'একজন দেহব্যবসায়ীর চেয়েও খারাপ মায়াবতী', BJP  নেতার বিতর্কিত মন্তব্যে ঝড়

'একজন দেহব্যবসায়ীর চেয়েও খারাপ মায়াবতী', BJP নেতার বিতর্কিত মন্তব্যে ঝড়

উত্তরপ্রদেশ বিধানসভা নির্বাচনে যেভাবে টিকিট বিক্রি করছেন মায়াবতী! তাতে তিনি 'একজন বেশ্যার চেয়েও খারাপ'। BSP সভানেত্রী মায়াবতীর উদ্দেশে BJP-র উত্তরপ্রদেশ সহ সভাপতি দয়াশঙ্কর সিংয়ের করা এই মন্তব্যের জেরে ঝড় উঠল রাজ্যসভায়।

মায়াবতী

জন্ম- ১৫ জানুয়ারি, ১৯৫৬

পদ- বহুজন সমাজ পার্টির প্রধান, উত্তর প্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী।

কংগ্রেস, বিজেপি দু`দলই সিবিআই `লেলিয়েছে` মায়াবতীর বিরুদ্ধে, সমাবেশে ঝাল তুললেন দলিত নেত্রী

লোকসভা নির্বাচনের আগে কংগ্রেস এবং বিজেপিকে চাপে রাখলেন মায়াবতী। বহুজন সমাজ পার্টির সুপ্রিমো দুই দলের বিরুদ্ধেই তোপ দেগেছেন। সরকারে থাকাকালীন কংগ্রেস এবং বিজেপি তাঁর বিরুদ্ধে সিবিআইকে ব্যবহার করেছে বলে মায়াবতীর অভিযোগ। ভোটের পর তাঁর দল কাকে সমর্থন করবে তা নিয়ে ধোঁয়াশা জিইয়ে রাখলেন দলিত নেত্রী।

ডিএসপি খুন বিতর্ক, অখিলেশ মন্ত্রিসভা থেকে ইস্তফা রাজা ভাইয়ার

চরম অস্বস্তির মুখে শেষ পর্যন্ত উত্তরপ্রদেশ মন্ত্রিসভা থেকে মন্ত্রী রাজা ভাইয়া ওরফে রঘুরাজ প্রতাপ সিংকে সরিয়ে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী অখিলেশ যাদব। পুলিস আধিকারিক খুনের ঘটনায় অভিযুক্ত রাজা ভাইয়া ইতিমধ্যেই মন্ত্রিসভা থেকে ইস্তফা দিয়েছেন। তাঁর পরিকল্পনাতেই এই খুন করা হয়েছে বলে রাজা ভাইয়ার বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন নিহত পুলিস আধিকারিকের স্ত্রী। 

তাজ করিডর মামলায় মুখ্যমন্ত্রীর বিবৃতি দাবি শীর্ষ আদালতের

তাজ করিডর দুর্নীতি মামলায় উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রীর বিবৃতি দাবি করল সুপ্রিম কোর্ট। সোমবার বিচারপতি এইচ এল ডাট্টু এবং বিচারপতি রঞ্জন গোগোইয়ের বেঞ্চ এই নির্দেশ দেয়। এই মামলায় কেন্দ্র, সিবিআই এবং উত্তরপ্রদেশ সরকারকেও নোটিস পাঠিয়েছে শীর্ষ আদালত।

"দুর্নীতিতে জড়িতরা বেশীরভাগই অনগ্রসর শ্রেনীভুক্ত"

শনিবার জয়পুর সাহিত্য উৎসবের মঞ্চ প্রখ্যাত সমাজতত্ত্ববিদ, রাজনৈতিক বিশ্লেষক আশিষ নন্দীর মন্তব্যকে ঘিরে উত্তপ্ত হয়ে উঠল। একটি আলোচনাচক্রে অনগ্রসর শ্রেণীর মানুষেরাই মূলত দূর্নীতির সঙ্গে যুক্ত থাকেন বলে মন্তব্য করলেন তিনি! তাঁর এই মন্তব্যের সঙ্গে সঙ্গেই দর্শকদের মধ্যেই প্রবল প্রতিক্রিয়া শুরু হয়ে যায়। দ্রুত এই খবর ছড়িয়ে পড়লে বহুজন সমাজ পার্টি সহ বেশ কয়েকটি রাজনৈতিক দল আশিষ নন্দীর বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানায়। তাঁর বিরুদ্ধে রাজস্থান পুলিসের কাছে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

সংরক্ষণ বিল: ভোটাভুটি রাজ্যসভায়

এফডিআই বিতর্কের পর এবার চাকরিতে পদোন্নতির ক্ষেত্রে সংরক্ষণ নিয়ে অস্বস্তিতে পড়তে চলেছে ইউপিএ সরকার।

