মাদ্রাসা শিক্ষক নিয়োগ ক্ষমতা কমিশন থেকে কমিটির হাতে যাওয়ায় মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ ছাত্রছাত্রীরা

মাদ্রাসা শিক্ষক নিয়োগ ক্ষমতা কমিশন থেকে কমিটির হাতে যাওয়ায় মুখ্যমন্ত্রীর দ্বারস্থ ছাত্রছাত্রীরা

মাদ্রাসা শিক্ষক নিয়োগ ক্ষমতা মাদ্রাসা কমিশন থেকে কমিটির হাতে চলে যাওয়ার ফলে অন্ধকারে রয়েছেন বোর্ড মারফত নিযুক্ত ছাত্রছাত্রীরা। বোর্ড কাউন্সিলিং করার পর দুবছর পার করে গেছে, কিন্তু আইনি ফাঁসে আটকে চাকরির ভবিষ্যত্।

জিয়া খান মৃত্যুরহস্য: CBI-কে দ্রুত তদন্ত শেষের নির্দেশ সুপ্রিম কোর্ট জিয়া খান মৃত্যুরহস্য: CBI-কে দ্রুত তদন্ত শেষের নির্দেশ সুপ্রিম কোর্ট

অভিনেত্রী জিয়া খানের মৃত্যু নিয়ে তদন্ত দ্রুত শেষ করার জন্য CBI কে নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট। ২০১৩-র ৩ জুন নিজের ঘরে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায় 'নিঃশব্দ' নায়িকাকে। প্রাথমিকভাবে জিয়া খান আত্মহত্যা করেছেন বলা হলেও মা রাবিয়া মেয়ের মৃত্যুকে 'খুন' বলে উল্লেখ করেন। দাবি করেন CBI তদন্তের। দাবি মোতাবেক ২০১৪-য় বোম্বে হাইকোর্টের নির্দেশে জিয়া খানের মৃত্যু তদন্তভার হাতে নেয় CBI।

সর্বোচ্চ আদালত স্পষ্ট জানিয়ে দিল, মানহানি ফৌজদারি অপরাধ সর্বোচ্চ আদালত স্পষ্ট জানিয়ে দিল, মানহানি ফৌজদারি অপরাধ

বাকস্বাধীনতার অর্থ যা খুশি তাই বলে দেওয়া নয়। আজ আরও একবার তা স্পষ্ট করে দিল সুপ্রিম কোর্ট। সর্বোচ্চ আদালত জানিয়েছে, সংবিধান স্বীকৃত বাক স্বাধীনতাতেও কিছু নিয়ন্ত্রণের কথা বলা রয়েছে। মানহানি সংক্রান্ত ফৌজদারি মামলার ক্ষেত্রে দেশের সব আদালতকে আরও সচেতন থাকতে নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। সর্বোচ্চ আদালত স্পষ্ট জানিয়ে দিল, মানহানি ফৌজদারি অপরাধ।

আজ সিঙ্গুর মামলার শুনানি শুরু হল সুপ্রিম কোর্টে আজ সিঙ্গুর মামলার শুনানি শুরু হল সুপ্রিম কোর্টে

মঙ্গলবার সিঙ্গুর মামলার শুনানি শুরু হয় সুপ্রিম কোর্টে। টাটারা ছাড়াও, রাজ্য সরকার, ইচ্ছুক, অনিচ্ছুক চাষী, এবং একটি এনজিওর আইনজীবীরা হাজির ছিলেন শুনানিতে। হাইকোর্টে এপর্যন্ত কী কী সওয়াল জবাব হয়েছে সেগুলিই জানতে চান সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি ভি গোপাল গৌড়া এবং বিচারপতি অরুণ মিশ্রের ডিভিশন বেঞ্চ।

উত্তরাখণ্ডে রাষ্ট্রপতি শাসন জারি নিয়ে সুপ্রিম কোর্টে যাওয়ার সিদ্ধান্ত কেন্দ্রের উত্তরাখণ্ডে রাষ্ট্রপতি শাসন জারি নিয়ে সুপ্রিম কোর্টে যাওয়ার সিদ্ধান্ত কেন্দ্রের

