'সারদা কাণ্ডে জড়িতরা পুজোর উদ্বোধন করছে', ফের বিস্ফোরক কুণাল ঘোষ 'সারদা কাণ্ডে জড়িতরা পুজোর উদ্বোধন করছে', ফের বিস্ফোরক কুণাল ঘোষ

ফের বিস্ফোরক কুণাল ঘোষ। প্রাণহানির আশঙ্কা প্রকাশ করে  বিচারপতির কাছে তাঁর অভিযোগ, যাঁরা সারদার সব সুবিধা নিয়েছেন তাঁরা পুজোর উদ্বোধন করে বেড়াচ্ছেন, অথচ জেলের ভিতর বসে ঢাকের আওয়াজ শুনতে হচ্ছে তাঁকে। আদালত ও সিবিআইয়ের কাছে গোপন জবানবন্দি দেওয়ার আর্জি জানান তিনি।  পাশাপাশি, এদিন আদালতে তোপ দেগেছেন সারদাকর্তা সুদীপ্ত সেনও। তাঁর অভিযোগ, যাঁরা সারদাকে প্রাণ দিয়ে বাঁচানোর চেষ্টা করেছিলেন তাঁরাই এখন জেলে। সংবাদ মাধ্যমে মুখ খুলতে চেয়ে বিচারকের কাছে আবেদন করেন সারদাকর্তা। সারদাকাণ্ডে স্বীকারোক্তিমূলক গোপন জবানবন্দি দিতে চান কুণাল ঘোষ। জবানবন্দি দিতে চান সিবিআইয়ের কাছেও। সারদা ট্যুর ও ট্রাভেলস-র সংক্রান্ত মামলায় এদিন  আদালতে তোলা হয় কুণাল ঘোষ, সুদীপ্ত সেন ও দেবযানী মুখার্জিকে।  বিচারকের কাছে প্রাণহানির আশঙ্কা প্রকাশ  করেন কুণাল ঘোষ।  

শিল্প সম্মেলনের প্রস্তুতি নিয়ে শিল্পপতিদের সঙ্গে বৈঠক মুখ্যমন্ত্রীর শিল্প সম্মেলনের প্রস্তুতি নিয়ে শিল্পপতিদের সঙ্গে বৈঠক মুখ্যমন্ত্রীর

রাজ্যে শিল্প সম্মেলনের প্রস্তুতি নিয়ে নবান্নে শিল্পপতিদের সঙ্গে বৈঠক করলেন মুখ্যমন্ত্রী ও শিল্পমন্ত্রী। জানুয়ারির ওই শিল্প সম্মেলনের জন্য আগেই একটি কোর কমিটির অধীনে আটটি সেক্টোরাল কমিটি তৈরি করেছে রাজ্য সরকার। সোমবার সেই সবকটি কমিটির সদস্যরাই আলোচনায় বসেছিলেন নবান্নে।সিঙ্গাপুর সফরের পরই  শিল্পপতিদের সঙ্গে নিয়ে রাজ্যে লগ্নি টানতে উদ্যোগী হয়েছে রাজ্য সরকার। ঠিক হয়, জানুয়ারিতে  রাজারহাটের ইকোপার্কে আয়োজন করা হবে একটি শিল্প সম্মেলনের। সেই সম্মেলনক সফল করতেই পাঁচই সেপ্টেম্বর নবান্নে সিঙ্গাপুরে সফরসঙ্গী শিল্পপতিদের নিয়ে বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানেই রাজ্যের বিভিন্ন শিল্পক্ষেত্রকে বিদেশের সামনে তুলে ধরতে একটি কোর কমিটির অধীনে আলাদা আলাদা করে আটটি সেক্টোরাল কমিটি তৈরির সিদ্ধান্ত হয়।