অনান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিচালন সমিতিতে নেই ছাত্ররা, কিন্তু মুখ্যমন্ত্রীর পছন্দের প্রেসিডেন্সির ক্ষেত্রে উল্টে গেল নিয়ম, বিতর্ক রাজ্য জুড়ে

বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিচালন সমিতিতে ছাত্র প্রতিনিধি রাখা নিয়ে এবার দুমুখো নীতি রাজ্য সরকারের। মুখ্যমন্ত্রীর স্বপ্নের বিশ্ববিদ্যালয় প্রেসিডেন্সিতে পরিচালন সমিতিতে রাখা হবে ছাত্র প্রতিনিধি। বিশ্ববিদ্যালয়ের স্ট্যাটুট গৃহীত হলেই এই সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে। অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিচালন সমিতি থেকে অবশ্য ছাত্র প্রতিনিধিদের বাদ দিয়েছে রাজ্য সরকার। প্রশ্ন উঠছে, প্রেসিডেন্সির ক্ষেত্রে কেন ব্যতিক্রমী সিদ্ধান্ত নিল রাজ্য সরকার?

প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন নিয়ম

প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ে এখন যাঁরা বটানি, ফিজিওলজি, জুলজি নিয়ে স্নাতকস্তরে পড়াশোনা করছেন, ওই বিষয়গুলি নিয়েই তাঁরা স্নাতকোত্তরেও পড়াশোনা করতে পারবেন। কাল বিশ্ববিদ্যালয়ের এক্সিকিউটিভ কাউন্সিলের বৈঠক চলাকালীন ছাত্রছাত্রীরা এই মর্মে দাবি জানান। এবং তখনই তাঁদের যুক্তি মেনে নেওয়া হয়। নতুন নিয়মে ওই তিনটি বিষয় মিলিয়ে স্নাতক ও স্নাতকোত্তরে বায়ো সায়েন্স পড়ানো হয়।

প্রেসিডেন্সি হামলা: জোরালো তৃণমূলের যোগসাজশের তত্ত্ব

প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ের ঐতিহ্যশালী বেকার ল্যাবে ভাঙচুরের ঘটনায় তৃণমূলের যোগাসাজশের অভিযোগ ফের জোরালো হল। মানবাধিকার কমিশনের কাছে জোড়াসাঁকো থানার পুলিসকর্মীরা যে সাক্ষ্য দিয়েছেন, তাতে ভাঙচুরের ঘটনায় তৃণমূলের জড়িত থাকার প্রমাণ পাওয়া গিয়েছে। 

জমি সমস্যায় বিপর্যস্ত রাজ্যের রেল প্রকল্প, দাবি অধীরের

জমি সমস্যার জেরে প্রশ্নের মুখে রেলের একাধিক প্রকল্প। রবিবার দক্ষিণেশ্বরে রেলের এক অনুষ্ঠানে গিয়ে এমনই আশঙ্কার কথা জানালেন রেল প্রতিমন্ত্রী অধীর চৌধুরী। রেলের প্রকল্পগুলি রূপায়ণে রাজ্য সরকারের আরও সহযোগিতা প্রয়োজন বলে জানিয়েছেন রেল প্রতিমন্ত্রী। রাজ্যে জমি সমস্যার জেরে আটকে একাধিক রেল প্রকল্প। এই সমস্ত প্রকল্পগুলি দ্রুত রূপায়ণে রেল সচেষ্ট থাকলেও রাজ্য যথাযথ সহযোগিতা করছে না বলে অভিযোগ কেন্দ্রীয় রেল প্রতিমন্ত্রী অধীর চৌধুরীর।

রোজ বদলানো বয়ান এসে থামল `সাজানো` ঘটনায়

প্রেসিডেন্সিতে হামলার পর প্রতিদিনই বদলেছে সরকারের বয়ান। তৃণমূল জড়িত নয় এই দাবির পর সরাসরি দায়ী করা হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তারক্ষীকে। আক্রমণের হাত থেকে বাদ যাননি উপাচার্য-রেজিস্ট্রারও। আর সবশেষে গতকাল বলে দেওয়া হয়েছে সাজানো ঘটনা।  