উত্তরাখণ্ডে রাষ্ট্রপতি শাসন জারি নিয়ে সুপ্রিম কোর্টে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিল কেন্দ্র। হাইকোর্টের রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়েই শীর্ষ আদালতে যাচ্ছে তারা। উত্তরাখণ্ডে কী পরিস্থিতিতে রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করেছিল মোদী সরকার, শীর্ষ আদালতে তাই তুলে ধরা হবে।

কংগ্রেসের হরিশ রাওয়াতই থাকবেন উত্তরাখণ্ডের মুখ্যমন্ত্রী, জানাল দেরাদুন হাইকোর্ট কংগ্রেসের হরিশ রাওয়াতই থাকবেন উত্তরাখণ্ডের মুখ্যমন্ত্রী, জানাল দেরাদুন হাইকোর্ট

উত্তরাখণ্ড নিয়ে মুখ পুড়ল কেন্দ্রের। রাজ্যে ভুলভাবে রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করেছিল কেন্দ্র। জানিয়ে দিল দেরাদুন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে আদালত জানিয়ে দিল, কংগ্রেসের হরিশ রাওয়াতই থাকবেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী।

বাবা চাইলে স্ত্রী, পুত্র থাকলেও বিবাহিত কন্যাকে লিখে দিতে পারেন সম্পত্তি বাবা চাইলে স্ত্রী, পুত্র থাকলেও বিবাহিত কন্যাকে লিখে দিতে পারেন সম্পত্তি

কো-অপারেটিভ সোসাইটি আইন '৮৭ অনুযায়ী কো-অপারেটিভ সোসাইটির ফ্ল্যাটের মালিক ওই ফ্ল্যাটের নমিনি করতে পারেন শুধু তাঁর পরিবারের সদস্যদের। এই আইনের ওপর ভিত্তি করে করা একটি মামলায় যুগান্তকারী রায় দিল সুপ্রিম কোর্ট।

রাজীব গান্ধী হত্যাকারীদের মুক্তিতে জয়ললিতা সরকারের প্রস্তাব ফেরাল কেন্দ্র রাজীব গান্ধী হত্যাকারীদের মুক্তিতে জয়ললিতা সরকারের প্রস্তাব ফেরাল কেন্দ্র

১৬ মে তামিলনাড়ুতে বিধানসভা ভোট। তার আগেই প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীর হত্যাকারীদের মুক্তি দেওয়ার প্রস্তাব ফিরিয়ে দিল কেন্দ্র। তামিলনাড়ু সরকারের পক্ষ থেকে কেন্দ্রের কাছে রাজীব গান্ধীর হত্যাকারীদের মুক্তি দেওয়ার প্রস্তাব গিয়েছিল। এই প্রসঙ্গে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক তামিলনাড়ু সরকারকে জানিয়েছে যে, কেন্দ্রের এই বিষয়ে হস্তক্ষেপ করার কোনও অধিকার নেই। কারণ, বিষয়টি সুপ্রিম কোর্টে বিচারাধীন।

ধর্ষিতাদের জন্য ক্ষতিপূরণের পরিমান বৃদ্ধির নির্দেশ সুপ্রমি কোর্টের ধর্ষিতাদের জন্য ক্ষতিপূরণের পরিমান বৃদ্ধির নির্দেশ সুপ্রমি কোর্টের

ধর্যিতা মেয়েদের জন্য ঘতিপূরণ বৃদ্ধির নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট। আজ, রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলোকে সুপ্রিম কোর্টের পক্ষ থেকে ধর্ষিতা নারীদের ক্ষতিপূরণ বৃদ্ধি করেছে। গোয়ায় ধর্যিতাদের ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে ১০ লক্ষ টাকা। সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি এম ওয়াই ইকবাল এবং অরুণ মিশ্রর ডিভিশন বেঞ্চ এই রায় দিয়েছে। এই ক্ষতিপূরণ ওড়িশায় ১০ হাজার টাকা থেকে গোয়ায় ১০ লক্ষ টাকা করা হয়েছে।

খাদ্য নিরাপত্তা কর্মসূচি কার্যকর না করায় সুপ্রিম কোর্টের তোপের মুখে গুজরাট খাদ্য নিরাপত্তা কর্মসূচি কার্যকর না করায় সুপ্রিম কোর্টের তোপের মুখে গুজরাট

