শ্রীসন্থকে কেরল ভোটে প্রার্থী হওয়ার প্রস্তাব বিজেপির শ্রীসন্থকে কেরল ভোটে প্রার্থী হওয়ার প্রস্তাব বিজেপির

সেই চেনা ছক। প্রথমে ক্রিকেটার, তারপর কলঙ্কের দাগ। সেই দাগ কিছুটা মিটতেই সহানুভূতির হাওয়া। তারপর সেই সহানুভূতির হাওয়ায় ভর করে নির্বাচনে জয়ের চেষ্টা। আসন্ন কেরল বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি প্রার্থী হিসেবে লড়তে দেখা যেতে পারে স্পট ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত ক্রিকেটার শ্রীসন্থ। দিল্লি বিজেপি-র এক নেতা শ্রীসন্থকে তাদের হয়ে ভোটে দাঁড়ানোর প্রস্তাব দেন। শ্রীসন্থ কিছুটা সময় চেয়েছেন। শ্রীসন্থের পরিবার জানায়, তাকে তিরুবন্তপুরম আসনে লড়ার জন্য বিজেপি প্রস্তাব দিয়েছে। যদিও কেরলের বিজেপি সভাপতি এই খবরের কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে রাজি হননি। শ্রীসন্থ যদি রাজি হননি তাহলে তাকে লড়তে হবে রাজ্যের দাপুটে মন্ত্রী কংগ্রেসের কে বাবুর বিরুদ্ধে। শ্রীসন্থ এখন ব্যস্ত অভিনয়ের কাজে।

দাউদের সঙ্গে যোগাযোগ থাকলে দুবাইতে থাকতাম: শ্রীসন্থ দাউদের সঙ্গে যোগাযোগ থাকলে দুবাইতে থাকতাম: শ্রীসন্থ

স্পট ফিক্সিং মামলায় বেকসুর খালাস হয়ে বাড়ি ফিরলেন শ্রীসন্থ। শনিবার দিল্লি আদালত এই মামলায় শ্রীসন্থ সহ সব অভিযুক্তকে বেকসুর খালাস ঘোষণা করেছে। রবিবার সকালে শ্রীসন্থ কেরালার বাড়িতে ফেরেন। কোচি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌছতেই অনুরাগীরা ফুলের মালা পরিয়ে বরণ করে নেন ঘরের ছেলেকে। বিমানবন্দরে শ্রীসন্থ জানান তার বিরুদ্ধে দাউদ ইব্রাহিমের সঙ্গে যোগাযোগের অভিযোগ আনা হয়েছিল। কিন্তু তিনি দাউদকে চেনেনই না। শ্রীসন্থের দাবি দাউদের সঙ্গে যোগাযোগ থাকলে তিনি আজ ভারতে থাকতেন না। দুবাইতে থাকতেন। আর তিনি ক্রিকেটারও থাকতেন না, অন্য কিছু হতেন।