#মকরসংক্রান্তি: স্নানের পুণ্যমুহূর্ত আর পার্বণের দীপ্ত উদযাপনে স্মরণীয় এই দিন

ফসল তোলার উৎসবে মিশে যায় ভোরের স্নান আর 'খড়ের বুড়ি'র গায়ে আগুন দেওয়ার ঐতিহ্য!

Updated By: Jan 14, 2022, 12:38 PM IST
#মকরসংক্রান্তি: স্নানের পুণ্যমুহূর্ত আর পার্বণের দীপ্ত উদযাপনে স্মরণীয় এই দিন

সৌমিত্র সেন
 
পৌষ বা মকরসংক্রান্তি বঙ্গসংস্কৃতির এক বিশেষ উৎসব, বিশেষ ঐতিহ্য। পৌষ মাসের শেষ দিনটিতে এই উৎসব পালন করা হয়। শুধু বাঙালিরাই নন, দেশের নানা প্রান্তে দিনটিকে নানা ভাবে উৎসবের সঙ্গে পালন করা হয়। বাঙালিরা এই দিনটিতে পুজো করে পিঠে-পুলি বানিয়ে খায়। কিছু বিশেষ নিয়মকানুনের মধ্যে দিয়ে দিনটিকে পালন করা হয়। 

মকর সংক্রান্তির দিন সাধারণত সূর্যদেবের পুজো করা হয়। তাঁর আশীর্বাদে রোগ-ব্যাধি দূর হয় বলে বিশ্বাস। এই বিশেষ দিনটিতে সকলেই ঘরবাড়ি, রান্নাঘর ইত্যাদি পরিষ্কার করেন, যাতে সমস্ত রকম অশুভ ও অপরিশুদ্ধতা ঘরবাড়ি থেকে দূর হয়। এরকমই সংক্রান্তির কিছু অবশ্য পালনীয় নিয়ম আছে। দেখে নেওয়া যাক সেগুলি কী কী:

১) মকর সংক্রান্তির দিন সকালে ঘুম থেকে উঠে স্নান তার পরে উঠোনে বা ঘরে আলপনা দিয়ে সূর্যপুজো। ধান-দূর্বা, তিল-কদমায় এদিন পুজো সারেন মেয়েরা। 

২) সংক্রান্তির স্নানশেষে গ্রামের দিকে আরও এক রীতি আছে। আগেই মাঠ থেকে ধান কেটে নেওয়া হয়। শস্যশূন্য ধানের খেতে এদিন 'খড়ের বুড়ি মা'র ঘরে আগুন দেওয়া হয়। 'খড়ের বুড়ি মা' আর কিছু নয়, জমিতে জড়ো করে রাখা খড়ের স্তূপ। সেই খড়ে আগুন দিয়ে আগুনের পাশে বসে আঁচ পোয়ান গ্রামের মানুষজন।

৩) এদিন নলেন গুড়, চালগুঁড়ো, দুধ, ক্ষীর-সহযোগে পিঠে, পুলি, পায়েস ইত্যাদি বানানো হয়। এদিন এসবই খাওয়ার রীতি।  

 ৪) মকর সংক্রান্তির আর এক বিশেষ আকর্ষণ ঘুড়ি। এদিন ছোট-বড় মিলে রঙ-বেরঙের ঘুড়ি ওড়ানো হয়। চলে ঘুড়ি ওড়ানোর প্রতিযোগিতাও। সব মিলিয়ে রীতিমতো ঘুড়ি উৎসব! এদিন ঘুড়ি ওড়ানোর জন্য আগে থেকেই ঘুড়ি বানানো এবং সুতায় মাঞ্জা দেওয়ার প্রস্তুতি নেওয়া হয়। এমনিতেই ঘুড়ি উৎসব বাংলার প্রাচীন ঐতিহ্য। মুঘল আমল থেকে এই উৎসব পালিত হয়ে আসছে বলে জানা যায়। মকরের দিনে তা ভিন্ন মাত্রা পায়।

৫) এই বিশেষ দিনটিতে সূর্যদেব তাঁর পুত্র শনির প্রতি তাঁর ক্ষোভ ভুলে যান এবং তিনি শনির গৃহে উপনীত হন। এই যে মহাজাগতিক পুনর্মিলন, সেটাকে মনে রেখেই এই উৎসবের সঙ্গেই জড়িয়ে থেকেছে মানুষে-মানুষে মিলনের আনন্দবার্তা।

ফিরে ফিরে এদিনটি আসে। অনাগত ভবিষ্যতেও আসবে। নতুন করে মানুষ মেতে উঠবে উদযাপনে। করোনাভীতি তাকে সাময়িক থমকে দিলেও জীবনের শক্তি করোনার চেয়ে ঢের বেশি।

Zee 24 Ghanta App দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির লেটেস্ট খবর পড়তে ডাউনলোড করুন Zee 24 Ghanta App) 

আরও পড়ুন: #মকরসংক্রান্তি: পৌষ-উৎসবের মধুর রোদ্দুরে পুরাণের বিধুর ছায়া