সন্ন্যাসিনীর প্ররোচনায় নরবলির উদ্যোগ, রুখলেন গ্রামবাসীরা

নরবলির চেষ্টা রুখলেন গ্রামবাসীরা। খাঁড়া সমেত এক ব্যক্তিকে হাতেনাতে ধরে তাঁকে পুলিসের হাতে তুলে দেওয়া হয়। সম্রাট মাল নামের ওই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিস। বীরভূমের নলহাটির বারুনিঘাটা গ্রামে গতকাল রাতে এই ঘটনা ঘটে।

Updated: Nov 3, 2013, 10:54 PM IST

নরবলির চেষ্টা রুখলেন গ্রামবাসীরা। খাঁড়া সমেত এক ব্যক্তিকে হাতেনাতে ধরে তাঁকে পুলিসের হাতে তুলে দেওয়া হয়। সম্রাট মাল নামের ওই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিস। বীরভূমের নলহাটির বারুনিঘাটা গ্রামে গতকাল রাতে এই ঘটনা ঘটে। 
কৃষ্ণপুর গ্রামের বাসিন্দা সম্রাট মাল অনেকদিন ধরেই নানা অশান্তির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছেন। পাশের বারুনিঘাটা গ্রামে কল্যাণী লেঠ নামে এক সন্ন্যাসিনীর কাছে যেতেন তিনি। অভিযোগ, সন্যাসিনী দীপাবলির রাতে তাঁকে নরমুণ্ড আনতে বলেন। তাজা রক্ত দিয়ে তন্ত্র সাধনা করলে, সম্রাটের অশান্তি দূর হবে বলে আশ্বাস দেন তিনি। সেইমতো খাঁড়া জোগাড় করে, রাতেই একটি ঝুপড়িতে ঢুকে পড়েন সম্রাট। দরজা ভাঙার শব্দ পেয়ে জেগে যান পরিবারের সদস্যরা। খাঁড়া হাতে উদ্যত সম্রাটকে ধরে ফেলেন তাঁরা। নলহাটি থানার পুলিস এসে তাঁকে গ্রেফতার করে। খাঁড়াটি বাজেয়াপ্ত করেছে পুলিস। সন্যাসিনীকে আটক করা হয়েছে। যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করেছেন তিনি।