দিল্লি ধর্ষণকাণ্ড: সোমবার আদালতে পেশ হবে ৫ অভিযুক্ত

Last Updated: Saturday, January 5, 2013 - 17:56

দিল্লি গণধর্ষণ মামলায় চার্জশিট গ্রহণ করল দিল্লির সাকেত জেলা আদালত। মামলার পরবর্তী শুনানি হবে সাত জানুয়ারি। ওই দিন ৫ অভিযুক্তকে আদালতে হাজির করানোর জন্য পুলিসকে নির্দেশ দিয়েছে আদালত।  অপ্রাপ্তবয়ষ্ক ষষ্ঠ অভিযুক্তের শুনানি হবে জুভেনাইল জাসটিস বোর্ডে। মূল অভিযুক্ত বাসের চালক রবি সিং, তার ভাই মুকেশ, ফল বিক্রেতা পবন গুপ্ত, জিম ইন্সট্রাকটর বিনয় শর্মা এবং বাসের খালাসি অক্ষয় ঠাকুরকে সোমবার তিহার জেল থেকে আদালতে আনা হবে।
চার্জশিটে তাদের বিরুদ্ধে খুন, ধর্ষণ, প্রমাণ লোপাট, অস্বাভাবিক অপরাধ, অপহরণ, ডাকাতি সহ একাধিক চার্জ আনা হয়েছে।
বৃহস্পতিবার দিল্লি পুলিস আদালতে ১০০০ পাতার চার্জশিট পেশ করে। মেট্রোপলিটান ম্যাজিস্ট্রেট নম্রিতা আগরওয়াল জানান, ভারতীয় ফৌজদারি দণ্ডবিধির ৩০২, ৩৯৬, ৩০৭, ৩৭৭, ২০১ এবং ৪১২ ধারায় দায়ের করা মামলার নথি তিনি পেয়েছেন। তিরিশ জন সাক্ষীর উল্লেখ করে ডিসেম্বর ১৬ রাতের পর থেকে ঘটনার ধারাবিবরণী রয়েছে ওই চার্জশিটে। ক্যামেরার সামনে এই মামলার শুনানি করার জন্য আদালতের কাছে আবেদন করে দিল্লি পুলিস। আদালত অবশ্য এখনও সে বিষয় কোনও সিদ্ধান্ত নেয়নি।
অন্যদিকে, দিল্লি গণধর্ষণের ঘটনায় দিল্লি পুলিসের বিরুদ্ধে আনা নিহত তরুণীর বন্ধুর অভিযোগ অস্বীকার করল দিল্লি পুলিস। তাদের দাবি, ঘটনার দিন রাতে ওই তরুণীকে হাসাপাতালে নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে কোনও দেরি হয়নি। দশটা একুশ মিনিটে পিসিআরে প্রথম ফোন গিয়েছিল। দশটা পঞ্চান্ন মিনিটের মধ্যে তরুণীকে সফদরজং হাসপাতালে পৌঁছে দেওয়া হয় বলেই দিল্লি পুলিসের দাবি।
ঘটনার দিন রাতে আহত তরুণীকে পুলিসের পিসিআর ভ্যানে কে তুলেছিলেন। পুলিস কর্মী। নাকি তরুণীর বন্ধু। সাংবাদিকদের এই প্রশ্নের জবাবে যদিও স্পষ্ট কিছুই বলল না দিল্লি পুলিস।



First Published: Saturday, January 5, 2013 - 18:45


comments powered by Disqus