তথ্য পাচারের অপরাধে দু`বছরের কারাদণ্ড রজত গুপ্তর

Last Updated: Thursday, October 25, 2012 - 09:11

গোল্ডম্যান স্যাক্স এবং প্রক্টার অ্যান্ড গ্যাম্বেলের প্রাক্তন বোর্ড মেম্বার রজত গুপ্তকে ২বছরের কারাদণ্ডের নির্দেশ দিল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের একটি আদালত। একই সঙ্গে ৫০লক্ষ মার্কিন ডলার জরিমানাও হয়েছে তাঁর। গোল্ডম্যান স্যাক্সের পরিচালন পর্ষদে থাকাকালীন গোপন তথ্য পাচারের দায়ে গত জুন মাসে রজত গুপ্তকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়। রজতবাবুর বিরুদ্ধে অন্যতম অভিযোগ ছিল, তাঁর কাছে পাওয়া গোপন তথ্য কাজে লাগিয়েই বেআইনি শেয়ার কেনাবেচায় বিপুল মুনাফা করেছে হেজ ফান্ড সংস্থা গ্যালিয়ন। ওয়ারেন বাফের বার্কশায়ার হ্যাথওয়ের ৫০০ কোটি ডলার লগ্নির সিদ্ধান্ত গোপনে জানিয়ে দিয়েছিলেন রজত গুপ্ত।
গ্যালিয়নের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রাক্তন কর্ণধার শ্রীলঙ্কার রাজ রাজারত্নম আপাতত ১১ বছরের জন্য হাজতে।রজত গুপ্তর বিচার শুরুর আগে তাঁর হয়ে মুখ খুলেছিলেন মুকেশ আম্বানি সহ দেশের বেশ কয়েকজন শীর্ষস্থানীয় শিল্পপতি। আদালতের রায় ঘোষণার আগে রজত গুপ্তর পাশে দাঁড়িয়েছিলেন রাষ্ট্রসঙ্ঘের মহাসচিব কোফি আন্নান থেকে মাইক্রোসফ্ট প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটসও। তাঁদের বক্তব্য ছিল, রজত গুপ্তর ভাল দিকগুলিও যেন সাজাঘোষণার আগে বিবেচনা করা হয়। দুনিয়াজুড়ে এইডস, টিবি, ম্যালেরিয়ার মতো মারণ অসুখ রুখতে গেটস ফাউন্ডেশন গড়েছেন মাইক্রোসফ্ট প্রতিষ্ঠাতা। সেখানে তাঁর সঙ্গে কাজ করেছেন রজত গুপ্ত। রাষ্ট্রসঙ্ঘের পরামর্শদাতা হিসেবে রজত গুপ্তের অবদানের বিষয়টি চিঠি দিয়ে বিচারককে স্মরণ করিয়ে দিতে চেয়েছিলেন কোফি আন্নান।



First Published: Thursday, October 25, 2012 - 09:11


comments powered by Disqus