আত্মহত্যা না খুন? রাম সিংয়ের মৃত্যুতে ক্রমেই ঘনীভূত হচ্ছে রহস্য

১২.৩৫: তিন সদস্যের চিকিৎসক দল গঠন করে মৃত রাম সিংয়ের দেহের ময়নাতদন্ত করা হবে বলে জানা গিয়েছে। ১২.৩২: রাম সিংয়ের আইনজীবীও দাবি করেন, পেশায় বাস চালক দিল্লি গণধর্ষণের মূল অভিযুক্তের আত্মহত্যার পথ বেছে নেওয়ার কোনও কারণ নেই।

Updated: Mar 11, 2013, 02:06 PM IST

৪.০৬: রাম সিংয়ের মৃত্যুর ম্যজিস্ট্রেট পর্যায়ে তদন্ত করা হবে। জানালেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রি সুশীল কুমার শিন্ডে। রাম সিং আত্মহত্যাই করেছেন বলে দাবি করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।
৪.০২: দিল্লির এইমস হাসপাতালে ময়নাতদন্ত হবে রাম সিংয়ের দেহের।
২.৩০: রাম সিংয়ের অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় কেন্দ্রীয় সরকারকের কাছে রিপোর্ট পেশ করল তিহার। ঘটনার পর জেলের কাছে রিপোর্ট তলব করে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক।
২.০২: তিহার জেলের তরফে জানা গিয়েছে, জেলের ভিতর বালতি ব্যবহার করে রাম সিং আত্মহত্যা করেন। সূত্র আরও জানিয়েছে, অন্য চার অভিযুক্তদের নিয়মিত  কাউন্সিলিং করা হবে।
১.৫০: জেলের ডিজি বিমল সিং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন। রাম সিংয়ের মৃত্যুর বিষয়টি বিস্তারে জানাবেন। পরে সাংবাদিক বৈঠক করবেন স্বরাষ্টড়মন্ত্রী।
১.১৯: তিহার জেল আধিকারিকদের তরফে দিল্লি গণধর্ষণকাণ্ডের মূল অভিযুক্ত রাম সিংয়ের আত্মহত্যার কথা ট্রায়াল কোর্টে জানানো হল।   
১২.৩৫: তিন সদস্যের চিকিৎসক দল গঠন করে মৃত রাম সিংয়ের দেহের ময়নাতদন্ত করা হবে বলে জানা গিয়েছে।
১২.৩২: রাম সিংয়ের আইনজীবীও দাবি করেন, পেশায় বাস চালক দিল্লি গণধর্ষণের মূল অভিযুক্তের আত্মহত্যার পথ বেছে নেওয়ার কোনও কারণ নেই।  
১১.৪৭: রাম সিংয়ের পরিবারের তরফে দাবি করা হয়, দিল্লি গণধর্ষকাণ্ডের মূল অভিযুক্তের আত্মহত্যার কোনও কারণ ছিল না। তাকে পরিকল্পিত ভাবে খুন করা হয়েছে বলে অভিযোগ তোলেন রাম সিংয়ের বাবা।
১১.১৯: রাম সিংয়ের অস্বাভাবিক মৃত্যু নিয়ে কোনও মন্তব্য করতে চাননি শীলা দিক্ষিত। তিনি বলেন, "এখন কোনও মন্তব্য করা ঠিক হবে না, গোটা ঘটনার তদন্ত চলছে।" স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে বিষয়টি নিয়ে বিস্তারিত ভাবে কোনও আলোচনা হয়নি বলে জানান দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী।
১১.১৬: দিল্লি মুখ্যমন্ত্রী শীলা দিক্ষিত ও সুশীল কুমার শিন্ডের বৈঠক শেষ। বৈঠক পূর্ব পরিকল্পিত হওয়া স্বত্ত্বেও দু'জনের মধ্যে রাম সিংয়ের মৃত্যুর বিষয়ে আলোচনা হয় বলে খবর।
১১.০০: রাম সিংয়ের মৃত্যুর পর, দিল্লি গণধর্ষণকাণ্ডের অন্য চার ধৃতের নিরাপত্তা বাড়িয়ে দেওয়া হল। সোমবার বেলার দিকে তাদেরকে আদালতে পেশ করা হবে। জেল সূত্রে জানা যায়, যে গারদ থেকে রাম সিংয়ের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয় তার উচ্চতা ৮ ফুট।  
১০.৫৫: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুশীল কুমার শিন্ডের সঙ্গে দেখা করেন শীলা দীক্ষিত।
১০.৩০: রাম সিংয়ের অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী শীলা দীক্ষিতের সঙ্গে দেখা করবেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুশীল কুমার শিণ্ডে। আজ সকাল ১১টা নাগাদ দু'জন বৈঠকে বসবেন বলে জানা গিয়েছে।
১০.০৯: রাম সিংয়ের সেলের অপর দুই বন্দিকে জেরা করা হয়। রক্ষী ও ওয়ার্ডেনকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।
৯.৪২: সূত্র মারফত জানা গিয়েছে, রাম সিংয়ের সেলের বাইরে নিয়মমাফিক কোনও সিসিটিভি ক্যামেরা ছিল না। যেখানে অভিযুক্ত রাম সিংকে ২৪ ঘণ্টা নজরে রাখার নির্দেশ ছিল, সেখানে কীভাবে এই ধরনের গাফিলতি হয়েছে তা নিয়ে জেলে কতৃপক্ষের বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠে।
জেলের ৩ নম্বর সেলের দায়িত্বে থাকা রক্ষীর বয়ান শুনবেন মেট্রোপলিটান ম্যাজিস্ট্রেত।
৯.২৯: মুখ খুললেন দিল্লি পুলিসের প্রাক্তন ডিজি কিরণ বেদী। তিহার জেলের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তিনি। জেলের অন্য বন্দিদের জিজ্ঞাসাবাদ করে বেশ কিছু তথ্য উঠে আসবে বলে মনে করেন তিনি।
৯.১৫: রাম সিংয়ের মৃত্যুর ঘটনায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক হস্তক্ষেপ করে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী আরপিএন সিং বলেন, "দিল্লি পুলিসের কাছে রিপোর্ট তলব করেছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক।" তিহার জেলের তরফেও গোটা ঘটনার তদন্ত করবে বলে জানান সিং।
৯.০৪: দিল্লি গণধর্ষণকাণ্ডের সাহসিনীর ভাই জানান, "রাম সিং নিজেকেই শাস্তি দিয়েছে।" এই ঘটনায় তিহার জেল কতৃপক্ষের দোষ রয়েছে বলে মানতে রাজি নন তিনি। ওই যুবক আরও বলেন, "আদালতের কাজ নির্দিষ্ট পথেই এগোচ্ছে। আমি চাই দোষীরা সাজা পাক।"
৮.৪০: সূত্র মারফত জানা গিয়েছে, রাম সিং যে সেলে ছিলেন, সেখানে আরও দু'জন বন্দিকে রাখা হয়েছিল। তবে কীভাবে মৃত্যু ঘটল রাম সিংয়ের? তা নিয়ে শুরু হয় জল্পনা।
সকাল ৫টা: দিল্লি গণধর্ষণকাণ্ডের মূল অভিযুক্ত রাম সিংয়ের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয় তিহার জেলের ৩ নম্বর সেল থেকে। গত ১৬ ডিসেম্বর রাজধানী দিল্লির চলন্ত বাসে ২৩ বছরের তরুণীকে ধর্ষণ করা হয়। ওই বাসের চালক ছিলেন রাম সিং।