বৌভাতের পরদিনই বাথরুম থেকে উদ্ধার নববধূর ঝুলন্ত দেহ

বৌভাতের পরদিনই রহস্যজনক মৃত্যু গৃহবধূর। বাথরুম থেকে উদ্ধার হল ঝুলন্ত দেহ। মৃতার পরিবারের অভিযোগ, খুন করে দেহ ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে। অভিযোগের প্রেক্ষিতে আটক করা হয়েছে স্বামী সহ শ্বশুরবাড়ির সদস্যদের।

Updated: Dec 7, 2017, 08:02 PM IST
বৌভাতের পরদিনই বাথরুম থেকে উদ্ধার নববধূর ঝুলন্ত দেহ

নিজস্ব প্রতিবেদন : বৌভাতের পরদিনই রহস্যজনক মৃত্যু গৃহবধূর। বাথরুম থেকে উদ্ধার হল ঝুলন্ত দেহ। মৃতার পরিবারের অভিযোগ, খুন করে দেহ ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে। অভিযোগের প্রেক্ষিতে আটক করা হয়েছে স্বামী সহ শ্বশুরবাড়ির সদস্যদের।

বুধবার ৬ ডিসেম্বর উত্তর ২৪ পরগনার নোয়াপাড়ার বাবু কোয়ার্টারে বউভাত ছিল বেবি দেব রায়ের। বৃহস্পতিবার সকালে বাড়ির বাথরুম থেকে উদ্ধার হয় বেবির ঝুলন্ত দেহ। জানা গেছে, বৌভাতের দিনই ঝামেলা বাধে। সেলফি তুলতে গিয়ে, বেকায়দায় ধাক্কা লেগে একটি ফুলদানি ভেঙে যায়। তা নিয়েই গণ্ডগোল হয় স্বামী শুভঙ্করের বৌদির সঙ্গে।

শ্বশুরবাড়ির লোকজনের দাবি, বৃহস্পতিবার সকালে বাথরুমে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মঘাতী হন বেবি। তাকে বিএনবোস হাসপাতালে নিয়েও যাওয়া হয়। তবে মৃত ঘোষণা করেন ডাক্তাররা। তবে মৃতার পরিবারের অভিযোগ শ্বশুরবাড়ির লোকই খুন করেছে বেবিকে। উত্তেজিত বাপের বাড়ির লোকজনের হাতে গণপিটুনিরও শিকার হন মৃতার স্বামী-ভাসুর।

আরও পড়ুন, শিক্ষিকার 'কলমের খোঁচায়' রক্তাক্ত ছাত্র!

পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। ঘটনার পর থেকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না মৃতার মোবাইল। তাতেই দানা বাঁধছে সন্দেহ। কিছু লুকোতেই ফোন গায়েব করা হয়েছে কিনা, উঠছে সেই প্রশ্ন।

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. You can find out more by clicking this link

Close