পাহাড়ে সুমুখ সমরে জিএনএলএফ-মোর্চা

জিএনএলএফ এর প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে সভা, পাল্টা সভায় সরগরম হয়ে উঠল পাহাড়। সংগঠনের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে  সভা করে জিএনএলএফ। পাল্টা সভা করে গোর্খাজনমুক্তি মোর্চাও। দু`পক্ষের সভাতেই  নেতৃত্বের গলায় ছিল হুঁশিয়ারি। শিমূলবাড়ির সভায় মোর্চা  ছেড়ে প্রায় ৬০০ কর্মী জিএনএলএফে যোগ দেন। ফের পাহাড়ে সক্রিয় জিএনএলএফ। 

Updated: Apr 5, 2013, 10:08 PM IST

জিএনএলএফ এর প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে সভা, পাল্টা সভায় সরগরম হয়ে উঠল পাহাড়। সংগঠনের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে  সভা করে জিএনএলএফ। পাল্টা সভা করে গোর্খাজনমুক্তি মোর্চাও। দু`পক্ষের সভাতেই  নেতৃত্বের গলায় ছিল হুঁশিয়ারি। শিমূলবাড়ির সভায় মোর্চা  ছেড়ে প্রায় ৬০০ কর্মী জিএনএলএফে যোগ দেন। ফের পাহাড়ে সক্রিয় জিএনএলএফ। 
জিএনএলএফকে জায়গা ছাড়তে নারাজ মোর্চা। সংগঠনের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সমতলের শিমূলবাড়ি ও পাহাড়ের বেশ কয়েকটি জায়গায় সভার ডাক দিয়েছিল  জিএনএলএফ। শুক্রবারই দার্জিলিঙ, কার্শিয়াঙ, কালিম্পং এবং মিরিকে পাল্টা সভার ডাক দেয় গোর্খা জনমুক্তি মোর্চা ।  কড়া পুলিসি প্রহরা থাকায় কোনও  অশান্তি হয়নি। কিন্তু দু তরফের নেতৃত্বের গলায়  ছিল হুঁশিয়ারি।
 
শুধু জিএনএলএফই নয় পাহাড়ে তৃণমূলেরও যে কোনও জায়গা নেই তাও স্পষ্ট করে দেন মোর্চা নেতারা। শিমূলবাড়ির সভায় মোর্চা থেকে প্রায় ছশো জন কর্মী জিএনএলএফে যোগ দেন।