কাল কলম্বো টেস্টে দলে ফিরছেন বিজয়, ভাজ্জির বদলে হয়ত বিনি

কাল কলম্বো টেস্টে দলে ফিরছেন বিজয়, ভাজ্জির বদলে হয়ত বিনি

কাল, বৃহস্পতিবার কলম্বোয় পি সারা ওভালে শুরু হচ্ছে ভারত-শ্রীলঙ্কার দ্বিতীয় টেস্ট। সঙ্গাকারার ফেয়ারওয়েল টেস্ট নিয়ে গোটা ক্রিকেট বিশ্বে যতই আবেগ থাকুক, ভারতীয় দলের কাছে ওসব আবেগে মাথা গলানোর সময় নেই। এক বছরের বেশি সময় হয়ে গেল কোনও টেস্টে জিততে পারেনি ভারত। শেষ তিন বছরে বিদেশের মাটিতে মাত্র একটা টেস্টে জয় এসেছে। হেরে গেলে সিরিজ হার তো থাকছেই সঙ্গে অধিনায়ক কোহলিকে নিয়ে বড় প্রশ্ন উঠে যাবে। রবি শাস্ত্রীর চেয়ারও টলমল করবে। এমন একটা গুরুত্বপূর্ণ টেস্টে নেই ফর্মে থাকা শিখর ধাওয়ান। ধাওয়ানের জায়গায় দলে ফিরছেন মুরলী বিজয়। মুরলী বিজয়ের সঙ্গে ওপেন করবেন লোকেশ রাহুল। তিনে সেই রোহিতেই ভরসা রাখছে টিম ম্যানজেনমেন্ট। তিন স্পিনার থিওরি থেকে সরে এসে হরভজন সিংয়ের জায়গায় হয়তো দলে আসবেন স্টুয়ার্ট বিনি।

ধোনি ব্রিগেডের বিস্ফোরণে ছত্রাকার অসি বাহিনী

নাশকতা দীর্ণ হায়দরাবাদের মাটিতে জয়ের প্রলেপ লাগিয়ে ধোনি বাহিনী ধূলিসাৎ করল অসি গরিমাকে। চেন্নাই টেস্টের জয়ের উড়ানে আরও দ্রুত গতি সঞ্চারণ করে অন্ধ্রের রাজধানীতে বর্ডার-গাভাসকর ট্রফির দ্বিতীয় টেস্ট একদিন বাকি থাকতেই এক ইনিংস ও ১৩৫ রানে জিতে নিল টিম ইন্ডিয়া। দ্বিতীয় ইনিংসে ক্লার্ক এন্ড কোম্পানি গুটিয়ে গেল মাত্র ১৩১ রানে। চিপকে একটুর জন্য হাতছড়া হওয়া ইনিংসে জয় সুদে আসলে নিজামের দেশে উসুল করে নিলেন পূজারা, অশ্বিনরা। প্রত্যাশামতই ম্যাচের সেরা চেতেশ্বর পূজারা। ম্যান অফ দ্যা ম্যাচের ট্রফি হাতে সদ্যবিবাহিত পূজারা বললেন ''আমার বউ এই ম্যাচে আমার পারফরমেন্স নিয়ে খুবই চিন্তায় ছিল।''

পূজারা- মুরলীর জোড়া সেঞ্চুরি, চালকের আসনে ভারত

চেন্নাই টেস্টের রেশ ধরেই অসিদের বিরুদ্ধে ভারতীয় ব্যাটসম্যান প্রতাপ অব্যাহত। আজ হায়দরাবাদ টেস্টের দ্বিতীয় দিনেই ধোনি ব্রিগেডের দুই তরুণ তুর্কী, চেতেশ্বর পূজারা ও মুরলী বিজয়ের জোড়া সেঞ্চুরির সৌজন্যে রানের সম্ভাব্য পাহাড় গড়ে তোলার পথে ভারত। চেতেশ্বর পুজারা অপরাজিত আছেন ১৩৩ রানে। তাঁর সঙ্গেই হায়দরাবাদের ২২ গজে রাজত্ব করছেন মুরলী বিজয়। তাঁর সংগ্রহে ১১৮ রান। ভারতীয় ক্রিকেটের নতুন প্রজন্মের এই দুই প্রতিনিধির ব্যাটের উপর ভর করে টিম ইন্ডিয়া খুব সহজেই টপকে গেছে অস্ট্রেলিয়ার ২৩৭ রানের গণ্ডি। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ভারতীয়দের স্কোর এক উইকেট খুইয়ে ২৬২।