অনুষ্ঠান সেরে ফেরার পথে গাড়ি দুর্ঘটনায় ফের মৃত্যু গায়কের!

সারা রাত জেগে থাকায় ভোররাতে চালকের চোখ কোনওভাবে লেগে এসেছিল, তার জেরেই নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন তিনি।

Updated: Nov 8, 2018, 02:34 PM IST
অনুষ্ঠান সেরে ফেরার পথে গাড়ি দুর্ঘটনায় ফের মৃত্যু গায়কের!

নিজস্ব প্রতিবেদন: একটানা হর্নটা বেজে যাচ্ছিল। মিনিট দশেক পরেও তা না থামায় স্থানীয় বাসিন্দারাই অতিষ্ঠ হয়ে ছুটে গিয়েছিলেন শব্দের উত্স সন্ধানে। গিয়ে দেখেন ভয়ঙ্কর দৃশ্য।  গাড়ি থেকে বেরোচ্ছে ধোঁয়া। সামনের অংশ দুমড়ে কুণ্ডলীকৃত হয়ে গিয়েছে। তার মধ্যে রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে রয়েছেন কয়েকজন। প্রথমে শিল্পীকে চিনতে পারেননি তাঁরা। পরে যখন বুঝতে পারেন, ততক্ষণে অনেত দেরি হয়ে গিয়েছে। পথে দুর্ঘটনায় মৃত্যু হল শিল্পীর। পুজোর মধ্যেই ফের চলে গেলেন আরও এক শিল্পী।  ঘটনাটি ঘটেছে পূর্ব মেদিনীপুরের কোলাঘাট ব্রিজের ওপর ৬ নম্বর জাতীয় সড়কে।

কালীপুজো উপলক্ষ্যে পূর্ব মেদিনীপুরের ময়নার বাসিন্দা শিল্পী  কৌশিক মাইতি হাওড়ার বাগনানে অনুষ্ঠান করতে গিয়েছিলেন।  পূর্ব মেদিনীপুরের শ্রীরামপুর থেকে তিনটি গাড়ি নিয়ে তাঁর দলকে নিয়ে গিয়েছিলেন তিনি। হাওড়ার বাগনানে তাঁদের অনুষ্ঠান ছিল। অনুষ্ঠান শেষে বুধবার রাতেই রওনা দিয়েছিলেন তাঁরা।

আরও পড়ুন: মাংস কিনতে গিয়েছিলেন মা, ফিরে এসে স্বামীকে দুই মেয়ের সঙ্গে যে অবস্থায় দেখলেন...

বৃহস্পতিবার সকালে পূর্ব মেদিনীপুর ফেরার পথে কোলাঘাট ব্রিজের একটি দাঁড়িয়ে থাকা ট্রাকের পিছনে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ধাক্কা মারে গায়কের গাড়ি। শিল্পীর গাড়ির সামনেই আসনেই ছিলেন।  দুর্ঘটনার জেরে গাড়ির সামনের অংশ দুমড়ে-মুছড়ে যায়।  গায়কের মাথায় গুরুতর চোট লাগে। গাড়িতে থাকা আরও চার জন গুরুতর জখম হন। আহতদের মধ্যে একজন মহিলা শিল্পীও ছিলেন। স্থানীয়রাই আহতদের উদ্ধার করে তমলুক হাসপাতালে নিয়ে যান। আহতদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।   তাঁদের কলকাতায় স্থানান্তরিত করা হয়েছে। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার আগেই মৃত্যু হয় গায়কের। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের জেরেই তাঁর মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছেন চিকিত্সকরা। কোলাঘাট থানার পুলিস গাড়িটিকে উদ্ধার করেছে। কীভাবে দুর্ঘটনাটি ঘটল, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে,  সারা রাত জেগে থাকায় ভোররাতে চালকের চোখ কোনওভাবে লেগে এসেছিল, তার জেরেই নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন তিনি।  গত বছরই  গাড়ি দুর্ঘটনায় চলে যান প্রখ্যাত শিল্পী কালিকাপ্রসাদ। দুর্ঘটনায় জখম হন  তাঁর পাঁচ সতীর্থও।