সংরক্ষণ সংক্রান্ত বিলটি নিয়ে আজই রাজ্যসভায় ভোটাভুটি হতে চলেছে। আর এতেই সরকারের বিপক্ষে ভোট দিতে

পারে সমাজবাদী পার্টি। এমনকি এই ইস্যুকে সামনে রেখে সরকারকে বাইরে থেকে সমর্থনের বিষয়টিও নতুন করে

ভেবে দেখবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন সপা সুপ্রিমো মুলায়ম সিং যাদব।

সংরক্ষণ বিল: এসপি-বিএসপি দ্বৈরথের মাঝে কেন্দ্র

এফডিআই নিয়ে সংসদে যুদ্ধ জয়ের পর এ বার নতুন সমস্যায় কংগ্রেস। সরকারি চাকরিতে পদোন্নতির ক্ষেত্রে তফশিলি

জাতি-উপজাতিদের সংরক্ষণের জন্য আইন চালুর দাবিতে কেন্দ্রকে তিনদিনের সময়সীমা দিয়েছেন মায়াবতী।

উল্টোদিকে, এই পদক্ষেপের তীব্র বিরোধিতা করছেন মুলায়ম সিং যাদব। গতকাল, সংরক্ষণ ইস্যুতে হৈ-হট্টগোলের

জেরে মুলতুবি হয়ে যায় রাজ্যসভার অধিবেশন। উত্তরপ্রদেশের যুযুধান দুই দলকে বাগে আনার চেষ্টায় এখন ব্যস্ত

কংগ্রসের রাজনৈতিক ম্যানেজাররা।     

এফডিআই ভোট: রাজ্যসভায় জিতল সরকার

এফডিআই নিয়ে আজ রাজ্যসভায় ভোটাভুটি। গতকাল বহুজন সমাজ পার্টি সমর্থনের ঘোষণার পর ভোটাভুটিতে বেশ সুবিধাজনক অবস্থায় রয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। সেইসঙ্গেই ওয়াকআউটের কথা ঘোষণা করেছে সমাজবাদী পার্টি।

সমর্থনের প্রতিশ্রুতি বহেনজির, রাজ্যসভাতেও স্বস্তিতে এফডিআই

গতকাল ওয়াকআউট করে লোকসভায় সরকারের প্রতি আনুগত্য প্রকাশ করেছিলেন। আজ রাজ্যসভায় দাঁড়িয়ে খুচরো বিতর্কের ভোটাভুটিতে সরকারকে সরাসরি সমর্থনের করলেন বিএসপি সুপ্রিমো মায়াবতী। অন্যদিকে, রাজ্যসভাতেও ভোটদানে বিরত থাকবে সপা। আজ দলের পক্ষ থেকে একথা জানিয়েছেন সাংসদ নরেশ আগরওয়াল। আজ রাজ্যসভায় মায়াবতী বলেন খুচরো ব্যবসায় বিদেশী বিনিয়োগ সমর্থন না করলেও এই মুহূর্তে সরকারের পাশেই থাকবে বিএসপি। সপার ৯ সাংসদ সহ অনুপস্থিত থাকবেন ইডেনে খেলতে আসা মনোনীত সাংসদ সচিন তেন্ডুলকরও। ফলে ম্যাজিক ফিগার ১২৩ থেকে কমে দাঁড়াবে ১১৭। বসপার ১৫ সাংসদের সমর্থন পেলে ইউপিএ-র পক্ষে মোট ভোট দাঁড়াবে ১১৯।

এফডিআই ইস্যুতে আজ রাজ্যসভায় ভাগ্য পরীক্ষা কেন্দ্রের

গতকাল লোকসভায় শীতকালীন অধিবেশনের সবচাইতে বড় পরীক্ষাটা উতরে গেছে কেন্দ্রের ইউপিএ-২ সরকার। বিরোধীদের প্রস্তাব খারিজ করে এফডিআই ইস্যুতে জয় পেয়েছে কেন্দ্র। সৌজন্যে অবশ্যই 'সপা' আর 'বসপা'-র 'বন্ধুত্ব পূর্ণ' ওয়াকআউট। আজ রাজ্যসভায় খুচরো ব্যবসায় বিদেশি বিনিয়োগ ইস্যুতে আবার যুদ্ধে নামল সরকার। ইতিমধ্যে থেকে রাজ্যসভার উচ্চকক্ষে এফডিআই নিয়ে আলোচনা শুরু হয়ে গেছে। ভোটাভুটি হবে শুক্রবার। সরকারের চিন্তা বাড়িয়ে দিল সমাজবাদী পার্টি। বাজ্যসভায় সপা সরকারকে ভোট দেবে না বলে জানিয়ে দিলেন সপা নেতা নরেশ অগ্রবাল। অন্যদিকে প্রধানমন্ত্রী সংবাদমাধ্যমের কাছে দাবি করেছেন লোকসভার মত রাজ্যসভাতেও জয় পাবে সরকারই। 

