ছত্রধর মাহাত দেশদ্রোহী হলে মুখ্যমন্ত্রীও দেশদ্রোহী, তোপ জেল বন্দি মাওবাদীদের

ছত্রধর মাহাত দেশদ্রোহী হলে মুখ্যমন্ত্রীও দেশদ্রোহী, তোপ জেল বন্দি মাওবাদীদের

ছত্রধর মাহাত দেশদ্রোহী হলে মুখ্যমন্ত্রীও দেশদ্রোহী। ছত্রধর মাহাত শাস্তির প্রতিবাদে এই ভাষাতেই মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন প্রেসিডেন্সি জেলে বন্দি মাওবাদীরা। আজ থেকে অর্ণব দাম ও পতিতপাবন হালদারের নেতৃত্বে অনশন শুরু করেছেন প্রেসিডেন্সিতে বন্দি ১২জন মাওবাদী।

আদালতে আত্মপক্ষ সমর্থনে একটি কথাও বললেন না ছত্রধর আদালতে আত্মপক্ষ সমর্থনে একটি কথাও বললেন না ছত্রধর

সাজা ঘোষণার আগে আদালতে আত্মপক্ষ সমর্থনে একটি কথাও বললেন না ছত্রধর মাহাত। যদিও তাঁর সঙ্গে দোষী সাব্যস্ত বাকি পাঁচ জন আত্মপক্ষ সমর্থন করে নিজেদের বক্তব্য জানান।  সকালে মেদিনীপুর আদালতে ছত্রধর মাহাত সহ ছজনকে নিয়ে আসা হয়। প্রিজন ভ্যান থেকে স্লোগান দিতে দিতে আদালতে ঢোকেন তাঁরা। আদালতের রায় মানবেন না বলে স্লোগানও দেন।  

UAPA-তে দোষী সাব্যস্ত  ছত্রধরের কাল সাজা ঘোষণা, হতে পারে মৃত্যুদণ্ডও UAPA-তে দোষী সাব্যস্ত ছত্রধরের কাল সাজা ঘোষণা, হতে পারে মৃত্যুদণ্ডও

 তাঁকে গ্রেফতার করেছিল কলকাতা পুলিসের STF। ছত্রধর মাহাতর বিরুদ্ধে একাধিক মামলা থাকলেও, কাঁটাপাহাড়ির একটি মাইন বিস্ফোরণের ঘটনায় প্রধান অভিযুক্ত করা হয় তাঁকে।

ছত্রধরের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহিতার অভিযোগ খারিজ

ছত্রধর মাহাতর বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহিতার অভিযোগে মামলা খারিজ হয়ে গেল ঝাড়গ্রাম আদালতে। প্রমাণের অভাবে ওই মামলা খারিজ হয়ে যায় আজ। ২০০৯ সালে কিষেণজির সঙ্গে বৈঠক করেছিলেন ছত্রধর এবং শশধর মাহাত। এই অভিযোগে ছত্রধর মাহাতর বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহিতার মামলা দায়ের করে লালগড় পুলিস।