গ্রেফতার নাশিদ, দেশ ছাড়ল পরিবার

Last Updated: Thursday, February 9, 2012 - 15:59

ক্ষমতার পালাবদলের পর এবার প্রতিহিংসার রাজনীতির ছোঁয়াচ লাগল মালদ্বীপে। বৃহস্পতিবার আরব সাগরের এই দ্বীপরাষ্ট্রের ফৌজদারি আদালত সদ্য-পদত্যাদী প্রেসিডেন্ট মহম্মদ নাশিদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করার পরই তাঁকে আটক করা হয়েছে। আদালতের নির্দেশে নাশিদ-ক্যাবিনেটের প্রতিরক্ষামন্ত্রী তলহাত ইব্রাহিম খালেফানুরকেও গ্রেফতার করেছে পুলিস।
এই পরিস্থিতিতে বুধবার রাতে নাশিদের স্ত্রী লায়লা আলি মালদ্বীপ ছেড়ে শ্রীলঙ্কায় চলে গেছেন। তাঁর সঙ্গে পরিবারের কয়েকজন সদস্যও রয়েছেন বলে শ্রীলঙ্কা সরকারের সূত্রে খবর মিলেছে। মালদ্বীপের নয়া প্রেসিডেন্ট ড. মোহামেদ ওয়াহিদ তাঁর ক্ষমতাচ্যূত পূর্বসূরির নিরাপত্তা নিশ্চিত করার বিষয়ে শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট মাহিন্দা রাজাপক্ষেকে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বলে দাবি কলম্বোর মিডিয়ার। যদিও নাশিদের দল মালদ্বীপ ডেমোক্রেটিক পার্টি`র তরফে তাঁর জীবনসংশয় আছে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, মালদ্বীপের ফৌজদারী আদালতের প্রধান আবদুল্লাহ মোহাম্মদের গ্রেফতারির ঘটনায় জনতা ও সশস্ত্র পুলিসবাহিনীর বিক্ষোভের মুখে পড়ে মঙ্গলবার সকালে প্রেসিডেন্ট পদ ছাড়তে বাধ্য হয়েছিলেন নাশিদ। এর পর বিকেলে মালদ্বীপের পার্লামেন্ট ‘পিপলস মজলিসে’ আয়োজিত শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে আনুষ্ঠানিক ভাবে দায়িত্ব নেন নয়া প্রেসিডেন্ট ড. মোহামেদ ওয়াহিদ। সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি আহমেদ ফয়েজ হোসেন তাঁকে শপথ বাক্য পাঠ করান। এর পর গতকাল মিডিয়ার মুখোমুখি হয়ে নাশিদ বলেন বন্দুকের নলের সামনে ইস্তফা দিতে বাধ্য করা হয়েছে তাঁকে।



First Published: Thursday, February 9, 2012 - 15:59


comments powered by Disqus