বেনজির হত্যা মামলায় মুশারফকে পুলিস হেফাজত

Last Updated: Saturday, April 27, 2013 - 10:32

বেনজির ভুট্টো হত্যা মামলায় পরভেজ মুশারফকে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত পুলিস হেফাজতের নির্দেশ দিল রাওয়ালপিন্ডির আদালত। যদিও এই সময় নিজের খামারবাড়িতেই বন্দি থাকবেন প্রাক্তন পাক প্রেসিডেন্ট। ২০০৭ সালে রাওয়ালপিন্ডিতে হামলায় মৃত্যু হয় বেনজির ভুট্টোর। অভিযোগ, বেনজিরের প্রাণহানির আশঙ্কা থাকলেও, তাঁর নিরাপত্তার যথাযথ ব্যবস্থা নেননি তত্‍কালীন পাক প্রেসিডেন্ট মুশারফ।
স্বেচ্ছা নির্বাসন কাটিয়ে পাকিস্তানে ফিরে আসার পর থেকেই একের পর এক আইনি জটিলতায় জড়িয়ে পড়ছেন পরভেজ মুশারফ। প্রেসিডেন্ট থাকাকালীন পাক সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি ইফতিকার চৌধুরীসহ  ৬০ জন বিচারপতিকে গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছিলেন মুশারফ। সেই ঘটনায় ইতিমধ্যেই তাঁকে ৪ মে পর্যন্ত বিচারবিভাগিয় হেফাজতে রাখার নির্দেশ দিয়েছে আদালত। ২০০৭ সালে রাওয়ালপিন্ডিতে নির্বাচনী জনসভা সেরে ফেরার সময় হামলা হয় বেনজির ভুট্টোর কনভয়ে। মৃত্যু হয় প্রাক্তন পাক প্রধানমন্ত্রীর। অভিযোগ, তা সত্ত্বেও বেনজির ভুট্টোর প্রাণহানির আশঙ্কা থাকলেও তাঁর নিরাপত্তার জন্য কোনও ব্যবস্থা নেননি পরভেজ মুশারফ। শুক্রবার কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে রাওয়ালপিন্ডির বিশেষ আদালতে পেশ করা হয় মুশারফকে। আদালত তাঁকে তিরিশে এপ্রিল পর্যন্ত পুলিস হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছে।
 
তবে প্রাক্তন পাক প্রেসিডেন্টকে তাঁর খামারবাড়িতেই বন্দি রাখা হবে। সেখানেই বেনজির হত্যা মামলা প্রসঙ্গে তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করছেন পাক গোয়েন্দা সংস্থা এফআইএ-র অফিসাররা।



First Published: Saturday, April 27, 2013 - 10:32


comments powered by Disqus