ভারতের কাছে পরাজিত সেই আর্জেন্টিনা দলই চ্যাম্পিয়ন

আর্জেন্টিনার ফুটবলের দুরবস্থা নিয়ে কথা হচ্ছিল চারপাশে।

Updated: Aug 9, 2018, 08:27 PM IST
ভারতের কাছে পরাজিত সেই আর্জেন্টিনা দলই চ্যাম্পিয়ন

নিজস্ব প্রতিনিধি : কয়েকদিন আগে এই দলটাকেই হারিয়ে হইচই ফেলে দিয়েছিল ভারতীয় জুনিয়র ফুটবল দল। হোক না বয়সভিত্তিক খেলা! ফুটবলে আর্জেন্টিনার হার ভারতের কাছে! এমন বড় খবরে চমকে উঠেছিল গোটা বিশ্ব। আর্জেন্টিনার ফুটবলের দুরবস্থা নিয়ে কথা হচ্ছিল চারপাশে। তবে চারিদিকে এমন সমালোচনার আবহাওয়ার মাঝে সুখবর দিল  ভারতের কাছে হারা আর্জেন্টিনার সেই অনূর্ধ্ব ২০ দলটাই। স্পেনে রাশিয়াকে হারিয়ে কোতিফ কাপ জিতল আর্জেন্টিনা। অতিরিক্ত সময়ের গোলে আর্জেন্টিনা জিতেছে ২-১ ব্যবধানে।

আরও পড়ুন-  ম্যাচ হেরে হৃদয় জিতল শ্রীলঙ্কা, জাপানের মতো সভ্যতার নজির গড়ল পড়শি দেশ

শুরুতে পিছিয়ে পড়েছিল আর্জেন্টিনাই। ১১ মিনিটে ইগর দিভিভের গোলে। কিন্তু ফাকুন্দো কলিদিদো তিন মিনিটের মধ্যেই আর্জেন্টিনাকে সমতায় ফেরান। নির্ধারিত ৯০ মিনিটে দুই দল আর গোলের দেখা পায়নি। এক সময় তো মনে হচ্ছিল ম্যাচ পেনাল্টি শ্যুটআউটে গড়াবে। সেমিফাইনালে আর্জেন্টিনা টাইব্রেকারেই জিতেছিল উরুগুয়ের বিরুদ্ধে।

আরও পড়ুন-  আবর্জনা থেকে তৈরি হল রিয়াল মাদ্রিদের এবারের জার্সি

৯১ মিনিটে আলান মারিনেল্লির গোল শেষ পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন করে আর্জেন্টিনাকে। জাতীয় দলের ভারপ্রাপ্ত কোচ লিওনেল স্কালোনির নেতৃত্বে এই টুর্নামেন্ট খেলতে এসেছিল আর্জেন্টিনা। বিশ্বকাপের পর হোর্হে সাম্পাওলিকে এই দলটার দায়িত্ব দিতে চেয়েছিল আর্জেন্টিনা ফুটবল সংস্থা (এএফএ)। সিনিয়র টিমের দুরবস্থা। ফলে জুনিয়র স্তরের এই টুর্নামেন্ট নিয়ে সিরিয়াস ছিল আর্জেন্টিনার ফুটবল সংস্থা। এমনিতেও গত কয়েক বছর ধরে বয়সভিত্তিক ফুটবল নিয়ে এএফএ নড়েচড়ে বসেছে।

আরও পড়ুন-  ফাঁস হয়ে গেল দ্বিতীয় টেস্টে ভারতীয় দলের তালিকা

১৯৮৩ সাল থেকে আয়োজিত হচ্ছে কোতিফ কাপ। এক সময় বড় বড় ক্লাবগুলোও অংশ নিত। রিয়াল মাদ্রিদ, বার্সেলোনা, ভ্যালেন্সিয়া এই শিরোপা ঘরেও তুলেছে। টুর্নামেন্টটা একটু অদ্ভুত ধাঁচে অনুষ্ঠিত হত। ক্লাব ও জাতীয় দল খেলত একই সঙ্গে। ২০০১ সালে যেমন ব্রাজিলের ক্লাব সাও পাওলো জিতেছিল এই ট্রফি। পরের বছর জিতেছিল ব্রাজিল! ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, উরুগুয়ে অবশ্য বরাবরই তাদের বয়সভিত্তিক দল পাঠিয়েছে এই টুর্নামেন্টে। ২০১৬ সাল থেকে নিয়ম পাল্টায় কোতিফ কাপের। ঠিক হয়, বিভিন্ন দেশের অনূর্ধ্ব ২০ দল কেবল এতে অংশ নিতে পারবে। ক্লাব ও জাতীয় দলের মিশ্র টুর্নামেন্টটি হবে শুধু মেয়েদের ক্ষেত্রে। মেয়েদের কোতিফ কাপ যেমন এবার জিতেছে স্প্যানিশ ক্লাব লেভান্তে।

আর্জেন্টিনার এই টুর্নামেন্ট গুরুত্বের সঙ্গে নেওয়ার সবচেয়ে বড় কারণ, বয়সভিত্তিক ফুটবলেও খরা চলছিল তাদের। যুব বিশ্বকাপে রেকর্ড ছয় বার শিরোপা ঘরে তোলা আর্জেন্টিনা সর্বশেষ চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল ২০০৭ সালে। কয়েক বছর আগে বিভিন্ন ক্লাবের খেলোয়াড় নিয়োগে ব্রাজিলের মতো দেশকে ছাপিয়ে যাওয়া আর্জেন্টিনা এবার প্রতিভা সংকটে পড়েছে। উল্টো দিকে ব্রাজিল থেকে উঠে আসছে একের পর এক প্রতিভা। এবারের দলবদলে আলোচনায় বেশি ব্রাজিলের ফুটবলাররাই। ২০১৮ সালে বার্সেলোনাই দলে নিয়েছে তিনজন ব্রাজিলিয়ানকে।

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close