অবশেষে মুক্তি, আগামিকাল ভারতে ফিরছেন ইরাকে অপহৃত ৪৬জন ভারতীয় নার্স

অবশেষে ইরাকে জঙ্গি কবল থেকে মুক্ত ছেচল্লিশজন ভারতীয় নার্স। গত কয়েকদিন ইরাকের তিকরিত শহরে তাঁদের আটকে রাখা হয়েছিল। বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের সঙ্গে দেখা করার পর একথা জানিয়েছেন কেরলের মুখ্যমন্ত্রী ওমেন চান্ডি। ওই নার্সদের ভারতে ফিরিয়ে আনতে আজই ইরাকের এরবিল বিমানবন্দরে বিশেষ বিমান পাঠাচ্ছে ভারত। দিল্লি থেকে বিশেষ বিমানে এরবিল উড়ে যাচ্ছেন কেন্দ্রীয় ও কেরল সরকারের দুই প্রতিনিধি। জঙ্গিকবল থেকে মুক্ত নার্সদেরও আজ নিয়ে যাওয়া হচ্ছে এরবিল বিমানবন্দরে। আগামিকাল বিশেষ বিমানে সকাল সাতটা নাগাদ কোচিতে পৌছবেন ওই নার্সরা। গতকালই আইসিস জঙ্গিরা আটকে রাখা ভারতীয় নার্সদের তিকরিত থেকে মসুল শহরে নিয়ে যায়। ইতিমধ্যেই মুক্তি পাওয়া একজন নার্স ফোনে কথা বলেছেন তাঁর মায়ের সঙ্গে। তিনি জানিয়েছেন, মুক্তিপ্রাপ্তরা নিরাপদেই রয়েছেন।

অস্থিরতার মধ্যে ইরাকে রাজনৈতিক তৎপরতা, আজ বসছে সংসদ অধিবেশন

চরম অস্থিরতার মধ্যেই ইরাকে রাজনৈতিক তত্‍পরতা তুঙ্গে। ভাইস প্রেসিডেন্টের ডাকে আজ বসছে ইরাকি সংসদের অধিবেশন। নতুন সরকার গড়ার প্রথম পদক্ষেপ হিসেবে দেখা হচ্ছে একে। জঙ্গিদের সামনে জোটবদ্ধ সরকারের ছবি তুলে ধরতে এই চেষ্টা বলে মত পর্যবেক্ষক মহলের। নির্বাচিত সরকার থাকা সত্ত্বেও ইরাকে শিয়া ও সুন্নি সম্প্রদায়ের তিক্ততা চরমে। ইতিমধ্যে রক্তাক্ত যুদ্ধে একের পর এক শহরের দখল নিয়েছে সুন্নি জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট ইন ইরাক অ্যান্ড দ্য ল্যাভেন্টের।বাগদাদের কাছাকাছি পৌছে গিয়েছে জঙ্গিরা। চাপ বাড়ছে প্রধানমন্ত্রী নুরি আল মালিকির ওপর। ইরাকের বর্তমানে যা পরিস্থিতি তা তাঁরই ব্যর্থতার ফল বলে অভিযোগ উঠতে শুরু করেছে। গৃহযুদ্ধ ঠেকাতে দাবি উঠছে নতুন মুখ সামনে আনার। শোনা যাচ্ছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সহ পশ্চিমি দুনিয়ার একাধিক দেশেরও মত এমনটাই।

ইরাকে অপহৃত নির্মানকর্মীদের মধ্যে নদিয়ার তিন বাঙালি

খোকন শিকদার ছাড়াও নদিয়ার আরও দুই নির্মাণকর্মী অপহৃত হয়েছেন ইরাকে। এঁরা সমর ঠিকাদার ও ক্ষিতীশ চন্দ্র বিশ্বাস। রবিবারের পর থেকে ফোনে যোগাযোগ করা যাচ্ছে না এই দুজনের সঙ্গেও। উদ্বিগ্ন পরিবারের সদস্যরা জেলাশাসকের সঙ্গে দেখা করেছেন। খোকন শিকদারকে ইরাক থেকে ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে মুখ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ দাবি করেছেন পরিবারের সদস্যরা। রুটি রুজির সন্ধানে নির্মাণকর্মীর কাজ নিয়ে ইরাকের মসুলে গিয়ে অপহৃত হয়েছেন নদিয়ার তেহট্টের ইলসামারির বাসিন্দা খোকন শিকদার। গত রবিবার শেষ কথা হয়েছিল স্ত্রী নমিতা শিকদারের সঙ্গে। এরপর থেকে আর যোগাযোগ করা যায়নি। বৃহস্পতিবার থেকে মোবাইল ফোন বন্ধ রয়েছে খোকন শিকদারের। পরিবারের একমাত্র রোজগেরে সদস্যের কথা ভেবে উদ্বিগ্ন বৃদ্ধা মা, স্ত্রী ও মেয়ে।

অশান্ত ইরাক: জঙ্গিদের কবল থেকে পালাতে সক্ষম এক ভারতীয়, পরিস্থিতি বুঝে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি ওবামার

