প্রেসিডেন্ট ভোটে দাঁড়াতে নাম নথিভূক্তি সাভেজের

Last Updated: Wednesday, June 13, 2012 - 16:50

দেহে বাসা বাঁধা কালান্তক ক্যানসার`কে নির্মূল করে মাসখানেক আগেই দেশে ফিরেছেন তিনি। কিন্তু তেমন করে তাঁকে জনসমক্ষে দেখা যায়নি। এই পরিস্থিতিতে তিনি আদৌ ভেনেজুয়ালার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে দাঁড়াবেন কি না তা নিয়ে লাগাতার নানা প্রশ্ন তুলছিল মার্কিন মিডিয়া। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সমস্ত জল্পনার অবসান ঘটিয়ে আগামী অক্টোবরে ভেনেজুয়েলায় অনুষ্ঠিতব্য প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তৃতীয়বারের মতো প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার উদ্দেশ্যে নাম নথিভূক্ত করলেন উগো সাভেজ। আর সেই সঙ্গেই রাজধানী কারাকাসে হাজার হাজার সমর্থকদের সামনে হাজির হয়ে আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে জানিয়ে দিলেন, তিনি রাষ্ট্রপতি ভোটে লড়ছেন এবং জিতছেন।
একটি খোলা ট্রাকের ওপর জাতীয় পতাকার রঙের পোষাক পরে কারাকাসের নির্বাচন কমিশনের দফতরে মনোনয়নপত্র নেওয়ার জন্য নাম নথিভূক্ত করতে এসেছিলেন সাভেজ। নির্বাচন কমিশনের অফিসে প্রবেশের আগে বাইরে অপেক্ষমাণ হাজার হাজার সমর্থকদের উদ্দেশে হাত নেড়ে শুভেচ্ছা জানান তিনি। প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী হিসেবে নাম নিবন্ধনের শেষে নির্বাচনী দফতরের বাইরের একটি চত্বরে উপস্থিত সমর্থকদের উদ্দেশ্যে ভাষণও দেন ভেনেজুয়েলার জনপ্রিয় বামপন্থী আইকন। কিউবায় ক্যান্সারের সফল চিকিৎসার পর মে মাসে দেশে ফিরেছেন সাভেজ। রেডিয়েশন থেরাপি’র জন্য কিউবা গিয়েছিলেন ভেনেজুয়েলার রাষ্ট্রপতি। সেখানে সফল ভাবেই রেডিয়েশন থেরাপির সাহায্যে তাঁর ক্যান্সারের চিকিৎসা হয়। গত বছর ক্যান্সারের চিকিৎসার জন্য ৫৭-বছর বয়েসী সাভেজের দু’বার অস্ত্রোপচার হয়। তার পর শুরু হয় কেমোথেরাপির মাধ্যমে চিকিৎসা।
অক্টোবরে ভেনেজুয়েলায় রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে সাভেজের বিরুদ্ধে বিরোধী জোটের প্রার্থী হেনরিকে কাপরিলেস। ১৯৯৯ সাল থেকে ভেনেজুয়েলার রাষ্ট্রপতি পদে রয়েছেন উগো সাভেজ। টানা দু`বার বিপুল ভোটে তিনি জয়লাভ করেছেন। যদিও ওয়াকিবহাল মহলের মতে ভেনেজুয়েলায় এবারের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে অতীতের তুলনায় কঠিনতর প্রতিদ্বন্দ্বিতার মুখে পড়তে হবে সাভেজকে।



First Published: Wednesday, June 13, 2012 - 16:50


comments powered by Disqus