প্রেসিডেন্সিতেও `সাজানো` ঘটনার তত্ত্বে শাসকের নিশানায় পাপ্পু

প্রেসিডেন্সি কাণ্ডেও সাজানো ঘটনার তত্ত্ব হাজির করল সরকার। শিল্পমন্ত্রীর মন্তব্য, পুরো ঘটনার পিছনে ষড়যন্ত্র আছে। শুক্রবারই, বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তারক্ষী পাপ্পু সিংকে গ্রেফতারের দাবি করেন তিনি। রাতেই পাপ্পু সিংকে থানায় ডেকে পাঠানো হয়। যদিও, ছাত্র এবং কর্তৃপক্ষের আপত্তিতে রাতে তাঁকে থানায় যেতে হয়নি। গতকাল, জোড়াসাঁকো থানার পুলিস তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করে। তবে, পুলিস পাপ্পুকে গ্রেফতার না করায় ক্ষোভ গোপন করেননি শিল্পমন্ত্রী।

প্রেসিডেন্সিতে হামলায় জেল হেফাজতে ৪

আজ প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলার ঘটনায় গ্রেফতার হওয়া পাঁচ জনের মধ্যে চারজনের জামিনের আবেদন নাকচ করে দিল আদালত। জামিন পেয়েছেন মুন্না সিং। তিনি সিটি কলেজের ছাত্র বলে জানা গেছে। পরীক্ষার কারণে ব্যাক্তিগত তিন হাজার টাকার বন্ডে জামিন পেয়েছেন তিনি। তবে আদালতের নির্দেশে মামলা চলাকালীন সপ্তাহে একদিন তদন্তকারী অফিসারের সামনে হাজিরা দিতে হবে মুন্নাকে। বাকি চারজনের ২৬ এপ্রিল পর্যন্ত জেল হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছে আদালত। এদের মধ্যে দু`জন সুরেন্দ্রনাথ কলেজের, একজন সিটি কলেজের ও একজন ম্যানেজমেন্টের ছাত্র বলে জানা গেছে।

প্রেসিডেন্সিতে হামলা, তৃণমূলের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অধীর

প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ের হামলার ঘটনায় শাক দিয়ে মাছ ঢাকার চেষ্টা করছে তৃণমূল। চব্বিশ ঘণ্টাকে দেওয়া এক একান্ত সাক্ষাত্‍‍কারে এই বিস্ফোরক মন্তব্য করেন রেলপ্রতিমন্ত্রী অধীর চৌধুরী। একই সঙ্গে তাঁর মন্তব্য, মুখ্যমন্ত্রীর সাহস থাকলে ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতারের নির্দেশ দিন।

ক্যামেরায় প্রমাণ, হামলাকারীরা তৃণমূল কর্মী সমর্থক

শাসকদলের নেতামন্ত্রীদের দাবি, প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলার সঙ্গে তৃণমূল কংগ্রেস বা টিএমসিপির কেউ জড়িত নন। চব্বিশ ঘণ্টার হাতে আসা এক্সক্লুসিভ ছবি কিন্তু সেকথা বলছে না। বুধবার প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলা। বৃহস্পতিবার আমরা দেখাই কারা যুক্ত ওই হামলার সঙ্গে। কারা ছিলেন তাদের কিছু পরিচয় পাওয়া গেছে।

প্রেসিডেন্সিতে হামলা, শাসকের নিশানায় উপাচার্য

প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলার ঘটনায় অস্বস্তি এড়াতে উপাচার্যকেই নিশানায় করল শাসক দল। হামলা নিয়ে শাসক দলের দিকেই আঙুল তুলেছিলেন উপাচার্য মালবিকা সরকার। এবারে উপাচার্যের রাজনৈতিক অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন তুললেন পঞ্চায়েত মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়৷ বললেন, মালবিকা সরকারের ইতিহাস-ভূগোল আগে দেখা দরকার৷

