এক্সপেরিমেন্টাল প্রিয়াঙ্কা

Jul 18, 2013, 09:49 PM IST
এক্সপেরিমেন্টাল প্রিয়াঙ্কা৩১ বছর পূর্ণ করলেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। বলিউডে কাটিয়ে ফেলেছেন ১১ বছর। এই এক দশকেরও বেশি সময়ে চরিত্র, লুক সবকিছুর মধ্যেই বারবার ফিরে এসেছে বৈচিত্র। প্রিয়াঙ্কার জন্মদিনে তাঁর সেরা দশটি লুক নিয়ে এই স্লাইড শো।
1/11

এক্সপেরিমেন্টাল প্রিয়াঙ্কা
৩১ বছর পূর্ণ করলেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। বলিউডে কাটিয়ে ফেলেছেন ১১ বছর। এই এক দশকেরও বেশি সময়ে চরিত্র, লুক সবকিছুর মধ্যেই বারবার ফিরে এসেছে বৈচিত্র। প্রিয়াঙ্কার জন্মদিনে তাঁর সেরা দশটি লুক নিয়ে এই স্লাইড শো।

প্রিয়াঙ্কা যখন বাজে মেয়েছবি- এ্যাতরাজ (২০০৪)চরিত্র- সোনিয়া রয়কেরিয়ারের শুরুতেই নেগেটিভ চরিত্রে অভিনয় করতে দ্বিতীয় বার ভাবেননি প্রিয়াঙ্কা। গ্ল্যামারাস লুক আর অসাধারণ তীক্ষ্ণ অভিনয় তাঁর জাত চিনিয়ে দিয়েছিল এই ছবি থেকেই। ফিল্মফেয়ার, স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ড ও গ্লোবাল ইন্ডিয়ান ফিল্ম অ্যাওয়ার্ডে জুটেছিল নেগেটিভ চরিত্রে সেরা অভিনয়ের স্বীকৃতি।
2/11

প্রিয়াঙ্কা যখন বাজে মেয়ে
ছবি- এ্যাতরাজ (২০০৪)
চরিত্র- সোনিয়া রয়
কেরিয়ারের শুরুতেই নেগেটিভ চরিত্রে অভিনয় করতে দ্বিতীয় বার ভাবেননি প্রিয়াঙ্কা। গ্ল্যামারাস লুক আর অসাধারণ তীক্ষ্ণ অভিনয় তাঁর জাত চিনিয়ে দিয়েছিল এই ছবি থেকেই। ফিল্মফেয়ার, স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ড ও গ্লোবাল ইন্ডিয়ান ফিল্ম অ্যাওয়ার্ডে জুটেছিল নেগেটিভ চরিত্রে সেরা অভিনয়ের স্বীকৃতি।

প্রিয়াঙ্কার লভ স্টোরিছবি- লভ স্টোরি ২০৫০ (২০০৮)চরিত্র- সানাবক্সঅফিসে মুখ থুবড়ে পড়েছিল বিশাল বাজেটের স্পেশ্যাল এফেক্টস সৃমদ্ধ ছবিটি। তবে নিজের লুক দিয়ে ফ্যাশন গুরুদের চোখ টাটিয়েছিলেন প্রাক্তন বিশ্বসুন্দরী প্রিয়াঙ্কা।
3/11

প্রিয়াঙ্কার লভ স্টোরি
ছবি- লভ স্টোরি ২০৫০ (২০০৮)
চরিত্র- সানা
বক্সঅফিসে মুখ থুবড়ে পড়েছিল বিশাল বাজেটের স্পেশ্যাল এফেক্টস সৃমদ্ধ ছবিটি। তবে নিজের লুক দিয়ে ফ্যাশন গুরুদের চোখ টাটিয়েছিলেন প্রাক্তন বিশ্বসুন্দরী প্রিয়াঙ্কা।

মার্শাল প্রিয়াঙ্কাছবি- দ্রোণা (২০০৮)চরিত্র- সোনিয়াবক্সঅফিসে বিশেষ কুল পায়নি দ্রোণা। তবে প্রিয়াঙ্কা দিয়েছিলেন নিজের ২০০ শতাংশ। ছবির জন্য শিখেছিলেন মার্শাল আর্ট। দ্রোণার লুক আর প্রিয়াঙ্কার পারফেক্ট মার্শাল আর্ট প্রমাণ করেছিল তাঁর ভার্সাটাইলিটি।
4/11

মার্শাল প্রিয়াঙ্কা
ছবি- দ্রোণা (২০০৮)
চরিত্র- সোনিয়া
বক্সঅফিসে বিশেষ কুল পায়নি দ্রোণা। তবে প্রিয়াঙ্কা দিয়েছিলেন নিজের ২০০ শতাংশ। ছবির জন্য শিখেছিলেন মার্শাল আর্ট। দ্রোণার লুক আর প্রিয়াঙ্কার পারফেক্ট মার্শাল আর্ট প্রমাণ করেছিল তাঁর ভার্সাটাইলিটি।

