অবশেষে জেল থেকে ছাড়া পেলেন আরাবুল

জেল থেকে আজই ছাড়া পেলেন তৃণমূল কংগ্রেস নেতা আরাবুল ইসলাম। তেতাল্লিশ দিন পর গতকাল দশ হাজার টাকার বন্ডে বৃহস্পতিবার আরাবুল ইসলামের শর্তাধীন জামিন মঞ্জুর করে আলিপুর আদালত। আদালতের নির্দেশ অনুযায়ী,  চিকিত্সার প্রয়োজন ছাড়া কলকাতা লেদার কমপ্লেক্স থানা এলাকায় ঢুকতে পারবেন না তিনি। 

আরাবুলের হৃদযন্ত্র স্বাভাবিক, রিপোর্ট এসএসকেএমের

আরাবুল ইসলামের হৃদযন্ত্রে কোনও সমস্যা নেই। সোমবার এসএসকেএম হাসপাতালের তরফে যে মেডিক্যাল রিপোর্ট জমা দেওয়া হয়েছে, তাতে এই বিষয়টি স্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে।

শারীরিক অসুস্থতার জেরে হাসপাতেলে ভর্তি আরাবুল ইসলাম

বুকে ব্যথা ও শ্বাসকষ্ট বেড়ে যাওয়ায় এবার জেল হাসপাতাল থেকে এসএসকেএম হাসপাতালে ভর্তি করা হল আরাবুল ইসলামকে। বৃহস্পতিবার রাতে তাঁকে অ্যাম্বুলেন্সে স্থানান্তরিত করা হয়। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, ভাঙড়ের প্রাক্তন তৃণমূল বিধায়কের উচ্চ রক্তচাপের মাত্রাও কিছুটা বেড়েছে। তাই ঠিক  কতদিন আরাবুল ইসলামকে এসএসকেএম হাসপাতালে রাখা হবে, সেটা এখনও স্পষ্ট নয়।

অসুস্থতার দোহাই দিয়ে ফের আদালতে গরহাজির আরাবুল

বিপাকে পড়ে আরও একবার অসুস্থতার কারণে দেখিয়ে আদালতে হাজির হলেন না তৃণমূল নেতা আরাবুল ইসলাম। ধরা পড়ার দিন থেকেই বারবারই তিনি অসুস্থ হয়েছেন। পুলিসি জেরা এড়ানোর চেষ্টা করেছেন। বৃহস্পতিবারও আদালতে হাজিরা এড়ালেন। যদিও আদালত তাঁকে ফের ১৪ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছে।

আরাবুলের বিরুদ্ধে আরও একটি মামলা

আরও একটি মামলা দায়ের হতে চলেছে আরাবুল ইসলামের বিরুদ্ধে। শেষপর্যন্ত আদালতের নির্দেশে ভাঙড়ের কাঁটাতলায় সিপিআইএম অফিসে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনায় ওই মামলা দায়ের করছে পুলিস।