খাদ্য নিরাপত্তা কর্মসূচি কার্যকর না করায় সুপ্রিম কোর্টের তোপের মুখে গুজরাট। ক্ষুব্ধ বিচারপতির প্রশ্ন, গুজরাট কি দেশের বাইরে? সেখান কেন খাদ্য নিরাপত্তা কর্মসূচি কার্যকর করছে না রাজ্য সরকার? তাঁর প্রশ্ন, এব্যাপারে সংসদই বা কি করছে? পাশাপাশি, খরাপীড়িত রাজ্যগুলি এনআরইজিএ, খাদ্য নিরাপত্তা কর্মসূচি ও মিড ডে মিল কর্মসূচি কতদূর কার্যকর করছে, সেবিষয়েও রিপোর্ট দেওয়ার জন্য কেন্দ্রকে  নির্দেশ দিয়েছে বিচারপতি মদন বি লোকুরের বেঞ্চ। দশ ফেব্রুয়ারির মধ্যে কেন্দ্রকে এবিষয়ে রিপোর্ট দিতে বলা হয়েছে। উত্তর প্রদেশ, কর্নাটক, মধ্যপ্রদেশ, তেলেঙ্গানা, অন্ধ্রপ্রদেশ, মহারাষ্ট্র, গুজরাট, ওড়িশা, ঝাড়খণ্ড, বিহার , হরিয়ানা ও ছত্তিসগড়ের বেশকিছু এলাকা ইতিমধ্যেই খরাপীড়িত। অথচ সেই সব এলাকার বাসিন্দাদের জন্য  কোনও ব্যবস্থাই নেয়নি সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকার, এই মর্মে সম্প্রতি একটি জনস্বার্থ মামলা দায়ের করা হয় সুপ্রিম কোর্টে। সেই মামলার শুনানি প্রসঙ্গেই আজ গুজরাট সরকারের কড়া সমালোচনা করে সুপ্রিম কোর্ট।

 আইন অনুযায়ীই মুক্তি নির্ভয়াকাণ্ডের দোষী নাবালকের আইন অনুযায়ীই মুক্তি নির্ভয়াকাণ্ডের দোষী নাবালকের

গতকালই ছেড়ে দেওয়া হয়েছিল। তারপরেও নির্ভয়ার পরিবার আশা করেছিল যদি ওই নাবালক দোষীর মুক্তি রদ করা যায়। সেই বিষয়ে শুনানির কথা ছিল আজ। সুপ্রিম কোর্টের অবসরকালীন বেঞ্চ আজ তাঁদের রায় জানিয়ে দিলেন। সেই অনুযায়ী দোষী নাবালক মুক্তি পেয়ে গেল। আইনে নেই, তাই দোষী নাবালককে ছেড়ে দিতে হল!

আজ নির্ভয়া কাণ্ডে দোষী নাবালকের মুক্তি রদের আর্জির শুনানি আজ নির্ভয়া কাণ্ডে দোষী নাবালকের মুক্তি রদের আর্জির শুনানি

আজ সুপ্রিম কোর্টে নির্ভয়া কাণ্ডে দোষী নাবালকের মুক্তি রদের আর্জির শুনানি। গতকাল বিকেলে মুক্তি দেওয়া হয় দিল্লি গণধর্ষণের নাবালক অপরাধীকে। বিষয়টিকে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টে লিভ পিটিশন দাখিল করে দিল্লি মহিলা কমিশন। সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ না আসা পর্যন্ত মুক্তি স্থগিত রাখার দাবি জানিয়েছিল কমিশন। কিন্তু প্রত্যাশিত ভাবেই আইন মোতাবেক ছেড়ে দেওয়া হয় নাবালক অপরাধীকে। তারপর আজকের শুনানি স্রেফ প্রহসন বলে ক্ষোভ উগরে দিয়েছে নির্ভয়ার পরিবার। শেষবেলায় নাবালকের মুক্তি আটকাতে দিল্লি মহিলা কমিশন যে তত্‍পরতা দেখিয়েছে, তা লোক দেখানো বলে কটাক্ষ করেছেন নির্ভয়ার বাবা-মা।  