ফ্যাশনেবল পিগি চপসছবি- ফ্যাশন (২০০৮)চরিত্র- মেঘনা মাথুরজীবনের সেরা ছবিগুলির একটি। ছোট শহরের সাধারণ চেহারার মেয়ে থেকে গ্ল্যামারাস প্রথম শ্রেণির মডেল, সবকটি লুকেই প্রিয়াঙ্কা ছিলেন অনবদ্য। এই ছবিতে অভিনয় তাঁকে পৌঁছে দিয়েছিল বলিউড সিঁড়ির একবারে উপরের ধাপে। সেরা অভিনয়ের জন্য জীবনের প্রথম জাতীয় পুরস্কার এসেছে এই ছবির হাত ধরেই। ফিল্মফেয়ার, আইফা ও স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ডও ছিল প্রিয়াঙ্কারই।
5/11

ফ্যাশনেবল পিগি চপস
ছবি- ফ্যাশন (২০০৮)
চরিত্র- মেঘনা মাথুর
জীবনের সেরা ছবিগুলির একটি। ছোট শহরের সাধারণ চেহারার মেয়ে থেকে গ্ল্যামারাস প্রথম শ্রেণির মডেল, সবকটি লুকেই প্রিয়াঙ্কা ছিলেন অনবদ্য। এই ছবিতে অভিনয় তাঁকে পৌঁছে দিয়েছিল বলিউড সিঁড়ির একবারে উপরের ধাপে। সেরা অভিনয়ের জন্য জীবনের প্রথম জাতীয় পুরস্কার এসেছে এই ছবির হাত ধরেই। ফিল্মফেয়ার, আইফা ও স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ডও ছিল প্রিয়াঙ্কারই।

দেশি গার্লছবি-দোস্তানা (২০০৮)চরিত্র- নেহা মালওয়ানিবিকিনি, আর দেশি গার্লের শাড়ি। প্রিয়াঙ্কার উপস্থিতিই ছবিতে যোগ করেছিল আলাদা মাত্রা। জীবনের সেরা গ্ল্যামারাস চরিত্রগুলির একটি। বিকিনি বডি আর দেশি গার্লের ঠুমকা প্রিয়াঙ্কাকে এনে দিয়েছিল স্টারডাস্ট স্টার অফ দ্য ইয়ার অ্যাওয়ার্ড।
6/11

দেশি গার্ল
ছবি-দোস্তানা (২০০৮)
চরিত্র- নেহা মালওয়ানি
বিকিনি, আর দেশি গার্লের শাড়ি। প্রিয়াঙ্কার উপস্থিতিই ছবিতে যোগ করেছিল আলাদা মাত্রা। জীবনের সেরা গ্ল্যামারাস চরিত্রগুলির একটি। বিকিনি বডি আর দেশি গার্লের ঠুমকা প্রিয়াঙ্কাকে এনে দিয়েছিল স্টারডাস্ট স্টার অফ দ্য ইয়ার অ্যাওয়ার্ড।

প্রিয়াঙ্কা রিমেকছবি- অগ্নিপথ (২০১২)চরিত্র-কালি গৌড়ে১৯৯০ সালে মুক্তি পাওয়া অগ্নিপথের রিমেক। ডনের পর প্রিয়াঙ্কার জীবনে দ্বিতীয় রিমেক। আগাগোড়া দেশি লুকে প্রিয়াঙ্কা। প্রশংসিত অভিনয়ও। বক্সঅফিসে ১০০ কোটির ব্যবসাও দিয়েছিল অগ্নিপথ।
7/11

প্রিয়াঙ্কা রিমেক
ছবি- অগ্নিপথ (২০১২)
চরিত্র-কালি গৌড়ে
১৯৯০ সালে মুক্তি পাওয়া অগ্নিপথের রিমেক। ডনের পর প্রিয়াঙ্কার জীবনে দ্বিতীয় রিমেক। আগাগোড়া দেশি লুকে প্রিয়াঙ্কা। প্রশংসিত অভিনয়ও। বক্সঅফিসে ১০০ কোটির ব্যবসাও দিয়েছিল অগ্নিপথ।

ঝিলমিলছবি- বরফিচরিত্র-ঝিলমিল চ্যাটার্জি। অটিস্টিক ঝিলমিল এখনও পর্যন্ত প্রিয়াঙ্কার জীবনে অভিনীত সেরা চরিত্র। ঝাঁকড়া চুল, মোটা ঠোঁটে, নো মেক-আপ লুক প্রিয়াঙ্কাকে দেখে চমকে গেছেন দর্শক থেকে সমালোচকরা। মিলেছে সেরা অভিনেত্রীর জি সিনে অ্যাওয়ার্ড, টাইমস অফ ইন্ডিয়া ফিল্ম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড ও স্টারডাস্ট অ্যাওয়ার্ড।
8/11