ইরাকে ভারতীয় শ্রমিক অপহরণের ঘটনায় চাঞ্চল্যকর মোড়। সূত্রের খবর ISIS জঙ্গিদের কবল থেকে পালাতে সক্ষম হয়েছেন একজন ভারতীয়। পালানোর পরে তিনি নিজেই যোগাযোগ করেন ইরাকে ভারতীয় কূটনীতিকদের সঙ্গে। বিশ্ব মানবাধিকার সংগঠন রেড ক্রেশেন্টের মাধ্যমে ওই শ্রমিকের সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা হচ্ছে। বাকি উনচল্লিশজন শ্রমিক এখনও জঙ্গিদের কবলে। তাঁদের ছাড়িয়ে জঙ্গিগোষ্ঠীর সঙ্গে আলোচনা করতে ইরাকে পাঠানো হয়েছে, ইরাকে নিযুক্ত প্রাক্তন ভারতীয় রাষ্ট্রদূত সুরেশ রেড্ডিকে। এদিকে আজই আটচল্লিশজন অপহৃতকে মুক্তি দিয়েছে জঙ্গিরা। যদিও সেই তালিকায় নেই কোনও ভারতীয়র নাম। ইরাকে বিভিন্ন কাজের সূত্রে বসবাসকারী দশ হাজার ভারতীয়ের নিরাপত্তা নিয়েও উদ্বিগ্ন কেন্দ্র।

অপহৃত ভারতীয়দের হদিশ পেল ইরাক সরকার, অপহৃতদের সুরক্ষার জন্যই সেনা অভিযানে নারাজ সে দেশের সরকার

অপহৃত ভারতীয়রা কোথায় রয়েছেন,তার হদিশ পেয়েছে ইরাক সরকার । অন্যান্য বহু রাষ্ট্রের পণবন্দির সঙ্গেই চল্লিশজন নির্মাণকর্মীকে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছে বিদেশমন্ত্রক । ইরাক পরিস্থিতি নিয়ে বৃহস্পতিবার দুবার বৈঠক করেছে বিদেশমন্ত্রকের ক্রাইসিস ম্যানেজমেন্ট গ্রুপ । ভারতের দূত হিসেবে সুরেশ রেড্ডি এমুহূর্তে বাগদাদে রয়েছেন । অপহৃত ভারতীয়দের মুক্তির জন্য তিনিই ইরাক সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছেন । সুরেশ রেড্ডি ইরাকে নিযুক্ত ভারতের প্রাক্তন রাষ্ট্রদূত । পণবন্দিদের ঠিকানার সন্ধান পেলেও,তাঁদের মুক্তির জন্য কোনওরকম সেনা অভিযানে রাজি নয় ইরাক সরকার । সরকারের দাবি,সেক্ষেত্রে অপহৃতদের প্রাণহানির আশঙ্কা রয়েছে ।

অশান্ত ইরাক: বাগদাদের আরও কাছে পৌঁছে গেল জঙ্গিরা

বাগদাদের আরও কাছে পৌছে গেল জঙ্গিরা। তাল আফারের পর এবার তাদের কবজায় মসুল। বাকুবা দখলের লক্ষ্যে লড়াই শুরু হয়েছে। হামলার কথা স্বীকার করে নিয়েছে ইরাকি সেনা। তবে তাঁদের দাবি, পাল্টা হামলায় পিছু হঠেছে জঙ্গিরা। ঘোর সঙ্কটে ইরাকের অস্তিত্ব। আজ এই সতর্কবাণী শুনিয়েছে রাষ্ট্রসঙ্ঘ। উদ্বেগ ক্রমেই বাড়ছে ইরাকে আটকে পড়া ভারতীয়দের সুরক্ষা নিয়ে। আরও অবনতির পথে ইরাকের পরিস্থিতি। বাগদাদ দখলের পথে একের পর এক শহরের দখল নিচ্ছে জঙ্গিরা। রবিবার থেকে সেনাবাহিনীর সঙ্গে একটানা যুদ্ধ চলছে সুন্নি জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট ইন ইরাক অ্যান্ড দ্য ল্যাভেন্টের। মঙ্গলবার তাঁদের দখলে চলে গিয়েছে মসুল শহর। এর ফলে বাগদাদের উত্তরাংশের বিস্তীর্ণ এলাকা এমুহুর্তে জঙ্গিদের দখলে। সোমবারই তাল আফার শহরের দখল নেয় তারা। তবে বিমানবন্দরের কিছু অংশ এখনও তাঁদেরই হাতে রয়েছে বলে দাবি ইরাকি সেনার।

অশান্ত ইরাক: আরও একটি শহর জঙ্গিদের দখলে, ইরাকের অশান্তির আঁচ ভারতের বাজারেও

ইরাকে আরও একটি শহরের দখল নিল জঙ্গিরা। পশ্চিম মসুলের তাল আফার শহর দখল নেওয়ার পর বাগদাদের দিকে এগিয়ে চলেছে জঙ্গি বাহিনী। জঙ্গিদের দাবি, তারা অন্তত সতেরশ সেনাকে হত্যা করেছে। টুইটারে গণহত্যার সেই ছবিও তারা পোস্ট করেছে। ভয়াবহ এই গণহত্যার নিন্দা করেছে আমেরিকা। জঙ্গি হামলায় অশান্ত ইরাককে সবরকম সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছে ইরান। তবে এখনই সেখানে সেনা পাঠানোর সম্ভাবনা খারিজ করে দিয়েছে তেহেরান। মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা জানিয়েছেন, ইরাকের পরিস্থিতির দিকে কড়া নজর রাখা হচ্ছে। খতিয়ে দেখা হচ্ছে সবদিক। বাড়ানো হয়েছে বাগদাদের মার্কিন দূতাবাসের নিরাপত্তা। তবে ISIS জঙ্গিদের মোকাবিলায় ফের ইরাকে মার্কিন সেনা পাঠানোর সম্ভাবনা নাকচ করে দিয়েছেন তিনি। যদিও ইতিমধ্যে পারস্য উপসাগরে মার্কিন বিমানবাহী যুদ্ধজাহাজ মোতায়েন করা হয়েছে। এছাড়াও রয়েছে আরও দুটি যুদ্ধ জাহাজ।