সরকারের সহযোগিতায় কলকাতা এখন অপরাধমুক্ত সরকারের সহযোগিতায় কলকাতা এখন অপরাধমুক্ত

পশ্চিমবঙ্গ এখন অনেক শান্তিপূর্ণ। কোনও সাম্প্রদায়িক সমস্যা বা বড় কোনও নির্যাতনের ঘটনা প্রায় নেই বললেই চলে। জঙ্গল মহল ও দার্জিলিঙয়ের পরিস্থিতিও স্বাভাবিক। রাজ্যে নারী নির্যাতন, খুন, ডাকাতির মতো জঘন্য অপরাধ অনেক কম হয়। নারী নির্যাতনের ওপর বিশেষ নজর দিয়েছে সরকার। মহিলাদের ওপর অত্যাচার কোনওভাবেই বরদ্দাস্ত করবেন না বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নারী সুরক্ষার জন্য রাজ্যে মোট ৬৫টি মহিলা চালিত পুলিশ স্টেশন বানানো হবে যার ৩০টি ইতিমধ্যেই হয়ে গেছে। এছাড়াও পাচার রুখতে তৈরি করা হয়েছে অ্যান্টি হিউম্যান ট্রাফিকিং ইউনিট।

দিনেদুপুরে দুষ্কৃতীতাণ্ডবে গুলি চলল নারকেলডাঙায়, গুলিবিদ্ধ এলাকার যুবক দিনেদুপুরে দুষ্কৃতীতাণ্ডবে গুলি চলল নারকেলডাঙায়, গুলিবিদ্ধ এলাকার যুবক

প্রোমোটিং ঘিরে গোলমালের জের। দিনেদুপুরে দুষ্কৃতীতাণ্ডবে গুলি চলল নারকেলডাঙায়। গুলিবিদ্ধ এলাকার যুবক কামারুদ্দিন। অভিযোগ এলাকার কুখ্যাত দুষ্কৃতী টাকলা আলম ও তার শাগরেদদের বিরুদ্ধে। ঘটনার পর থেকেই পলাতক চার দুষ্কৃতী। গোলমালের সূত্রপাত নির্মীয়মান এই বহুতল ঘিরে। নারকেলডাঙা নর্থ রোডে এই বহুতলের প্রোমোটিং করছিলেন জালাউদ্দিন হাফিজি। টাকা দিয়ে ফ্ল্যাট বুকও করেন কয়েকজন। অভিযোগ, কয়েকমাস আগে গায়ের জোরে প্রোমোটিংয়ের দখল নেয় এলাকার কুখ্যাত দুষ্কৃতী টাকলা আলম।  যাঁরা আগে টাকা দিয়ে ফ্ল্যাট বুক করেছিলেন, আলম তাঁদের ফ্ল্যাট দিতে অস্বীকার করে। প্রতারিতরা স্থানীয় যুবক কামরুদ্দিনের দ্বারস্থ হন।