ঝিলমিল
ছবি- বরফি
চরিত্র-ঝিলমিল চ্যাটার্জি।
অটিস্টিক ঝিলমিল এখনও পর্যন্ত প্রিয়াঙ্কার জীবনে অভিনীত সেরা চরিত্র। ঝাঁকড়া চুল, মোটা ঠোঁটে, নো মেক-আপ লুক প্রিয়াঙ্কাকে দেখে চমকে গেছেন দর্শক থেকে সমালোচকরা। মিলেছে সেরা অভিনেত্রীর জি সিনে অ্যাওয়ার্ড, টাইমস অফ ইন্ডিয়া ফিল্ম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ড ও স্টারডাস্ট অ্যাওয়ার্ড।

প্রিয়াঙ্কার গুন্ডাগিরিছবি- গুন্ডে (মুক্তির অপেক্ষায়)চরিত্র- নন্দিতাঢাকাই শাড়ি আর হাতকাটা ব্লাউজ। মাথায় লম্বা বিনুনি। কখনও মেছুনির লুক। ছবি মুক্তির আগেই হিট প্রিয়াঙ্কার লুক।
9/11

প্রিয়াঙ্কার গুন্ডাগিরি
ছবি- গুন্ডে (মুক্তির অপেক্ষায়)
চরিত্র- নন্দিতা
ঢাকাই শাড়ি আর হাতকাটা ব্লাউজ। মাথায় লম্বা বিনুনি। কখনও মেছুনির লুক। ছবি মুক্তির আগেই হিট প্রিয়াঙ্কার লুক।

সুইটি কমিনিছবি-কমিনে (২০০৯)চরিত্র- সুইটি শেখর ভোপেজীবনে প্রথম গ্ল্যামারাস চরিত্রের খোলস ছেড়ে বেরিয়ে এলেন প্রিয়াঙ্কা। মারাঠি সুইটির চরিত্রে আঞ্চলিক ভাষার ব্যবহার। আর শহিদের সঙ্গে অসাধারণ রসায়ন ছিল এই ছবির মূল ইউএসপি। অপ্সরা ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন প্রোডিউসারস গিল্ড অ্যাওয়ার্ড-সেরা অভিনেত্রী
10/11

সুইটি কমিনি
ছবি-কমিনে (২০০৯)
চরিত্র- সুইটি শেখর ভোপে
জীবনে প্রথম গ্ল্যামারাস চরিত্রের খোলস ছেড়ে বেরিয়ে এলেন প্রিয়াঙ্কা। মারাঠি সুইটির চরিত্রে আঞ্চলিক ভাষার ব্যবহার। আর শহিদের সঙ্গে অসাধারণ রসায়ন ছিল এই ছবির মূল ইউএসপি।
অপ্সরা ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন প্রোডিউসারস গিল্ড অ্যাওয়ার্ড-সেরা অভিনেত্রী

লেডি ডনছবি- ডন টুচরিত্র- রোমাএখনও পর্যন্ত প্রিয়াঙ্কার জীবনের সবথেকে সিরিয়াস গ্ল্যামারাস চরিত্র রোমা। কঠিন অথচ রোম্যান্টিক চরিত্রে প্রিয়াঙ্কার অভিনয়, লাস্যময়ী, আকর্ষনীয় শরীরে অসাধারণ অ্যাকশনে নজর কেড়েছিলেন প্রিয়াঙ্কা। পেয়েছেন সেরা অভিনেত্রীর লায়নস গোল্ড অ্যাওয়ার্ড। শাহরুখের সঙ্গে জোড়ি নম্বর ওয়ান স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ড ও অপ্সরা ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন প্রোডিউসারস গিল্ড অ্যাওয়ার্ড এন্টারটেনার অফ দ্য ইয়ার।
11/11

লেডি ডন
ছবি- ডন টু
চরিত্র- রোমা
এখনও পর্যন্ত প্রিয়াঙ্কার জীবনের সবথেকে সিরিয়াস গ্ল্যামারাস চরিত্র রোমা। কঠিন অথচ রোম্যান্টিক চরিত্রে প্রিয়াঙ্কার অভিনয়, লাস্যময়ী, আকর্ষনীয় শরীরে অসাধারণ অ্যাকশনে নজর কেড়েছিলেন প্রিয়াঙ্কা। পেয়েছেন সেরা অভিনেত্রীর লায়নস গোল্ড অ্যাওয়ার্ড। শাহরুখের সঙ্গে জোড়ি নম্বর ওয়ান স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ড ও অপ্সরা ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন প্রোডিউসারস গিল্ড অ্যাওয়ার্ড এন্টারটেনার অফ দ্য ইয়ার।