা দেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। নির্বাচনের জন্য রাষ্ট্রপতিকে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ করার কথাও বলেছেন প্রধানমন্ত্রী। ভোট নিয়ে বিরোধী দলের সঙ্গে টানাপোড়েন থাকলেও বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী  বলেন ``বাংলাদেশে নির্বাচন হবেই। কোনও শক্তি নির্বাচন বানচাল করতে পারবে না।``