বিহারে বন্ধুর মামাবাড়িতে গা-ঢাকা ৫ কিশোর-কিশোরীর, কুঁদঘাটকাণ্ডে মিলল স্বস্তি

কুঁদঘাটকাণ্ডে অবশেষে স্বস্তি পেল পুলিস। বিহারে খোঁজ মিলল নিখোঁজ পাঁচ পড়ুয়ার। জানা গিয়েছে, বিহারের বখরিয়ারপুরে এক কিশোরের মামাবাড়িতে গা ঢাকা দিয়েছিল তারা। 

Updated: Feb 14, 2018, 01:18 PM IST
বিহারে বন্ধুর মামাবাড়িতে গা-ঢাকা ৫ কিশোর-কিশোরীর, কুঁদঘাটকাণ্ডে মিলল স্বস্তি

নিজস্ব প্রতিবেদন:  দুদিন ধরে রীতিমতো পুলিসকে নাকানিচুবানি খাইয়েছে পাঁচ খুদে। কুঁদঘাটকাণ্ডে অবশেষে স্বস্তি পেল পুলিস। বিহারে খোঁজ মিলল নিখোঁজ পাঁচ পড়ুয়ার। জানা গিয়েছে, বিহারের বখরিয়ারপুরে এক কিশোরের মামাবাড়িতে গা ঢাকা দিয়েছিল তারা। বিহারের গিয়ে পাঁচ পড়ুয়াকে হেফাজতে নিয়েছে রিজেন্টপার্ক থানার পুলিস।

পরিবার তো বটেই, পুলিসের কাছেও প্রত্যেকটা মিনিট হয়ে উঠেছিল অস্বস্তির। কিছুতেই খোঁজ মিলছিল না কুঁদঘাটের পাঁচ খুদের। বাড়ি ফিরে আসা কিশোরকে সঙ্গে নিয়ে তল্লাসি চালানো হচ্ছিল বর্ধমান ও মেমারি সংলগ্ন এলাকায়। পুলিস জানিয়েছে, প্রথম দিকে বাড়ি ফিরে আসা কিশোর ভুল তথ্য দিয়ে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করেছিল।

তদন্ত যত এগোতে থাকে, ততই কাটতে থাকে রহস্যের জট। ঘটনার কিছুদিন আগেই ওই কিশোর কিশোরীর বাড়ি থেকে সোনার গয়না ও টাকা খোয়া যায়। পুলিসের কাছে স্পষ্ট হয়ে যায়, রীতিমতো পরিকল্পনা করেই বাড়ি ছেড়েছে তারা। এরপর টানা জেরা করা হতে থাকে ফিরে আসা কিশোরকে।

জানা যায়, পাঁচ কিশোর কিশোরী প্রথমে হাওড়া স্টেশন থেকে ট্রেনে ওঠে। ফিরে আসা কিশোর শৌচাগারে যাবে বলে ব্যান্ডেল স্টেশনে নেমে পড়ে। পরে বর্ধমান যাওয়ার ট্রেনে উঠলেও মেমারি স্টেশনে নেমে বাড়ি ফিরে আসার সিদ্ধান্ত নেয় সে। কিন্তু বর্ধমান যাওয়ার ট্রেন ধরে কীভাবে ওই পাঁচ কিশোরকিশোরী বিহারে পৌঁছে গেল?  যে কিশোরের মামাবাড়িতে ওরা গাঢাকা দিয়েছিল, কেনইবা তাঁদের পক্ষ থেকে পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হল না? কেন বিহারে গিয়েছিল তাঁরা? এসব প্রশ্নের উত্তর এখন ধোঁয়াশা। আপাতত ওই পাঁচ খুদেকে বাড়ি ফিরিয়ে আনার পরই সেই রহস্যের জট খুলবে বলে মনে করছে পুলিস।  

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close