ডিএসডিএর আওতায় মন্দারমনি

দীঘা শঙ্করপুর উন্নয়ন পর্ষদের আওতায় এল মন্দারমনি। মঙ্গলবার রাজ্য মন্ত্রিসভা অনুমোদন করল পূর্ব মেদিনীপুরের উপকুল অঞ্চলের একটা বড় অংশকে ডিএসডিএর আওতায় আনার।

Updated: Nov 30, 2011, 08:27 PM IST

দীঘা শঙ্করপুর উন্নয়ন পর্ষদের আওতায় এল মন্দারমনি। মঙ্গলবার রাজ্য মন্ত্রিসভা অনুমোদন করল পূর্ব মেদিনীপুরের উপকুল অঞ্চলের একটা বড় অংশকে ডিএসডিএর আওতায় আনার।
ক্ষমতায় আসার পর থেকেই দীঘা ও সংলগ্ন সমুদ্র সৈকতের পর্যটন কেন্দ্রগুলিকে দ্বিতীয় গোয়ায় রূপান্তরিত করার কথা বলেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর সেই স্বপ্নের দীঘা প্রকল্পই এবার পেতে চলেছে বাস্তব রূপ। মোট ৬,৮২৬ একর এলাকাকে ডিএসডিএর অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে মন্দারমনি, সিলামপুরি, সোনামুই, দাদনপাত্রবার, মনিয়া এবং দক্ষিণ পুরুসষোত্তমপুর। গ্রামগুলির উন্নয়ন ও সৌন্দর্যায়নের জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে ৩০০ কোটি টাকা। বিশ্ব ব্যাঙ্কের থেকে ইন্ডিয়া ইন্টিগ্রেটেড কোস্ট জোন ম্যানেজমেন্ট প্রকল্পের মাধ্যমে রাজ্য সরকারের হাতে আসবে এই টাকা। এছাড়াও এই প্রকল্পের জন্য বরাদ্দ করা হয়াছে অতিরিক্ত ১২০ কোটি টাকা।
অন্যদিকে মঙ্গলবার রাজ্য মন্ত্রীসভায় পশ্চিমবঙ্গ পুর আইন ১৯৯৩ সংশোধন করা হয়েছে। আইন অনুযায়ী এই প্রকল্পের মোট বরাদ্দ পরিমাণের ২৫% খরচ হবে শহরের দারিদ্রসীমার নিচে থাকা মানুষদের জন্য। ইউনিয়ন আর্বান ডেভেলপমেন্ট পরিষদের সংস্কারের পর সংশোধিত আইন অনুযায়ী বছরের উদ্বৃত্ত অর্থ পরের আর্থিক বছরে ফের পুরসভার হাতে চলে যাবে। এর ফলে শহরের দরিদ্র শেনীর উন্নয়ন খাতে অর্থের যোগান বাড়তে পারে বলে মনে করছে বিশেষজ্ঞ মহল।