ঘরের ভিতরে থেকে মুখ্যমন্ত্রীকে বয়কট পাহাড়ে

Last Updated: Monday, September 2, 2013 - 22:39

ঘরের ভিতর জনতা কর্মসূচির আড়ালে কার্যত মুখ্যমন্ত্রীকে বয়কটের পথেই হাঁটলেন মোর্চা নেতারা। তাই, কালিম্পং যাওয়ার পথে আজ পাহাড়ের শুনশান ছবি দেখলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাস্তায় ছিল না মানুষ। খোলেনি দোকানপাট। তবে, কালিম্পঙে মুখ্যমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে হাজির ছিলেন লেপচারা। ক্ষমতায় আসার পর যতবার মুখ্যমন্ত্রী পাহাড়ে গেছেন, ততবারই ধরা পড়েছে এই ছবি। এ বার কিন্তু পরিস্থিতি একেবারে অন্যরকম।
মোর্চার ঘরের ভিতর জনতা কর্মসূচির জেরে মুখ্যমন্ত্রীর সফরেও শুনশান পাহাড়। মুখ্যমন্ত্রীর কালিম্পং যাওয়ার রাস্তাতেও ধরা পড়ল একই ছবি। তবে, কালিম্পঙে ঢোকার একটু আগে মুখ্যমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে ভিড় করেছিলেন লেপচারা।
 
মুখ্যমন্ত্রীর সংবর্ধনা অনুষ্ঠান নিয়ে লেপচাদের সঙ্গে মোর্চার বিরোধ বেড়েছে। লেপচারা বলছেন, মুখ্যমন্ত্রীর সফর পাহাড়ের বর্তমান আন্দোলন শুরুর অনেক আগে থেকেই ঠিক ছিল। মুখ্যমন্ত্রীকে স্বাগত জানালেও মোর্চার আন্দোলনকে সমর্থনের কথাও শোনা গেছে তাঁদের মুখে।
মুখ্যমন্ত্রীর গাড়ি যখন কালিম্পঙে ঢুকল তখনও সেই একই ছবি। বন্ধ দোকানপাট। শুনশান রাস্তা। মঙ্গলবার, লেপচাদের অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন মুখ্যমন্ত্রী। মোর্চার ঘরের ভিতর জনতা কর্মসূচির জন্য পৌঁছতে যাতে অসুবিধা না হয়, সে জন্য আগেই কালিম্পঙে পৌঁছে গেছেন লেপচারা। সোমবার কলকাতার গোর্খা ভবনে বৈঠকে বসে লেপচাদের অন্য একটি সংগঠন। তাদের মতে, রাজ্য সরকারের লেপচা উন্নয়ন পর্ষদে কোনও লাভ হবে না।
 
মুখ্যমন্ত্রীর পাহাড় সফরের দিনই গোর্খাল্যান্ডের দাবিতে দিল্লিতে যশবন্ত সিং ও সিপি যোশীর সঙ্গে দেখা করেন মোর্চা নেতারা। মোর্চা নেতাদের সঙ্গে রাজধানীতে গেছেন পাহাড়ের অন্যান্য দলের প্রতিনিধিরাও। গতমাসে দিল্লিতে দরবার করে কোনও লাভ হয়নি। তাই, কংগ্রেস- বিজেপির কাছে নিজেদের দাবির যৌক্তিকতা বোঝাতে এ বার গোর্খাল্যান্ড জয়েন্ট অ্যাকশন কমিটির তরফে দিল্লিযাত্রা বলে মনে করা হচ্ছে।



First Published: Monday, September 2, 2013 - 22:39


comments powered by Disqus