মায়াবতীর আশ্বাসে স্বস্তিতে কংগ্রেস

এফডিআই ইস্যুতে সংসদে ভোটাভুটির আগে কংগ্রেস শিবিরকে কিছুটা স্বস্তি দিলেন বিএসপি প্রধান মায়াবতী। নীতিগতভাবে এফডিআই নিয়ে আপত্তি থাকলেও, কোনও সাম্প্রদায়িক শক্তির সঙ্গে হাত মিলিয়ে সরকারের বিরুদ্ধে ভোট দেওয়া কতটা সঙ্গত তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন বিএসপি সুপ্রিমো।

সংখ্যা নিয়ে উদ্বেগে কেন্দ্র

এফডিআই ইস্যুতে বিরোধীদের দাবি মেনে ১৮৪ ধারায় আলোচনায় কী রাজি হতে পারে সরকার? এই নিয়ে শুরু

হয়েছে জল্পনা। সূত্রের খবর সংখ্যার সঙ্কট কাটাতে তোড়জোড় শুরু করেছে কংগ্রেস। শরিক ডিএমকে সরকারের

পাশেই রয়েছে বলেই খবর। কংগ্রেস যোগাযোগ রাখছে ছোট দলগুলির সঙ্গে। এক্ষেত্রে বিএসপি এবং এসপি-র ভূমিকা

খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

ভোজ আমন্ত্রণে মায়াবতীর সাহায্যপ্রার্থী মনমোহন

মুলায়মের পর এবার মায়াবতী। সংসদের শীতকালীন অধিবেশনের আগে আজ বিএসপি নেত্রীকে মধ্যাহ্নভোজে ডাকেন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং। সাত নম্বর রেসকোর্স রোডে মায়াবতী উপস্থিত হলে সংসদের দুই কক্ষে সরকারের পাশে থাকার জন্য তাঁকে অনুরোধ করেন প্রধানমন্ত্রী। সূত্রের খবর প্রধানমন্ত্রীর আবেদন রাখার কথা গুরত্ব দিয়ে ভাববেন বলে মায়াবতী আশ্বাস দিয়েছেন।

তাজ করিডর মামলা থেকে আপাত মুক্তি মায়াবতীর

তাজ করিডোর মামলায় আপাতত স্বস্তিতে বিএসপি নেত্রী মায়াবতী। তাঁর বিরুদ্ধে এই সংক্রান্ত সবকটি জনস্বার্থ মামলা

খারিজ করে দিল এলাহাবাদ হাইকোর্টের লখনউ বেঞ্চ। ২০০২ সালে তাজমহল সংলগ্ন এলাকার রাস্তা সৌন্দর্যায়নের

একটি প্রজেক্ট মায়াবতী সরকারের তরফ থেকে নেওয়া হয়। এই প্রজেক্টেই নিয়ে ১৭ কোটি টাকা দুর্নীতির অভিযোগ

ওঠে উত্তরপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে। এই নিয়ে মায়াবতী ও তাঁর ঘনিষ্ঠ সাংসদ নাসিমুদ্দীন সিদ্দিকির বিরুদ্ধে

৬ টি জনস্বার্থ মামলা দায়ের করা হয়। সোমবার এলাহাবাদ হাইকোর্ট এই সবকটি মামলাই খারিজ করে দিয়েছে।

সমর্থন প্রশ্নে সিদ্ধান্ত পরে: মায়াবতী

এফডিআই ইস্যুতে সিদ্ধান্ত করতে আজই বৈঠকে বসছে বিএসপির কর্মসমিতি। তারপরই জানা যাবে, কেন্দ্রীয় সরকার থেকে সমর্থন প্রত্যাহার, নাকি সরকারকে সমর্থন দিয়ে যাওয়া, কী সিদ্ধান্ত নেবেন মায়াবতী। গতকাল লখনউতে এক জনসভায় নানান ইস্যুতে কেন্দ্র ও রাজ্যের কড়া সমালোচনা করেছেন মায়বতী। তবে খুচরো ব্যবসায় বিদেশি বিনিয়োগে মায়াবতীর তীব্র আপত্তি থাকলেও কেন্দ্রের ওপর সমর্থন প্রত্যাহারের বিষয়টি নিয়ে দলের অবস্থান এদিন খোলসা করেননি। সভামঞ্চ থেকেই জানিয়ে দিয়েছেন, দলের কর্মসমিতির বৈঠকে বুধবার এব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।