মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তা নিয়ে কমিশনকে দায়ী করল তৃণমূল

মালদহের হোটেলে মুখ্যমন্ত্রীর ঘরে এসি মেশিনে অগ্নিকাণ্ডের জের। মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তা নিয়ে চাপান উতোরে জড়াল তৃণমূল কংগ্রেস এবং নির্বাচন কমিশন । তবে নিরাপত্তা নিয়ে তৃণমূলের অভিযোগ পুরোপুরি খারিজ করে দিয়েছে কমিশন।

Updated: Apr 19, 2014, 11:47 AM IST

মালদহের হোটেলে মুখ্যমন্ত্রীর ঘরে এসি মেশিনে অগ্নিকাণ্ডের জের। মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তা নিয়ে চাপান উতোরে জড়াল তৃণমূল কংগ্রেস এবং নির্বাচন কমিশন । তবে নিরাপত্তা নিয়ে তৃণমূলের অভিযোগ পুরোপুরি খারিজ করে দিয়েছে কমিশন।

রাজ্যে নির্বাচন প্রক্রিয়া চলাকালীন মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তার দায়িত্ব কার। মালদার হোটেলে মুখ্যমন্ত্রীর ঘরে অগ্নিকাণ্ডের পর এব্যাপারে কমিশনকেই কাঠগড়ায় তুলেছেন তৃণমূল নেতা মুকুল রায়। বৃহস্পতিবার তিনি অভিযোগ করেন, যেহেতু আইন-শৃঙ্খলার দায়িত্ব বর্তমানে কমিশনের উপরে ন্যস্ত, তাই মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তার দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ কমিশন।

কিন্তু এনিয়ে কমিশনের বক্তব্য সম্পূর্ণ ভিন্ন। মুখ্যমন্ত্রী যে হোটেলে ছিলেন সেটি কমিশন বুক করায়নি। তাই কোনোভাবেই হোটেলে যা হয়েছে তার দায়িত্ব কমিশনের নয়। যিনি জেড প্লাস ক্যাটেগরির নিরাপত্তা পান, তাঁর নিরাপত্তার দায়িত্ব কমিশনের নয়। মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তার দায়িত্ব রাজ্য সরকারের।

নিয়ম অনুযায়ী নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে কোথাও থাকলে , মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে নয়, থাকতে হয় দলের নেত্রী হিসাবে। এক্ষেত্রেও তৃণমূল নেত্রী হিসাবেই হোটেলে তাঁর ঘর বুক করা হয়েছিল। যিনি জেড প্লাস ক্যাটেগরির নিরাপত্তা পান, তাঁর নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকেন এডিজি। এডিজি রাজ্য সরকারেরই পুলিস অফিসার। রাজ্য প্রশাসনের শীর্ষকর্তাদের বিষয়টি জানার কথা। প্রশ্ন উঠছে, এসব সত্ত্বেও কেন কমিশনের ঘাড়ে মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তার দায় চাপাতে চাইছেন মুকুল রায়। পুরনো তিক্ততার জের থেকেই কি এমন মনোভাব তৃণমূলের, উঠছে সেই প্রশ্নও।