ভয়ঙ্কর ভিডিও! ট্যাক্সিতে এক ব্যক্তিকে তাড়া করল মহিলা ভূত! তারপর..

ভয়ঙ্কর ভিডিও! ট্যাক্সিতে এক ব্যক্তিকে তাড়া করল মহিলা ভূত! তারপর..

রাতে একা ট্যাক্সি নিয়ে যাতায়াত করেন? তাহলে এবার সাবধান হয়ে যান। সদ্য একটি ভিডিও প্রকাশ পেয়েছে। যেখানে দেখা যাচ্ছে, জাপানে গভীর রাতে ট্যাক্সিতে উঠতে যাচ্ছেন এক ব্যক্তি। আর সেই ট্যাক্সিতেই উঠতে দেখা গেল এক ছায়া মূর্তিকে। ছায়াটি এক মহিলার। শুধু তাই নয়, সিসিটিভি ফুটেজে দেখা গিয়েছে, রাস্তা দিয়ে ওই ব্যক্তি যখন ট্যাক্সি ধরার জন্য দৌড়চ্ছেন, তখন তাঁর পাশেই সেই ছায়া মূর্তিকে দৌড়তে দেখা যাচ্ছে। পরক্ষণেই ওই ব্যক্তি যেই ট্যাক্সির দরজা খুলে ভিতরে গেলেন, তাঁর সঙ্গে সেই ছায়া মূর্তিও ট্যাক্সিতে ঢুকে গেল!

ওলা, উবেরেও সেই যাত্রী প্রত্যাখ্যানের গল্প, নাজেহাল মানুষ, তাহলে উপায়? ওলা, উবেরেও সেই যাত্রী প্রত্যাখ্যানের গল্প, নাজেহাল মানুষ, তাহলে উপায়?

ট্যাক্সি নিয়ে জেরবার শহরবাসীকে স্বস্তি দিয়েছিল ক্যাব পরিষেবা ওলা বা উবের। পেশাদারি ব্যবস্থাপনায় ঝঞ্ঝাট কেটেছিল শহুরে মানুষজনের। অ্যাপ ডাউনলোড করে ইচ্ছেমতো বুকিং আর কয়েক মিনিটের মধ্যেই আপনার লোকেশন অনুসরণ করে পায়ের গোড়ায় হাজির ওলা। একদিকে মধ্যমগ্রাম-সোদপুর স্টেশন। অন্যদিকে সাঁতরাগাছি, বিষ্ণুপুর বা বারুইপুর পর্যন্ত নিশ্চিন্ত যাত্রা। কিন্তু সে আয়েস বোধহয় বেশিদিন টিকল না। ট্যাক্সির পাশেই এবার ওলার নতুন ঝঞ্ঝাট। শহরের বিভিন্ন জায়গা থেকে আসছে যাত্রী প্রত্যাখ্যানের অভিযোগ।

আগামিকাল থেকেই দিল্লির রাস্তায় গ্যাসচালিত ট্যাক্সি আগামিকাল থেকেই দিল্লির রাস্তায় গ্যাসচালিত ট্যাক্সি

পেট্রোল, ডিজেলচালিত ট্যাক্সি আর নয়। আগামিকাল, রবিবার ১ মে থেকেই রাজধানী দিল্লির রাস্তায় পেট্রোল, ডিজেলচালিত আর কোনও ট্যাক্সি চলবে না। আজ এই মর্মে চূড়ান্ত রায় ঘোষণা করল সুপ্রিম কোর্ট। দেশের শীর্ষ আদালত জানিয়েছে, দিল্লির রাস্তায় ট্যাক্সি চালানোর ক্ষেত্রে গ্যাস বাধ্যতামূলক।

হাত ধুয়ে ফেলতে ব্যস্ত হায়দরাবাদের নির্মাণ সংস্থা IVRCL হাত ধুয়ে ফেলতে ব্যস্ত হায়দরাবাদের নির্মাণ সংস্থা IVRCL

উড়ালপুল বিপর্যয়ে নিজেদের দায় মানতে নারাজ হায়দরাবাদের নির্মাণকারী সংস্থা IVRCL। আজও তাদের দাবি, নির্মাণ সামগ্রী যাচাই থেকে বাকি সব কাজই হয়েছে KMDA-র অনুমতি নিয়ে। এর আগে ভগবানের ইচ্ছের ওপর দায় চাপানোর পর, আজ তাদের আরেক যুক্তি, বিস্ফোরণেও তো ভেঙে পড়তে পারে উড়ালপুল!   