প্রেসিডেন্সিতে হামলা: গ্রেফতার দুই

প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলার ঘটনায় দুজনকে গ্রেফতার করল জোড়াসাঁকো থানার পুলিস। ধৃতদের নাম শুভজিত বর্মণ এবং জয়ন্ত হাওলাদার। বৃহস্পতিবার সন্ধেয় দুজনকে কলেজ স্ট্রিট এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

প্রেসিডেন্সিতে হামলা, মৌন মিছিলে প্রতিবাদ রাজপথে

গতকাল প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ে তৃণমূল ছাত্রপরিষদের তাণ্ডবের প্রতিবাদে আজ মৌনমিছিলে পা মেলালেন ওই বিশ্ববিদ্যালয়েরই বর্তমান, প্রাক্তন ছাত্র-ছাত্রীদের সঙ্গে অধ্যাপক-অধ্যাপিকারাও। বুধবারই প্রেসিডেন্সির বর্তমান ছাত্রছাত্রীরা বৃহস্পতিবারকে প্রতিবাদ দিবস হিসাবে ঘোষণা করেন। মাথায় কালো কাপড় বেঁধে আজ মিছিলে পা মেলালেন দলমত নির্বিশেষে সকলেই। কলেজ ক্যাম্পাস থেকে শুরু হওয়া এই মিছিল শেষ হওয়ার কথা ছিল রাজভবনের সামনে। কিন্তু রাণি রাসমনি অ্যাভেনিউতেই এই মিছিল থামিয়ে দিল পুলিস।  সেখানে রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করে ডেপুটেশন জমা দিতে রওনা দিয়েছেন ছাত্র-ছাত্রী, অধ্যাপকদের প্রতিনিধিদল। 

প্রেসিডেন্সিতে তাণ্ডব, রাজ্যের সমালোচনায় মহাশ্বেতা

প্রেসিডেন্সিতে তাণ্ডবের জেরে ভাবমূর্তি উজ্জ্বল হয়নি রাজ্যের। আজ এমনই প্রতিক্রিয়া বিশিষ্ট সাহিত্যিক মহাশ্বেতা দেবীর। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে এই হামলার তীব্র নিন্দা করে তিনি বলেন, এই ধরণের ঘটনা রুখতে আরও গঠনমূলক পদক্ষেপ নিতে হবে রাজনৈতিক দলগুলিকেই।

হিন্দু হস্টেলের মেস বন্ধ, বিক্ষোভে ফেটে পড়লেন ছাত্রেরা

খাবারের দাবিতে প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ে বিক্ষোভ দেখালেন ছাত্ররা। গত ২৭ মার্চ থেকে হিন্দু হস্টেলের মেস বন্ধ করে দিয়েছেন কর্মীরা। তার ফলে খাবারের অভাবে চরম বিপাকে পড়েছেন হস্টেলের বহু ছাত্র।

প্রেসিডেন্সির নিয়োগে শর্ত : কোনও কারণ ছাড়াই অধ্যাপককে বরখাস্ত

কোনও কারণ ছাড়াই বরখাস্ত করা হতে পারে। প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তিতে এমনই শর্ত আরোপ করা হল। এই ধরনের শর্ত অধ্যাপক নিয়োগের ক্ষেত্রে শুধু নজিরবিহীনই নয়, অধ্যাপকদের পক্ষেও অত্যন্ত সম্মানহানিকর।

প্রেসিডেন্সি নিয়ে সরকারি নীতির সমালোচনায় প্রাক্তনরা

বাইরে থেকে মর্যাদা ভূষিত করে প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়ের কোনও উন্নতি করা যাবে না। শুক্রবার এমনই মন্তব্য করলেন কবি শঙ্খ ঘোষ। প্রেসিডেন্সির উত্‍কর্ষতা নিয়ে শঙ্খ ঘোষের বক্তব্য, যে ভাবে সরকার প্রেসিডেন্সিকে উত্কর্ষ কেন্দ্র করছে তাতে প্রেসিডেন্সিকে বাইরে থেকে মর্যাদা দেওয়া হলেও যথাযথ মানোন্নয়ন সম্ভব নয়।