উন্নয়নের টাকা নয় ছয় করছে সরকার, অভিযোগ বিমানের

রাজ্যের ওপর ঋণের বোঝা ইস্যুতে সবসময়ই বামেদের কাঠগড়ায় তোলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রাক্তন অর্থমন্ত্রীর অসীম দাশগুপ্তের পর এই ইস্যুতে মুখ্যমন্ত্রীকে একহাত নিলেন বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু। এবিপিটিএর সমাবেশে বিমান বসু বলেন ঋণ এবং বেতন দেওয়ার পরও রাজ্য সরকারের হাতে উন্নয়নের জন্য ৩৪ হাজার কোটি টাকা থাকে। সেই টাকা শিক্ষা, স্বাস্থ্য, পরিকাঠামো উন্নয়নে খরচ না করে বিভিন্ন ক্লাবকে অবাধে বিলি করছে রাজ্য সরকার।

Updated: Jan 25, 2013, 10:30 PM IST

রাজ্যের ওপর ঋণের বোঝা ইস্যুতে সবসময়ই বামেদের কাঠগড়ায় তোলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রাক্তন অর্থমন্ত্রীর অসীম দাশগুপ্তের পর এই ইস্যুতে মুখ্যমন্ত্রীকে একহাত নিলেন বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু। এবিপিটিএর সমাবেশে বিমান বসু বলেন ঋণ এবং বেতন দেওয়ার পরও রাজ্য সরকারের হাতে উন্নয়নের জন্য ৩৪ হাজার কোটি টাকা থাকে। সেই টাকা শিক্ষা, স্বাস্থ্য, পরিকাঠামো উন্নয়নে খরচ না করে বিভিন্ন ক্লাবকে অবাধে বিলি করছে রাজ্য সরকার।
প্রায় প্রতিটি জনসভাতেই মুখ্যমন্ত্রী বলেন, রাজ্যের ওপর ঋণের বোঝা চাপিয়ে দিয়ে গেছে পূর্বতন বাম সরকার। আর সেই কারণেই তাঁর সরকারের পক্ষে উন্নয়নের কাজ করা সম্ভব হচ্ছে না। শুক্রবার গড়িয়ায় প্রাথমিক শিক্ষকদের এক সমাবেশে পাল্টা অভিযোগ করেন বিমান বসু। তাঁর বক্তব্য ঋণ ও বেতন দেওয়ার পরও রাজ্যের হাতে ৩৪ হাজার কোটি টাকা উন্নয়নের জন্য থাকে। তাঁর বক্তব্য, সেই টাকা কোন খাতে খরচ হচ্ছে তার হিসেব দিক রাজ্য সরকার। 
 
বামেদের অভিযোগ, আরাবুল ইসলামদের মতন দলীয় নেতাদের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মাথায় বসানো হচ্ছে। তার জেরে ভেঙে পড়ছে শিক্ষা ব্যবস্থাই।