স্রেফ মনের তাগিদে সাহায্য করতে ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন স্থানীয়দের অনেকেই স্রেফ মনের তাগিদে সাহায্য করতে ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন স্থানীয়দের অনেকেই

কোনও ট্রেনিং নেই, অভিজ্ঞতাও নেই। স্রেফ মনের তাগিদে ঝাঁপিয়ে পড়েছিলেন ওরা, জীবন বাঁচানোর লড়াইয়ে। বিবেকানন্দ উড়ালপুলের দুর্ঘটনা, কয়েক মুহুর্তে বদলে দিয়েছে ওদের জীবনটাও। কীভাবে, কী করে সাহায্য করা যায়! দিনরাত এক করে সেই চেষ্টাই করে যাচ্ছেন স্থানীয়দের অনেকেই।

সেতুর ঝুলে থাকা অংশটিকে ভাঙাই এই মুহূর্তে সবথেকে বড় চ্যালেঞ্জ সেতুর ঝুলে থাকা অংশটিকে ভাঙাই এই মুহূর্তে সবথেকে বড় চ্যালেঞ্জ

ঘটনার পর কেটে গিয়েছে গোটা একটা দিন। সেনাবাহিনী জানিয়ে দিয়েছে উদ্ধারের কাজ শেষ। কিন্তু সেতুর ঝুলে থাকা অংশটিকে ভাঙাই এই মুহূর্তে সবথেকে বড় চ্যালেঞ্জ। আর ঘটনাস্থল ঘুরে ফরেনসিক দল জানিয়ে দিল, গতকালের ঘটনার সঙ্গে বিস্ফোরণ বা নাশকতার কোনও যোগ নেই।

বিস্ফোরক স্বীকারোক্তি পোস্তা উড়ালপুলের নির্মাণকর্মীদের বিস্ফোরক স্বীকারোক্তি পোস্তা উড়ালপুলের নির্মাণকর্মীদের

বিস্ফোরক স্বীকারোক্তি পোস্তা উড়ালপুলের নির্মাণকর্মীদের। ভেঙে গিয়েছিল উড়াল পুলের ক্যান্টিলিভারের দুটি নাট। তাদের দাবি, ঝালাই দিয়ে কাজ চালিয়ে নিতে বলেন দায়িত্বে থাকা ইঞ্জিনিয়ার। তার পরেই ঘটে যায় বিপত্তি।

কী ভাবে ভেঙে পড়ল পোস্তা উড়ালপুল? কী ভাবে ভেঙে পড়ল পোস্তা উড়ালপুল?

কী ভাবে ভেঙে পড়ল পোস্তা উড়ালপুল? কেন ঘটল এই বিপর্যয়? উত্তর খুঁজতে গ্রাউন্ড জিরোয় ২৪ ঘণ্টা। 

বিপর্যয় মোকাবিলায় রাজ্য অক্ষম, দেখিয়ে দিল পোস্তার বিপর্যয়ের ঘটনা বিপর্যয় মোকাবিলায় রাজ্য অক্ষম, দেখিয়ে দিল পোস্তার বিপর্যয়ের ঘটনা

প্রশিক্ষণ নেই। নেই অভিজ্ঞতা। নেই প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতিও। এমনকি জানা নেই ভিড় নিয়ন্ত্রণের কৌশল। সেকারণেই গতকাল ভেঙে পড়া উড়ালপুলে উদ্ধার কাজ শুরু করতে সময় লেগে যায় আড়াই ঘণ্টা। বেহাল দশা ধরা পড়ে সেনা জওয়ানেরা উদ্ধার কাজ শুরুর পর। বিপর্যয় মোকাবিলায় রাজ্য যে অক্ষম, তা দেখিয়ে দিল পোস্তার গতকালের ঘটনা।

কান ঘেঁষে চলে গেছে মৃত্যু, কিন্তু আতঙ্ক পিছু ছাড়ছে না কান ঘেঁষে চলে গেছে মৃত্যু, কিন্তু আতঙ্ক পিছু ছাড়ছে না

কান ঘেঁষে চলে গেছে মৃত্যু। মাত্র কয়েক সেকেন্ডের ফারাক। রাস্তায় ট্রাফিক সিগন্যালের এপার আর ওপার। তাই বাঁচিয়ে দিল প্রাণ। পোস্তার বাসিন্দা রাজকুমার সোনকার এবং তাঁর ভাই মানব মালিক এখনও ভেবে পাচ্ছেন না, কী করে মৃত্যুকে এড়ালেন তাঁরা!

কান্নায় ভারী হয়ে গিয়েছে জোড়াসাঁকোর বাতাস কান্নায় ভারী হয়ে গিয়েছে জোড়াসাঁকোর বাতাস

২১শে মে ছেলের বিয়ে। একটু একটু করে ব্যস্ততা বাড়ছিল বাড়িটায়। আনন্দ, হইহুল্লোড় সবই ছিল। কিন্তু নিমেষে বদলে গেছে গোটা ছবিটা। হাসির বদলে কান্নায় ভারী হয়ে গেছে জোড়াসাঁকোর বাতাস।

ধ্বংসস্তূপের মাঝে ছবি হাতে বাবা-মাকে খুঁজে ফিরেছেন ওঁরা! ধ্বংসস্তূপের মাঝে ছবি হাতে বাবা-মাকে খুঁজে ফিরেছেন ওঁরা!

