৪ দেশের বন্ধন ছিন্ন করার সিদ্ধান্ত 'অন্যায্য', বিবৃতি দিয়ে জানাল কাতার বিদেশমন্ত্রক

সংযুক্ত আরব আমির শাহি, মিশর, সৌদি আরব এবং বাহরিনের একযোগে কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক সঙ্গ ত্যাগ করার সিদ্ধান্তকে 'অন্যায্য' বলে দাবি করল সেদেশের বিদেশ মন্ত্রক। এই চার দেশ তাদের দেশে উপস্থিত কাতারের নাগরিকদের দেশে ফিরে যাওয়ার জন্য দুই সপ্তাহ সময় ধার্য করেছে। ইতিমধ্যেই সোদি আরব কাতারের সঙ্গে যাবতীয় নৌ ও বিমান যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে।

Updated: Jun 5, 2017, 05:20 PM IST
৪ দেশের বন্ধন ছিন্ন করার সিদ্ধান্ত 'অন্যায্য', বিবৃতি দিয়ে জানাল কাতার বিদেশমন্ত্রক

ওয়েব ডেস্ক: সংযুক্ত আরব আমির শাহি, মিশর, সৌদি আরব এবং বাহরিনের একযোগে কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক সঙ্গ ত্যাগ করার সিদ্ধান্তকে 'অন্যায্য' বলে দাবি করল সেদেশের বিদেশ মন্ত্রক। এই চার দেশ তাদের দেশে উপস্থিত কাতারের নাগরিকদের দেশে ফিরে যাওয়ার জন্য দুই সপ্তাহ সময় ধার্য করেছে। ইতিমধ্যেই সোদি আরব কাতারের সঙ্গে যাবতীয় নৌ ও বিমান যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে।

উল্লেখ্য, সন্ত্রাসবাদ এবং আন্তর্জাতিক আইনকে বারংবার বুড়ো আঙুল দেখানোর ফলেই এমন চরম পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে কাতারের বিরুদ্ধে, সরকারিভাবে এমনটাই খবর চার দেশের তরফে।

প্রাতিষ্ঠানিক বিবৃতির মাধ্যমে যাই বলা হোক না কেন অনেকেই মনে করছে এই চরম সিদ্ধান্ত আসলে ট্রাম্পের নিন্দা এবং সোদি আরব প্রশাসনকে প্রশংসার ফলাফল। উল্লেখ্য, সম্প্রতি খবরে প্রকাশিত হয়, কাতারের এক 'আমির' মার্কিন প্রেসিডেন্টের নিন্দা করার সঙ্গে সঙ্গে 'আঞ্চলিক প্রতিপক্ষ' সৌদি আরবের গুণগান করাতেই এমন সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে। তবে, কাতারের পক্ষ থেকে সরকারি স্তরে এই খবরের সত্যতা স্বীকার করা হয়নি।

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close