র‍্যাগিং-এ অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে এফআরআই করল না এসআরএফটিআই

Last Updated: Saturday, December 1, 2012 - 19:58

র‍্যাগিং-এ অভিযুক্ত ৮ ছাত্রের বিরুদ্ধে এফআইআর করতে গিয়েও পিছিয়ে এল এসআরএফটিআই। আপাতত অভিযুক্ত ৮ জনকে হস্টেল থেকে সাময়িক বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে তাঁরা। পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। সাতই ডিসেম্বর রিপোর্ট জমা দেবে কমিটি।
র‍্যাগিং-এ অভিযুক্ত ৮ ছাত্রের বিরুদ্ধে শনিবার পূর্ব যাদবপুর থানায় এফআইআর দায়ের করার কথা ছিল এসআরএফটিআই- কর্তৃপক্ষের। কিন্তু সত্যজিত্‍ রায়ের নামাঙ্কিত এবং আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছাত্রদের বিরুদ্ধে কর্তৃপক্ষ পুলিসে অভিযোগ জানালে ক্ষুন্ন হতে পারে সংস্থার ভাবমূর্তি। তাই আপাতত অভিযুক্তদের হস্টেল থেকে বহিষ্কারের মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকল শাস্তি। পাশাপাশি তদন্ত রিপোর্ট হাতে না আসা পর্যন্ত ওই ৮ ছাত্রকে ক্লাসে আসতে নিষেধ করা হয়েছে।  
 ঘটনার সূত্রপাত ২৬ নভেম্বর মধ্যরাতে। প্রথম বর্ষের ৪০ জন পড়ুয়াকে হস্টেলের ছাদে ডেকে পাঠায় ১২ জন সিনিয়র ছাত্র। নবাগত ১০ জন ছাত্রীর উদ্দেশ্যে  ৮ সিনিয়র ছাত্র অপমানজনক মন্তব্য এবং কটূক্তি করে বলে অভিযোগ। ভবিষ্যতের কথা ভেবে ঘটনার পর কর্তৃপক্ষকে কিছু জানাতে সাহস পায়নি র‍্যাগিং-এর শিকার ওই ছাত্রীরা। আঠাশে নভেম্বর বিকেলে এই ছাত্রীদের মধ্যে একজনের অভিভাবক কর্তৃপক্ষকে লিখিত অভিযোগ জানান। এরপরই বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে । তবে কর্তৃপক্ষের পাল্টা দাবি, বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত তথ্য ভুল। এসআরএফটিআই ক্যাম্পাসে ছাত্র ও ছাত্রীদের জন্য আলাদা কোনও হস্টেল নেই। একটিই মাত্র হস্টেল রয়েছে। তাই ছেলেদের হস্টেলে মেয়েদের ডেকে নিয়ে গিয়ে র‍্যাগিং করার যে অভিযোগ তা ভিত্তিহীন বলে উড়িয়ে দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।
পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে কর্তৃপক্ষ। সাতই ডিসেম্বরের মধ্যে এই কমিটি অধ্যক্ষের কাছে রিপোর্ট পেশ করবে। তবে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার কথা বলেও কর্তৃপক্ষ দু-কদম পিছিয়ে আসায় নিজেদের নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কিত আবাসিক ছাত্রীরা।



First Published: Saturday, December 1, 2012 - 19:58


comments powered by Disqus