ধ্বংসস্তূপের মাঝে একটি ছবি হাতে বাবা-মাকে খুঁজে ফিরেছেন ওঁরা। কিন্তু কোত্থাও পাননি। যখন পেলেন, তখন সব শেষ। দুই ছেলে শোকে পাথর। সত্তোরোর্ধ্ব বৃদ্ধ বাবা-মাও হতভম্ব। কী বলবেন, বুঝে উঠতে পারছেন না।

২টি ট্যাক্সির ফাঁকে আটকে শেখ আবদুল হুদা ২টি ট্যাক্সির ফাঁকে আটকে শেখ আবদুল হুদা

প্রতিদিনই ওই সময়ে যেতেন ক্যানিং স্ট্রিটে চেনা পরিচিতদের খাবার পৌছে দিতে। গতকালও গিয়েছিলেন। আর তখনই মাথার ওপর ভেঙে পড়ে উড়ালপুল। দুটি ট্যাক্সির ফাঁকে আটকে যান শেখ আবদুল হুদা।

আজ ও কাল শহরে ট্যাক্সি ধর্মঘট আজ ও কাল শহরে ট্যাক্সি ধর্মঘট

ভাড়া বৃদ্ধি, পুলিসি নির্যাতনের প্রতিবাদ সহ ৮ দফা দাবিতে আজ ও কাল শহরে ট্যাক্সি ধর্মঘট। যৌথ ভাবে দুদিনের ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে কলকাতা ট্যাক্সি অপারেটর্স ইউনিয়ন এবং ওয়েস্ট বেঙ্গল ট্যাক্সি অপারেটর্স কো-অর্ডিনেশন কমিটি।

পরিবহণ ব্যবস্থায় এগিয়ে রাজ্য পরিবহণ ব্যবস্থায় এগিয়ে রাজ্য

পরিসংখ্যানের নিরিখে পরিবহণ ব্যবস্থায় এগিয়ে রাজ্য। বাস পরিষেবার পাশাপাশি চালু হয়েছে নতুন বাস রুটও। ২০০৭ থেকে ২০১১য় যা ছিল ৭৩০টি, বর্তমানে তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৩৮৭। কলকাতার রাস্তায় এখন চলে প্রায় ১৫০০টি এসি বাস। আরও বাস নামনোর চিন্তা রয়েছে সরকারের। ট্যাক্সি ড্রাইভারদের প্রত্যাখানে নাজেহাল হতে হতো যাত্রীদের। তাদের স্বাচ্ছন্দ্যের কথা মাথায় রেখে রাস্তায় নেমেছে কয়েক হাজার নো রিফিউজাল ট্যাক্সি। বাস পরিষেবার সঙ্গে রাজ্য পেয়ছে হেলিকপ্টার পরিষেবা। নতুন বিমানবন্দরের নতুন পালকও যুক্ত হয়েছে রাজ্যের মুকুটে। বাগডোগরা বিমানবন্দরে যাতে রাতেও বিমান নামানো যায় সেই ব্যবস্থাও করা হচ্ছে।

ফের উধাও পাঠানকোট থেকে ভাড়া করা একটি ট্যাক্সি! ফের উধাও পাঠানকোট থেকে ভাড়া করা একটি ট্যাক্সি!

ফের উধাও পাঠানকোট থেকে ভাড়া করা একটি ট্যাক্সি! হিমাচল প্রদেশের কাংড়া থেকে উদ্ধার ড্রাইভারের দেহ। আর এ ঘটনাই উস্কে দিয়েছে পাঠানকোট কাণ্ডের স্মৃতি। ট্যাক্সির নম্বর-ছবি দিয়ে রাজধানী দিল্লি জুড়ে জারি হয়েছে হাই অ্যালার্ট। প্রজাতন্ত্র দিবসের আগে কোনও রকম বিপত্তি এড়াতে নিরাপত্তা বলয়ে মুড়ে ফেলা হয়েছে রাজধানী। জানা গিয়েছে কয়েকদিন আগে পাঠানকোট থেকে তিন অজ্ঞাতপরিচয় ট্যাক্সিটি ভাড়া নেয়। তার পর থেকে খোঁজ নেই তাদের। সাদা অল্টো গাড়িটির রেজিস্ট্রেশন হিমাচল প্রদেশের। পাঠানকোট হামলার আগে জঙ্গিরা ছিনতাই করেছিল এসপি সালবিন্দর সিংয়ের গাড়ি। কয়েকদিন আগে নয়ডা থেকে ছিনতাই হয়েছে এক আইটিবিপি কর্তার SUV। সেটির খোঁজেও জারি হয়েছে সতর্কতা।