বারণ না শুনে যোগ ব্যায়াম শেখানোয় মুসলিম তরুণীর বাড়িতে হামলা, একঘরে করার হুমকি

হুমকির পর হামলা। যোগ ব্যায়াম শেখানো বন্ধ না করায়, এবার মুসলিম তরুণীর বাড়িতে হামলা চালাল দুষ্কৃতীরা। পাশাপাশি যোগ ব্যায়াম শেখানো যদি বন্ধ করা না হয়, তাহলে রাফিয়া নাজ নামে ওই শিক্ষিকার পরিবারকে ‘একঘরে’ করে দেওয়ারও হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে খবর।

Updated: Nov 10, 2017, 12:47 PM IST
বারণ না শুনে যোগ ব্যায়াম শেখানোয় মুসলিম তরুণীর বাড়িতে হামলা, একঘরে করার হুমকি

নিজস্ব প্রতিনিধি : হুমকির পর হামলা। যোগ ব্যায়াম শেখানো বন্ধ না করায়, এবার মুসলিম তরুণীর বাড়িতে হামলা চালাল দুষ্কৃতীরা। পাশাপাশি যোগ ব্যায়াম শেখানো যদি বন্ধ করা না হয়, তাহলে রাফিয়া নাজ নামে ওই শিক্ষিকার পরিবারকে ‘একঘরে’ করে দেওয়ারও হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে খবর।

‘যোগ ব্যায়াম শেখানো বন্ধ করুন, না হলে জানে মেরে দেওয়া হবে’ বলে হুমকি দেওয়া হয় রাঁচির ওই মুসলিম তরুণীকে। ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই ঝাড়খন্ডের মুখ্যমন্ত্রী রঘুবর দাসের নির্দেশে রাফিয়ার নিরাপত্তার জন্য মোতায়েন করা হয় ২ পুলিস কর্মীকে। পাশাপাশি রাফিয়া এবং তাঁর পরিবারের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে তাঁদের উপর নজর রাখছে পুলিস কন্ট্রোল রুম, এমনও জানা গিয়েছে। কিন্তু, তারপরও সমস্যার সমাধান হয়নি।

আরও পড়ুন : 'যোগ ব্যায়াম শেখানো বন্ধ করুন', জানে মেরে দেওয়ার হুমকি তরুণীকে 

পুলিসের নাকের ডগায় রাফিয়ার বাড়ির উপর হামলা চালানো হয়। রাফিয়া বলেন, ‘হামলার সময় আমাদের বাড়ির উপর পাথর ছোড়া হচ্ছিল। ভয়ের চোটে নিজেদেরকে ঘরের মধ্যে বন্ধ করে রেখেছিলাম।’ খবর পাওয়ার পর পরই সেখানে হাজির হয় পুলিস। কিন্তু, কে বা কারা ওই হামলা চালিয়েছে, তা সনাক্ত করা যায়নি।

সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, যোগ ব্যায়াম বন্ধ করার জন্য ওই যোগ ব্যায়াম শিক্ষিকাকে হুমকি দেওয়া হয় স্থানীয় মৌলবিদের তরফে।