একটা বড় খনন, বেরিয়ে এলো হিমযুগীয় হাতি! একটা বড় খনন, বেরিয়ে এলো হিমযুগীয় হাতি!

ফুটবল মাঠের তলা থেকে বেরল হিমযুগের (ICE AGE)- সময়কার হাতির কঙ্কাল। অরিগন স্টেট বিশ্ববিদ্যালয়ের রেসার স্টেডিয়ামের মাটির তলা থেকেই মিলল হিমযুগীয় হাতির কঙ্কাল। মাঠে নির্মানের কিছু কাজ চলছিল। এই নির্মাণ কাজের জন্যই মাটি খোঁড়া হচ্ছিল। এমন সময় মাঠের খানিকটা গভীর থেকে নির্মাণ কর্মীরা একটা হাড় দেখতে পান। তখনই কাজ বন্ধ করে প্রত্নতত্ত্ববিদদের খবর দেওয়া হয়। তাঁরা এসে মাটি খুঁড়ে বিশাল আকৃতির হাড় উদ্ধার করেন। হাড়টির উচ্চতা ৫ ফুট। হাড়ের উচ্চতা দেখে অনুমান করা হচ্ছে, হাতিটি ১৪ থেকে ১৫ ফুট লম্বা ছিল। হাড়টি দেখে পায়ের হাড় বলে অনুমান করছেন প্রত্নতত্ত্ববিদরা। পোর্টল্যান্ডের দক্ষিণে অবস্থিত এই স্টেডিয়াম।

গ্রুপের শীর্ষে থেকে আই লিগের দ্বিতীয় ডিভিসনের মূলপর্বে গেল মহামেডান গ্রুপের শীর্ষে থেকে আই লিগের দ্বিতীয় ডিভিসনের মূলপর্বে গেল মহামেডান

গ্রুপের শীর্ষে থেকে আই লিগের দ্বিতীয় ডিভিসনের মূলপর্বে গেল মহামেডান। শনিবার নিজেদের মাঠে নেরোকা এফ সি-কে এক-শূন্য গোলে হারাল সাদা-কালো। এই প্রথম ময়দানে আই লিগের দ্বিতীয় ডিভিসনের ম্যাচ হল। মহমেডানের খেলা দেখার জন্য মাঠ ভরিয়েছিলেন কয়েকজ হাজার দর্শক। তাদের নিরাশ করেনি সুব্রত ভট্টাচার্যের দল। মহমেডানের হয়ে জয়সূচক গোলটি করেন বসন্ত সিং। গোলের সুযোগ নষ্ট না করলে আরও বড়ব্যবধানে জিততে পারত সাদা-কালো। প্রথম পর্বে আটটির মধ্যে পাঁচটিতেই জিতেছে মহমেডান। আপাতত দু সপ্তাহের বিশ্রাম। ফেব্রুযারীর শুরু থেকে মূলপর্বের প্রস্তুতি নেমে পড়বে সাদা-কালো। মূলপর্বের আগে দলকে ঢেলে সাজানোর পরিকল্পনা রয়েছে মহমেডান কোচের। বিদেশি হিসাবে অভিজ্ঞ ইয়াকুবু ছাড়াও নজরে রয়েছে রয়্যাল ওয়াইন্ডোর এক বিদেশিও ।

কুপারেজে মুম্বই এফ সি-র বিরুদ্ধে প্রথম জয়ের খোঁজে ইস্টবেঙ্গল কুপারেজে মুম্বই এফ সি-র বিরুদ্ধে প্রথম জয়ের খোঁজে ইস্টবেঙ্গল

