অগ্নিগর্ভ রতুয়া, কুড়ুলের কোপ ওসিকে

অভিযুক্তকে ধরতে গিয়ে কুড়ুলের কোপে আহত হলেন খোদ থানার ওসি। মালদার রতুয়ায় মঙ্গলবার রাতে এই ঘটনা ঘটে। দুষ্কৃতীদের মারে আহত হয়েছেন আরও ২ পুলিস কর্মী। তাঁদের একজন এস আই। অন্যজন কনস্টেবল।

Updated: Mar 28, 2012, 03:16 PM IST

অভিযুক্তকে ধরতে গিয়ে কুড়ুলের কোপে আহত হলেন খোদ থানার ওসি। মালদার রতুয়ায় মঙ্গলবার রাতে এই ঘটনা ঘটে। দুষ্কৃতীদের মারে আহত হয়েছেন আরও ২ পুলিস কর্মী। তাঁদের একজন এস আই। অন্যজন কনস্টেবল।
১০০ দিনের কাজে দুর্নীতি চলছে অভিযোগ করেছিলেন রতুয়া ব্লকের বিডিও। সেই মতো অভিযুক্তদের ধরতে মঙ্গলবার রাতে হানা দেয় পুলিস। রতুয়ার পীরগঞ্জ গ্রামপঞ্চায়েতের সাতমারিতে দুষ্কৃতীরা পুলিসের গাড়িতে হামলা চালায়। রতুয়া থানার ওসি সুমন্ত বিশ্বাসকে কুড়ুল দিয়ে আঘাত করা হয়। দুষ্কৃতীদের মারে আহত হন এস আই অভিষেক তালুকদারও। দুর্নীতির অভিযোগে পুলিস যাদের আটক করেছিল, তাদের ছাড়িয়ে নিয়ে যায় দুষ্কৃতীরা।
আহত ওসি এবং এস আই মালদহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিত্সাধীন। রতুয়া হাসপাতালে আহত কনস্টেবলের চিকিত্সা চলছে।  এর আগে রতুয়া থানার এস আই এক সনত কর্মকার এক অপহরণে অভিযুক্তকে ধরতে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছিলেন দুষ্কৃতীদের হাতে।