অ্যাসিড আক্রান্তদের দিতে হবে ক্ষতিপূরণ-পুনর্বাসন-বিনামূল্যে চিকিত্‍সা পরিষেবা : সুপ্রিম কোর্ট অ্যাসিড আক্রান্তদের দিতে হবে ক্ষতিপূরণ-পুনর্বাসন-বিনামূল্যে চিকিত্‍সা পরিষেবা : সুপ্রিম কোর্ট

অ্যাসিড হানায় আক্রান্তদের ক্ষতিপূরণ, পুনর্বাসন ও বিনামূল্যে চিকিত্‍সা পরিষেবা দিতে হবে। আজ এই মর্মে সমস্ত রাজ্য সরকার ও কেন্দ্র শাসিত অঞ্চলের প্রশাসনকে নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট। বিচারপতি এম ওয়াই ইকবাল এবং সি নাগাপ্পনের বেঞ্চ এই নির্দেশ দেয়। সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ সত্ত্বেও বেশিরভাগ বেসরকারি হাসপাতাল অ্যাসিড হানায় আক্রান্ত মহিলাদের বিনামূল্যে চিকিত্‍সা পরিষেবা দিচ্ছে না। আবার সব সরকারি হাসপাতালেও ভাল রিকনস্ট্রাকশন সার্জারির পরিকাঠামো নেই। অ্যাসিড হানায় আক্রান্ত মহিলারা তাহলে কী করবেন? কোথায় যাবেন? এই সমস্যা নিয়ে সর্বোচ্চ আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিল বিহারের স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা পরিবর্তন কেন্দ্র। তার প্রেক্ষিতেই আজ সমস্ত রাজ্য সরকারকে অ্যাসিড আক্রান্ত মহিলাদের বিনামূল্যে চিকিত্‍সা পরিষেবা ও আর্থিক ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

২০০৫ সালের আগে বাবার মৃত্যু হলে সম্পত্তির ভাগ পাবে না মেয়েরা ২০০৫ সালের আগে বাবার মৃত্যু হলে সম্পত্তির ভাগ পাবে না মেয়েরা

২০০৫ সালের আগে বাবার মৃত্যু হলে সম্পত্তি পাবেন না মেয়েরা। হিন্দু উত্তরাধিকার সংক্রান্ত মামলায় এই চাঞ্চল্যকর রায় দিল সুপ্রিম কোর্ট। ২০০৫-এ হিন্দু উত্তরাধিকার সংশোধনী আইনে পৈতৃক সম্পত্তিতে মেয়েদের সমানাধিকার দেওয়া হয়। কিন্তু আজ শীর্ষ আদালত জানিয়ে দিল, ২০০৫ সালের আগে বাবার মৃত্যু হলে মেয়েরা আর সম্পত্তির ভাগ পাবে না।

১৭ নভেম্বর সুপ্রিম কোর্টে সিঙ্গুর মামলার শুনানি ১৭ নভেম্বর সুপ্রিম কোর্টে সিঙ্গুর মামলার শুনানি

১৭ নভেম্বর সুপ্রিম কোর্টে সিঙ্গুর মামলার শুনানি। মামলার দ্রুত নিষ্পত্তি চেয়ে জনস্বার্থে দায়ের করা আবেদনটিও ওইদিন শুনতে পারে শীর্ষ আদালত।

ধর্ষকদের কোনও করুণা নয়: সুপ্রিম কোর্ট ধর্ষকদের কোনও করুণা নয়: সুপ্রিম কোর্ট

নাবালিকাদের ওপর যৌন নির্যাতনকারীরা পশু। তাদের প্রতি কোনও করুণা নয়। এমনই পর্যবেক্ষণ সুপ্রিম কোর্টের দুই বিচারপতি HL দাত্তু ও  অমিতাভ রায়ের বেঞ্চের। ২০১০ সালে হিমাচল প্রদেশে দশ বছরের নাবালিকাকে ধর্ষণ করে কুলদীপ কুমার নামে এক ব্যক্তি। সেই মামলায় কুলদীপের দশ বছরের জেল হয়। সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয় কুলদীপ। শুনানি চলাকালীন  বিচারপতি দাত্তু ও রায় বলেন, নাবালিকাদের ওপর যৌন নির্যাতনকারীদের কোনও রকম ক্ষমার যোগ্য নয়।