সংসদের রেকর্ড থেকে মুছে গেল প্রধানমন্ত্রীর মুখের 'আপত্তিকর শব্দ'

বিকে হরিপ্রসাদের 'বিকে' শব্দটি নিয়ে মন্তব্য করেই গোল বাঁধিয়েছেন নমো। 

Updated: Aug 10, 2018, 04:43 PM IST
সংসদের রেকর্ড থেকে মুছে গেল প্রধানমন্ত্রীর মুখের 'আপত্তিকর শব্দ'

নিজস্ব প্রতিবেদন: সুবক্তা হিসেবে খ্যাতি অর্জন করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। শব্দ নিয়ে খেলতেও তাঁর জুড়ি মেলা ভার। তবে সেই শব্দের খেলা খেলতে গিয়েই বৃহস্পতিবার সংসদে 'অসংসদীয়' মন্তব্য করে ফেলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সংসদের রেকর্ড থেকে মুছে দেওয়া হল সেই শব্দ। আর এই বেনজির ঘটনায় চরম বিড়ম্বনায় কেন্দ্রের শাসক দল।

বৃহস্পতিবার রাজ্যসভায় ডেপুটি চেয়ারম্যান পদের নির্বাচনে বিরোধী শিবিরের প্রার্থী বিকে হরিপ্রসাদকে হারান এনডিএ-র হরিবংশ নারায়ণ সিং। তারপরই আসন ছেড়ে উঠে হরিবংশকে শুভেচ্ছা জানান নরেন্দ্র মোদী। নির্বাচনে এনডিএ প্রার্থী জয়লাভের পর প্রধানমন্ত্রী মজার ছলে বলেন, ''এবার থেকে হরির ভরসায় সংসদ''। তবে বিকে হরিপ্রসাদের 'বিকে' শব্দটি নিয়ে মন্তব্য করেই গোল বাঁধিয়েছেন নমো। সঙ্গে সঙ্গে গণতান্ত্রিক লড়াইয়ের মর্যাদা রাখার জন্য হরিপ্রসাদকে অভিনন্দন জানালেও যা হওয়ার হয়ে গিয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর মন্তব্য অসংসদীয় বলে অভিযোগ করে কংগ্রেস। 

কংগ্রেস সাংসদ শশী থারুর বলেন, 'সংসদে খোদ প্রধানমন্ত্রীই অসংসদীয় ভাষা ব্যবহার করছেন, এটা দেশের পক্ষে লজ্জাজনক। তাঁর আরও সংযোজন, ''আমি মনে করি নরেন্দ্র মোদী সুবক্তা। শব্দ নিয়ে খেলতে গর্ববোধ করেন উনি। তা প্রশংসাযোগ্যও। তবে এটাও লক্ষ্য রাখা দরকার, ভাবপ্রকাশের সৃজনশীলতা যেন সীমা লঙ্ঘন না করে। আমার মনে হয়, উনি সেই সীমা অতিক্রম করেছেন''। 

কংগ্রেসের অভিযোগের সারবত্তা যাচাই করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী 'আপত্তিকর' শব্দ চয়ন বলে মনে করেছেন চেয়ারম্যান বেঙ্কাইয়া নাইডু। ওই শব্দটি সংসদের রেকর্ড থেকে মুছে দেওয়া হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী এহেন বিড়ম্বনায় পড়ায় বিজেপির সাফাই, এতে স্পষ্ট হল,  তাদের নির্বাচিত চেয়ারম্যান নিরপেক্ষভাবে কাজ করছেন। পরাজিত প্রার্থী হরিপ্রসাদের কথায়,''প্রধানমন্ত্রী সংসদের মর্যাদা রাখতে পারলেন না। খুবই লজ্জাজনক ব্যাপার'' 

সংসদের কার্যনির্বাহী থেকে এই প্রথম প্রধানমন্ত্রীর বলা কোনও শব্দ বাদ পড়েনি। এর আগেও ঘটেছিল। ২০১৩ সালে অরুণ জেটলি ও তত্কালীন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের মধ্যে উত্তপ্ত বাদানুবাদ হয়েছিল। দুজনের কয়েকটি শব্দ সংসদের রেকর্ড থেকে মুছে দেওয়া হয়। 

২০১৯ সালে লোকসভা ভোটের আগে বিরোধীদের এক বন্ধনীতে আনতে চাইছে কংগ্রেস। তবে ডেপুটি চেয়ারম্যান নির্বাচনে ঐক্যবদ্ধ বিরোধী জোটে ভাঙন ধরিয়েছেন মোদী-শাহ। বৃহস্পতিবার এনডিএ জোটের প্রার্থী হরিবংশ নারায়ণ সিং হয়েছেন রাজ্যসভার নতুন ডেপুটি চেয়ারম্যান। ১২৫টি ভোট পান তিনি। কংগ্রেস প্রার্থী বিকে হরিপ্রসাদ পান ১০৫টি। অস্ত্রোপচারের পর প্রথমবার সংসদে ভোটদানে আসেন অরুণ জেটলিও। 

আরও পড়ুন- আরও একটা হারের পর রাহুলের নেতৃত্ব নিয়েই সংশয় বিরোধী শিবিরের অন্দরে  

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close