কুপারেজে মুম্বই এফ সি-র বিরুদ্ধে প্রথম জয়ের খোঁজে ইস্টবেঙ্গল। সুপার সানডেতে অ্যাওয়ে ম্যাচে খালিদ জামিলের দলের বিরুদ্ধে মাঠে নামছে লাল-হলুদ। কুপারেজে মুম্বইয়ের দলটিকে তিনবারের সাক্ষাতে একবারও হারাতে পারেনি ইস্টবেঙ্গল। রবিবার সেই ট্র্যাক রেকর্ড বদলাতে মরিয়া র‍্যান্টিরা। ওডাফাদের অ্যাওয়ে ম্যাচে বেশ আত্মবিশ্বাসী লাল-হলুদ শিবির। তবে চোটের কারণে শেহনাজ সিংয়ের না থাকাকে ধাক্কা হিসাবেই দেখছেন কোচ বিশ্বজিত ভট্টাচার্য। তারকা মিডফিল্ডারের অনুপস্থিতিতে প্রথম একাদশে বদল করতেই হচ্ছে লাল-হলুদ কোচকে। অ্যাওয়ে ম্যাচে মাঠে নামার আগে মুম্বই এফ সি-কে যথেষ্ট সমীহ করছে ইস্টবেঙ্গল। কুপারেজের ছোট মাঠও চিন্তায় রাখছে তাদের। শেহনাজের অনুপস্থিতিতে প্রথম একাদশে ফিরছেন মেহতাব হোসেন। তিন পয়েন্ট না হলেও অন্তত এক পয়েন্ট নিয়ে মুম্বই থেকে ফিরতে চাইছে লাল-হলুদ শিবির।

  আই লিগে বড় জয় পেল মোহনবাগান আই লিগে বড় জয় পেল মোহনবাগান

আই লিগে বড় জয় পেল মোহনবাগান। বারাসতে  সালগাঁওকরকে চার-দুই গোলে হারিয়ে দিল গতবারের চ্যাম্পিয়নরা। প্রথম ম্যাচে আইজলকে তিন গোল দেওয়ার পর গোয়ার দলটিকেও চার গোল দিল সঞ্জয় সেনের দল। পরপর দুম্যাচে গোল পেলেন গ্লেন,বলবন্ত। সবুজ-মেরুন জার্সিতে প্রথম ম্যাচেই গোল পেলেন ব্রাজিলীয় ডিফেন্ডার লুসিয়ানোও। তবে এত কিছুর পরও ডার্বির আগে ডিফেন্স নিয়ে চিন্তা থেকেই গেল মোহনবাগান কোচের। আটচল্লিশ মিনিটে চার গোলে এগিয়ে যাওয়ার পর দু গোল হজম করতে হল বাগান ডিফেন্সকে। আগের ম্যাচের মতই সালগাঁওকরের বিরুদ্ধেও প্রথমার্ধটা ছিল মোহনবাগানেরই। প্রথম মিনিটেই পেনাল্টি পেতে পারত সবুজ-মেরুন। তবে আট মিনিটের মধ্যেই গোল করে সবুজ-মেরুনকে এগিয়ে দেন কাতসুমি। বাইশ মিনিটে পেনাল্টি থেকে ব্যবধান বাড়ান কর্নেল গ্লেন। কয়েক মিনিটের মধ্যেই হেডে সবুজ-মেরুন জার্সিতে নিজের প্রথম গোলটা করে যান লুসিয়ানো। তখন মাঠ জুড়ে শুধুই সবুজ-মেরুন জার্সির দাপট। জ্যাঁকিচাদ-হাওকিপ-ডাফিদের সেভাবে দাঁত ফোটাতে দেননি শৌভিক-প্রণয়রা। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই হেডে দুরন্ত গোল করে মোহনবাগানকে চার গোলে এগিয়ে দেন বলবন্ত। কিন্তু তারপরই ম্যাচের রাশ হারিয়ে ফেলে সবুজ-মেরুন। বাগান ডিফেন্সে চাপ বাড়াতে থাকেন ডাফিরা। উনসত্তর আর পঁচাশি মিনিটে দুটো গোলও করে যান সালগাঁওকরের ডাফি আর গুরজিন্দর। দেবজিত বেশ কয়েকটা সেভ না করলে স্কোরলাইন অন্যরকম হতেও পারত। বড়ম্যাচের আগে জেজে-রাজু-প্রবীরকে পরিবর্ত হিসাবে মাঠে নামিয়ে দেখে নেন সঞ্জয় সেন। ডিফেন্সে ফাঁকফোকর থাকলেও আপফ্রন্টের পারফরম্যান্স বড়ম্যাচের আগে নিঃসন্দেহে স্বস্তিতে রাখবে বাগান থিঙ্কট্যাঙ্ককে।

