ঝাড়গ্রাম আর জয়নগর, মুখ্যমন্ত্রীর ডাকে তৃণমূলের প্রার্থী দুই অন্য নারী

Last Updated: Saturday, March 8, 2014 - 23:56

একজন ডাক্তারি পাশ করে জঙ্গলমহলের প্রত্যন্ত এলাকায় চিকিৎসা করেন। অন্যজন সদ্য WBCS অফিসারের চাকরি ছেড়েছেন। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ইচ্ছেয় ঝাড়গ্রাম ও জয়নগরে তৃণমূলের প্রার্থী হয়েছেন উমা সোরেন আর প্রতিমা নস্কর। এ বার ঝাড়গ্রামে দুই ডক্তারের লড়াই। সিপিআইএমের চিকিত্সক প্রার্থী পুলিনবিহারী বাস্কের বিরুদ্ধে তৃণমূলের প্রার্থী চিকিত্সক উমা সোরেন। ঝাড়গ্রাম কেন্দ্রে এই প্রথম কোনও মহিলা ভোটে লড়ছেন।

২০১২-য় এমবিবিএস পাশ করেন ঝাড়গ্রামের মেয়ে বছর ২৭-এর উমা। জঙ্গলমহলের প্রত্যন্ত এলাকায় চিকিতসা পরিষেবা পৌছে দিতে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার হয়ে কাজ করা উমাই এবার নেত্রীর পছন্দ।

জয়নগরের তৃণমূল প্রার্থীও রাজনীতিতে আনকোড়া। তবে রাজনৈতিক পরিবারের মেয়ে। বাবা গোবিন্দচন্দ্র নস্কর বনগাঁর তৃণমূল সাংসদ। অসুস্থতার জন্য এ বার ভোটে দাঁড়াতে চাননি। তাঁর মেয়ে প্রতিমাকেই প্রার্থী করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রার্থী করেছেন গত ভোটে তৃণমূলের জোটসঙ্গী এসইউসিআই-এর হাতে থাকা জয়নগর কেন্দ্রে। ভোটে লড়তে WBCS-এর চাকরি ছাড়তে হয়েছে প্রতিমা নস্করকে।

জয়নগরে আরএসপি-র সুভাষ নস্কর আর এসইউসিআই-র তরুণ মণ্ডল প্রচার শুরু করে দিলেও এখনও প্রচারে নামেননি প্রতিমা নস্কর। নতুন মুখ হওয়ায় এলাকার কর্মীদের সঙ্গে পরিচিতি পর্ব সারতেই এখন ব্যস্ত তিনি। প্রথমবার ভোটের দৌড়েই প্রতিমাদেবীর সামনে গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের চ্যালেঞ্জ। প্রার্থী হওয়ার দৌড়ে ছিলেন জেলা তৃণমূলের ভাইস চেয়ারম্যান শক্তি মণ্ডল। গোবিন্দ নস্কর গোষ্ঠীর বিরোধী বলে পরিচিত জেলা পরিষদের সহ-সভাধিপতি শৈবাল লাহিড়িও আছেন।



First Published: Saturday, March 8, 2014 - 23:56


comments powered by Disqus