ব্যতিক্রমী বিধানসভা, রেলভাড়া বৃদ্ধির বিরোধীতায় এক সুর সরকার ও বিরোধী পক্ষের

বিধানসভায় ব্যতিক্রমী ছবি। রেলভাড়া বৃদ্ধির বিরোধিতায় একই সুর মুখ্যমন্ত্রী ও বিরোধী দলনেতার গলায়। রেলভাড়া বৃদ্ধির বিরুদ্ধে বিরোধী দলনেতার মোদী সমালোচনাকে সমর্থন করেন মুখ্যমন্ত্রী। সর্বসম্মতিতে পাশ হয়ে যায় রেলভাড়া বিরোধী প্রস্তাবও।জুলাইয়ের আট তারিখেই পেশ হতে চলেছে রেল বাজেট। একধাক্কায় রেলের ভাড়া অনেকটাই বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে মোদী সরকার।। রেলভাড়া বৃদ্ধির প্রতিবাদে সোমবার সরকারের তরফে একটি প্রস্তাব আনা হয়। প্রস্তাবের পর বক্তব্য রাখতে ওঠেন বিরোধী দলনেতা সূর্যকান্ত মিশ্র। তিনি বলেন, বাজেটের আগেই যেভাবে রেলভাড়া বাড়িয়েছে মোদী সরকার তা অগণতান্ত্রিক।

বাংলায় বিজেপির ভোট বৃদ্ধির প্রসঙ্গ উঠে এল সিপিআইএম রাজ্য কমিটির বৈঠকে

লোকসভা নির্বাচনে এ রাজ্যে বিজেপির ভোট বেড়েছে ১০% থেকে ১২%। কেন বিজেপির এই ভোট বৃদ্ধি, সেই প্রসঙ্গই উঠে এল সিপিআইএমের রাজ্য কমিটির দুদিনের বৈঠকে। তবে এ বিষয়ে সিপিআইএম বিভিন্ন জেলা নেতৃত্ব নির্দিষ্ট কোনও কারণ উল্লেখ করতে পারেননি। আলোচনায় উঠেছে রিগিং, ভোটদানে বাধা, নির্বাচন পরবর্তী সন্ত্রাস সহ বিভিন্ন প্রসঙ্গ। নেতৃত্বের কঠোর সমালোচনা করেন বিভিন্ন জেলা কমিটি। লোকসভা ভোটে বিপর্যয়ের পর প্রথম বার বৈঠকে বসেছে সিপিআইএম রাজ্য কমিটি। দুদিনের বৈঠকের প্রথম দিনই জেলা কমিটিগুলির পক্ষ থেকে লোকসভা ভোটে বিপর্যয়ের কারণ, ভোট পরবর্তী সন্ত্রাসসহ একাধিক বিষয়ে রিপোর্ট পেশ শুরু হয়েছে। নেতৃত্বের কঠোর সমালোচনা করেন বিভিন্ন জেলা কমিটি। দিশাহীন নেতৃত্বের জন্য এই বিপর্যয় বলে কেউ কেউ রাজ্যকমিটির বৈঠকে উল্লেখ করেন।