সারদা কাণ্ডে ফের আত্মহত্যা, এবার মুর্শিদাবাদে

চিটফান্ড কাণ্ডে আরও একজন আত্মঘাতী হলেন। আমানতকারীদের টাকা ফেরত দিতে না পেরে মুর্শিদাবাদে আত্মঘাতী হলেন একজন  এজেন্ট।  পশ্চিম মেদিনীপুরে টাকা ফেরত না পাওয়ার আশঙ্কায় আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন একজন আমানতকারী।  আজও জেলায় জেলায় বিভিন্ন লগ্নি সংস্থার অফিসের সামনে বিক্ষোভ দেখান আমানতকারী ও এজেন্টরা। 

Updated: May 2, 2013, 10:47 PM IST

চিটফান্ড কাণ্ডে আরও একজন আত্মঘাতী হলেন। আমানতকারীদের টাকা ফেরত দিতে না পেরে মুর্শিদাবাদে আত্মঘাতী হলেন একজন  এজেন্ট।  পশ্চিম মেদিনীপুরে টাকা ফেরত না পাওয়ার আশঙ্কায় আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন একজন আমানতকারী।  আজও জেলায় জেলায় বিভিন্ন লগ্নি সংস্থার অফিসের সামনে বিক্ষোভ দেখান আমানতকারী ও এজেন্টরা। 
বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করলেন মুর্শিদাবাদের সালার থানার প্রতিমা দাস। তিনি এটিএম কোম্পানির এজেন্ট। এটিএএম সংস্থার জন্য সাধারণ মানুষের কাছ থেকে তুলেছিলেন প্রচুর টাকা। টাকা ফেরত না পেয়ে প্রতিমা দাসের বাড়িতে বেশ কয়েকবার বিক্ষোভ দেখান আমানতকারীরা। লগ্নিকারীদের টাকা ফেরত পেতে কোম্পানির কাটোয়া অফিসে যোগাযাগ করেন প্রতিমা দাস। বুধবার অফিসে গিয়ে দেখেন অফিস তালাবন্ধ। এরপরেই  হেনস্থার  ভয়ে রাতে ঘরে বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করেন প্রতিমা দাস।
 পশ্চিম মেদিনীপুরের চন্দ্রোকোনা টাউন থানার জারা গ্রামের বাসিন্দা ভাগচাষী অঞ্জন দাস সারদা কোম্পানিতে চল্লিশ হাজার টাকা রেখেছিলেন। টাকা ফেরত না পাওয়ার আশঙ্কায় তিনি আত্মহত্যার চেষ্টা করেন।  
পশ্চিম মেদিনীপুরের ঝাড়গ্রামে এটিএম সংস্থার অফিসে টাকা ফেরতের দাবিতে আজ বিক্ষোভ দেখান কয়েকশ আমানতকারী। বিক্ষোভ দেখানো হয় রোজভ্যালি সমেত সানমার্গের ঝাড়গ্রাম অফিসে। 
কোচবিহারে চিটফান্ড সংস্থা তোর্সার  অফিস সিল করে দিল পুলিস। আগেই গ্রেফতার করা হয়েছে সংস্থার কোচবিহার জেলার ম্যানেজার দেবাশিস দাসকে। বৃহস্পতিবার জেলা সদরে তোর্সার অফিসের সামনে বিক্ষোভ দেখান এজেন্ট ও আমানতকারীরা। বিক্ষোভ দেখানো হয় জেলা শাসকের অফিসের সামনেও। 
পশ্চিম মেদিনীপুরের রাধাকান্তপুরে রিয়েলবন্ড নামে একটি চিটফান্ড সংস্থার কর্মকর্তার বাড়িতে হামলা চালালেন আমানতকারী ও এজেন্টরা। লগ্নির টাকা ফেরতের দাবি নিয়ে  বচসার মধ্যেই পালিয়ে যান রিয়েলবন্ড সংস্থার কর্মকর্তা প্রণব মাঝি ও তাঁর স্ত্রী সুচিত্রা মাঝি। সংস্থার কর্মী ও বিক্ষোভকারীদের হাতাহাতিতে আহত হন প্রণব মাঝির বোন ও ভগ্নিপতি। আহত হন একজন এজেন্টও।  আটক করা হয়েছে চিটফান্ড সংস্থার কর্মকর্তার বোন ও ভগ্নিপতিকে।
প্রতারণার অভিযোগে আরামবাগের গোঘাটে চিটফান্ড সংস্থার এক মালিককে গ্রেফতার করল পুলিস। ধৃতের নাম শ্যামসুন্দরদাস কর্মকার। সোনালি অ্যাগ্রো ইন্ডাস্ট্রিস নামে সংস্থার মালিক শ্যামসুন্দরদাস কর্মকারকে আরামবাগ মহকুমা আদালতে তোলা হয়।  প্রতারণার অভিযোগে আরামবাগেই সিয়ারাম অ্যাগ্রো ইন্ডাস্ট্রিস নামে আরও একটি ভুঁইফোঁড় সংস্থার মালিককেও গ্রেফতারের দাবিতে বিক্ষোভ দেখান আমানতকারীরা।