সন্তানকে শৃঙ্খলা শেখানোয় গ্রেফতার ভারতীয় দম্পতি

অন্ধ্রপ্রদেশের ভি চন্দ্রশেখর ও তাঁর স্ত্রী, এমনটা হয়তো কখনও কল্পনাও করেননি। ওসলোয় কর্মরত তথ্যপ্রযুক্তি কর্মী চন্দ্রশেখর ও তাঁর স্ত্রীকে গ্রেফতার করেছে নরওয়ে প্রশাসন। ভারতীয় বংশোদ্ভূত এই দম্পতির বিরুদ্ধে অভিযোগ, নিজেদের ৭ বছরের সন্তানকে শৃঙ্খলা শেখানোর চেষ্ঠা করেছিলেন তাঁরা।

Updated: Nov 30, 2012, 08:00 PM IST

অন্ধ্রপ্রদেশের ভি চন্দ্রশেখর ও তাঁর স্ত্রী, এমনটা হয়তো কখনও কল্পনাও করেননি। ওসলোয় কর্মরত তথ্যপ্রযুক্তি কর্মী চন্দ্রশেখর ও তাঁর স্ত্রীকে গ্রেফতার করেছে নরওয়ে প্রশাসন। ভারতীয় বংশোদ্ভূত এই দম্পতির বিরুদ্ধে অভিযোগ, নিজেদের ৭ বছরের সন্তানকে শৃঙ্খলা শেখানোর চেষ্ঠা করেছিলেন তাঁরা।
হায়দরাবাদে তাঁর পরিবারের তরফে অভিযোগ করা হয়েছে, সন্তানকে শৃঙ্খলা শেখানোর জন্য চন্দ্রশেখর ও অনুপমাকে আটক করেছে ওসলো পুলিস। হয়দরাবাদে চন্দ্রশেখরের এক প্রতিবেশী ভি সইলেন্দরের কথায়, ৯ মাস আগে শিশুটি তাকে জোর করে ভারতে পাঠানোর চেষ্ঠার কথা তার স্কুল শিক্ষকদের জানায়। তার জেরেই বিদেশে কর্মরত টিসিএসকর্মী চন্দ্রশেখর ও তাঁর স্ত্রীকে গ্রেফতার করে পুলিস।
সইলেন্দর বলেন, "গত জুলাই মাসে স্ত্রী-পুত্র নিয়ে ভারতে ঘুরে যান আমার কাকা। অক্টোবরের শেষ সপ্তাহে নরওয়ে ফিরলে, সমন পাঠিয়ে তাঁদের প্রশাসনিক আধিকারিকদের সামনে উপস্থিত হওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়।" তিনি আরও জানান, গত ২৮ নভেম্বর তাঁরা সংশ্লিষ্ট আধিকারিকদের সঙ্গে দেখা করেন। সেইদিনই ওই ভারতীয় দম্পতির গ্রেফতার হওয়ার কথা চন্দ্রশেখের এক প্রতিবেশীর কাছ থেকে জানতে পারেন তাঁদের পরিবার। যদিও চন্দ্রশেখরদের গ্রেফতার সম্পর্কে এখনও বিস্তারিত কিছুই জানানো হয়নি হয়দরাবাদের পরিবারটিকে।