ম্যানিলার ক্যাফেতে হামলা, মৃত ৩৪, দায় স্বীকার ISIS-এর

ম্যানিলার ক্যাফেতে বন্দুকবাজের তাণ্ডব। এলোপাথাড়ি গুলিতে কমপক্ষে ৩৪ জনের মৃত্যু। পরে নিজেকেই গুলি করে খতম করে  হামলাকারী। এই ঘটনার দায় স্বীকার করেছে ISIS। ফিলিপিন্সের রাজধানীর এই ঘটনাকে জঙ্গি হামলা বলেই মনে করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোলান্ড ট্রাম্প। ম্যানিলার পুলিস প্রধান রোনাল্ড ডেলা রোসা জানিয়েছেন, ফিলিপিন্স আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সংলগ্ন রিসোর্টস ওয়ার্লড ম্যানিলার গ্যাম্বলিং রুমে ঢুকে, নিজের M4 অ্যাসল্ট রাইফেল থেকে গুলি ছুঁড়তে থাকে ১ ব্যক্তি। তার নিশানায় ছিল ক্যাফেটেরিয়াও। তবে পুলিস ঘটনাকে জঙ্গি হামলা বলে মানতে নারাজ। তাদের মতে ডাকাতির উদ্দেশেই রিসোর্টে ঢুকেছিল ওই ব্যক্তি। ব্যর্থ হওয়ায় সে আত্মহত্যা করে।

Updated By: Jun 2, 2017, 06:10 PM IST
ম্যানিলার ক্যাফেতে হামলা, মৃত ৩৪, দায় স্বীকার ISIS-এর

ওয়েব ডেস্ক : ম্যানিলার ক্যাফেতে বন্দুকবাজের তাণ্ডব। এলোপাথাড়ি গুলিতে কমপক্ষে ৩৪ জনের মৃত্যু। পরে নিজেকেই গুলি করে খতম করে  হামলাকারী। এই ঘটনার দায় স্বীকার করেছে ISIS। ফিলিপিন্সের রাজধানীর এই ঘটনাকে জঙ্গি হামলা বলেই মনে করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোলান্ড ট্রাম্প। ম্যানিলার পুলিস প্রধান রোনাল্ড ডেলা রোসা জানিয়েছেন, ফিলিপিন্স আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সংলগ্ন রিসোর্টস ওয়ার্লড ম্যানিলার গ্যাম্বলিং রুমে ঢুকে, নিজের M4 অ্যাসল্ট রাইফেল থেকে গুলি ছুঁড়তে থাকে ১ ব্যক্তি। তার নিশানায় ছিল ক্যাফেটেরিয়াও। তবে পুলিস ঘটনাকে জঙ্গি হামলা বলে মানতে নারাজ। তাদের মতে ডাকাতির উদ্দেশেই রিসোর্টে ঢুকেছিল ওই ব্যক্তি। ব্যর্থ হওয়ায় সে আত্মহত্যা করে।

দক্ষিণ ফিলিপিনসে IS-এর বিরুদ্ধে লড়াই চালাচ্ছে সেনা। তখনই ম্যানিলার কাসিনোয় বন্দুকবাজের হামলা। বৃহস্পতিবার ভারতীয় সময় রাত সাড়ে ৯টা। বিমানবন্দরের কাছে ওয়ার্ল্ড ম্যানিলা রিসর্টে আচমকা ঢুকে পড়ে মুখোশ পরা বন্দুকবাজ। রিসর্টে ঢুকেই ক্যাসিনোয় চলে যায় বন্দুকবাজ। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, অ্যাসল্ট রাইফেল থেকে টিভি লক্ষ্য করে গুলি চালায় বন্দুকবাজ। ক্যাসিনো টেবিলে আগুন ধরিয়ে দেয় সে। কার্পেট পোড়া বিষাক্ত ধোঁয়ায় এবং পদপিষ্ট হয়ে বহু মানুষের মৃত্যু হয়।

ম্যানিলা পুলিসের দাবি, বন্দুকবাজ একজন বিদেশি। পরে, রিসর্টের ঘরে গায়ে আগুন দিয়ে আত্মহত্যা করে সে। তাকে চিহ্ণিতও করা গেছে। আত্মহত্যার আগে প্রায় ২৩ লক্ষ মার্কিন ডলারের গ্যাম্বলিং কয়েন চুরি করে বন্দুকবাজ।

ফিলিপিনসে IS-বিরোধী অভিযান চলায় শুরুতে তাদের দিকেই আঙুল ওঠে। অসমর্থিত সূত্রে খবর ছড়ায়, IS ঘটনার দায় স্বীকার করেছে। যদিও, পরে, প্রেসিডেন্ট হাউস থেকে দাবি করা হয়, এটি জঙ্গি হামলার ঘটনা নয়। লুঠের উদ্দেশ্যেই ক্যাসিনোয় ঢোকে বন্দুকবাজ।

বন্দুকবাজ কোনও সাধারণ মানুষকে নিশানা না করায় এটি জঙ্গি হামলা নয় বলেই মনে করছে পুলিস। তবে ঘটনার পর গোটা দেশেই নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে। চলছে কড়া পুলিসি টহল।

আরও পড়ুন, পরমাণু ক্ষেপণাস্ত্র বহনকারী পৃথ্বী-২ এর সফল উত্ক্ষেপণ করল ভারত