আইজল এফসিকে হারিয়ে আই লিগ অভিযান শুরু করল গতবারের চ্যাম্পিয়ন মোহনবাগান আইজল এফসিকে হারিয়ে আই লিগ অভিযান শুরু করল গতবারের চ্যাম্পিয়ন মোহনবাগান

আইজল এফসিকে তিন-এর গোলে হারিয়ে আই লিগের অভিযান শুরু করল গতবারের চ্যাম্পিয়ন মোহনবাগান। জোড়া গোল করে বাগানের জয়ের নায়ক কর্নেল গ্লেন। একটি গোল করেছেন বলবন্ত। সোনি নর্ডির অভাব  প্রথম ম্যাচে পূরণ করে দিলেন গ্লেন-বলবন্ত জুটি। কারও চোট। কেউ আবার অফিস খেলায় ব্যস্ত। এরকম পরিস্থিতিতে আইলিগের প্রথম ম্যাচের জন্য দল গড়তে কার্যত হিমশিম খেতে হয়েছিল মোহনবাগান কোচ সঞ্জয় সেনকে। তাই কেরিয়ারের অন্যতম কঠিন ম্যাচ থেকে তিন পয়েন্ট পেয়ে সন্তোষ প্রকাশ করলেন সঞ্জয় সেন। আইএসএল খেলা ফুটবলারদের পারফরম্যান্সে হতাশ সঞ্জয় সেন। আইলিগের প্রথম ম্যাচ জিতে আইএসএলের হাইপ্রোফাইল কোচদের খোঁচা দিয়ে রাখলেন বাগান কোচ। সঞ্জয়ের দাবি আইএসএল নয়। আইলিগই ফুটবলারদের জাত চেনায়।

আই লিগ শুরুর দিনই ভারতীয় ফুটবলের অন্ধকার ছবি সামনে চলে এল আই লিগ শুরুর দিনই ভারতীয় ফুটবলের অন্ধকার ছবি সামনে চলে এল

আই লিগ শুরুর দিনই ভারতীয় ফুটবলের অন্ধকার ছবি সামনে চলে এল। অন্তত তিরিশজন ভারতীয় ফুটবলার দল পেলেন না আই লিগে। চেন্নাইয়ান এফ সি-র হয়ে আইএসএলে দুরন্ত খেললেও কোনও দলে জায়গা হয়নি মেহেরাজউদ্দিনের। একই অবস্থা মোহনবাগানের আই লিগ জয়ী দলের সদস্য ডেনসন দেবদাসের। শুধু তাই নয় কয়েকদিন আগেও জাতীয় দলের হয়ে খেলতে দেখা যাওয়া ফ্রান্সিস ফার্নান্ডেজও ব্রাত্য থেকেছেন আই লিগের ক্লাবগুলোর কাছে। দল পাননি রহিম নবি,ক্লিফোর্ড মিরান্ডার মত অভিজ্ঞ ফুটবলারেরও। আসলে এবার আই লিগে একধাক্কায় তিনটে দল কমে গেছে। ফুটবলারদের দল না পাওয়া তারই জের বলে মনে করা হচ্ছে। ফুটবলারদের এজেন্টরা মনে করছেন এখন যা পরিস্থিতি তাতে ক্লাবগুলো যা দর দেবে,তাতেই খেলতে হতে পারে এই ফুটবলারদের। চোটের কারণে সন্দেশ জিঙ্ঘান,নির্মল ছেত্রী,রবিন সিং,শুভাশিস রায় চৌধুরী,গৌরমাঙ্গি সিংয়ের মত নামকরা ফুটবলার-রা খেলার জায়গায় নেই।

ছেলের সঙ্গে বিন্দাস মুডে এভাবেই সময় কাটাচ্ছেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো ছেলের সঙ্গে বিন্দাস মুডে এভাবেই সময় কাটাচ্ছেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো

কখনও জিমে ছবি তোলা তো কখনও মাঠে একসঙ্গে অনুশীলন করা। ছেলের সঙ্গে বিন্দাস মুডে এভাবেই সময় কাটাচ্ছেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো। কয়েকদিন আগে মাঠে জুনিয়র রোনাল্ডোকে ফ্রিকিক কিভাবে মারতে হয়ে সেটা শেখাচ্ছিলেন সিআর সেভেন। এমনকি নিজে না মেরে ছেলেকে কয়েকটা শট মারতে দেন পর্তুগিজ তারকা। ফ্রিকিক মারার ফাঁকেই বাবা-ছেলে জুটিকে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করতেও দেখা যায়। বাবার সামনে ফুটবলের প্রাথমিক পাঠ শিখতে পেরে উচ্ছ্বসিত জুনিয়র রোনাল্ডো। বাবা-ছেলের যুগলবন্দীর এই ভিডিও পোস্ট হওয়ার পর আলোড়ন ছড়িয়ে পড়ে। টুইটের মাধ্যমে  রোনাল্ডো জানিয়েছেন ছেলের সঙ্গে সময় কাটিয়ে বলে শট মারার থেকে ভাল কিছু  হয় না।

অবসরের জল্পনা ওড়ালেন দিদিয়ে দ্রোগবা অবসরের জল্পনা ওড়ালেন দিদিয়ে দ্রোগবা

অবসরের জল্পনা ওড়ালেন দিদিয়ে দ্রোগবা। কোচিং নয়, আরও কিছুদিন খেলতে চান আইভরি কোস্টের এই কিংবদন্তী ফুটবলার। চেলসির কোচিং টিমে দ্রোগবার যোগ দেওয়া নিয়ে জল্পনা শুরু হয়েছিল। ব্লুজদের বর্তমান কোচ গাস হিডিঙ্কের সঙ্গে দ্রোগবার সম্পর্ক বেশ ভাল বলে সেই জল্পনাও দানা বাঁধে। দ্রোগবা নিজেই অবশ্য সেই জল্পনায় জল ঢাললেন। টুইটের মাধ্যমে দ্রোগবা জানান এখনই তার অবসর নেওয়া নিয়ে কোনও পরিকল্পনাই নেই। উল্টে এমএলএসের দল ইমপ্যাক্ট মনট্রিয়ালের হয়ে আরও কিছুদিন খেলা চালিয়ে যেতে চান এই গোলমেশিন। দুহাজার ষোল সাল পর্যন্ত এমএলএসের দলটির সঙ্গে চুক্তি রয়েছে দ্রোগবার।

রোনাল্ডোকে কোনও মতেই ছাড়া হবে না, জানিয়ে দিলেন জিদান রোনাল্ডোকে কোনও মতেই ছাড়া হবে না, জানিয়ে দিলেন জিদান

দলের সেরা অস্ত্র ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোকে কোনও মতেই ছাড়া হবে না। পরিস্কার জানিয়ে দিলেন রিয়াল মাদ্রিদের নতুন কোচ জিনেদিন জিদান। তিনি যতদিন রিয়ালের হটসিটে থাকবেন ততদিন সিআর সেভেনের ক্লাব ছাড়ার প্রশ্নই নেই। সাফ বক্তব্য জিদানের। রিয়াল মাদ্রিদে থাকা নিয়ে অতীতে বারবার অনিশ্চয়তা প্রকাশ করেছেন পর্তুগিজ তারকা। প্রাক্তন কোচ রাফা বেনিতেজের সঙ্গে রোনাল্ডোর বিরোধ চরমে ওঠে। রিয়ালে যে তিনি ভাল নেই, সেটা বুঝিয়ে দেন সিআর সেভেন। কোচ বদলের পর রোনাল্ডোকে নিয়ে অবস্থান স্পষ্ট করে দিলেন জিদান। অনিশ্চয়তার মেঘ দুরে সরিয়ে রোনাল্ডোকে নিজের পছন্দের পজিশনে খোলা মনে খেলতে দিতে চান রিয়ালের নতুন কোচ। শনিবার রাতে লা লিগার ম্যাচে প্রথমবার কোচ হিসেবে রিয়ালের বেঞ্চে বসবেন জিদান।